BREAKING NEWS

১০  আশ্বিন  ১৪২৯  বৃহস্পতিবার ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

বিয়েতে নারাজ, লিভ-ইন সঙ্গীর গলা কেটে খুন মহিলার, দেহ উদ্ধার ট্রলি ব্যাগ খেকে

Published by: Kishore Ghosh |    Posted: August 9, 2022 1:32 pm|    Updated: August 9, 2022 1:45 pm

A Gajiabad Woman Allegedly Slits Live-In Partner's Throat, Stuffs Body In Trolley Bag | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লিভ-ইন সঙ্গী বিয়ে করতে রাজি নন, উলটে তাঁকে ‘চরিত্রহীন’ সম্বোধন করেন, রাগে প্রেমিককে গলা কেটে খুন করলেন উত্তরপ্রদেশের (Uttar Pradesh) গাজিয়াবাদের (Gajiabad) বাসিন্দা এক মহিলা। দেহ ট্রলি ব্যাগে ভরে লোপাট করার ছক কষলেও ব্যর্থ হন তিনি। পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে অভিযুক্তকে।

গাজিয়াবাদ পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, অভিযুক্ত মহিলার নাম প্রীতি শর্মা (Preeti Sharma)। বছর চারেক আগে স্বামীর থেকে আলাদা হন তিনি। এরপর ২৩ বছরের ফিরোজ আলিয়াস চান্নির সঙ্গে সম্পর্কে জড়ান। তারপর থেকেই ফিরোজের সঙ্গে লিভ-ইন করছিলেন।

[আরও পড়ুন: মহামারী থেকে মুক্তির পথে দেশ, আরও নিম্নমুখী করোনা সংক্রমণ, পজিটিভিটি রেট সাড়ে ৩%]

পুলিশি জিজ্ঞাসাবাদে খুনের দায়ে অভিযুক্ত মহিলা জানিয়েছেন, বেশ কিছুদিনের লিভ-ইনের পর ফিরোজকে বিয়ে করতে চেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু তাতে রাজি ছিল না ফিরোজ। পালটা সে জানায়, প্রীতি ভিন্ন ধর্মের হওয়ায় তাঁকে মেনে নেবে না ফিরোজের বাবা-মা ও পরিবারের অন্য সদস্যরা। এরপরেও বিয়ের জন্য জোর দেওয়ায় প্রীতি ও ফিরোজের মধ্যে ঝামেলা বাধে। সেই সময় প্রীতিকে ‘চরিত্রহীন’ বলে মন্তব্য করেন ফিরোজ। এই সময়ই মেজাজ হারিয়ে ক্ষুর দিয়ে ফিরোজের গলা কাটেন প্রীতি।

[আরও পড়ুন: বাংলার পরবর্তী রাজ্যপাল মোদি-শাহ ঘনিষ্ঠ রাকেশ আস্থানা? দিল্লির অলিন্দে তুঙ্গে জল্পনা]

এরপর প্রীতি একটি ট্রলি ব্যাগ কেনেন। ওই ট্রলি ব্যাগে ফিরোজের দেহ ভরে রবিবার তা ফেলার জন্য বেরিয়েছিলেন। সেই কারণেই গাজিয়াবাদ স্টেশন থেকে ট্রেন ধরতে গেছিলেন, যদিও তখনই পুলিশের রুটিন তল্লাশিতে ট্রলি ব্যাগে মৃতদেহের হদিশ মেলে। সঙ্গে সঙ্গে গ্রেপ্তার করা হয় প্রীতি শর্মাকে। যে ধারাল ছুড়ি দিয়ে ফিরোজকে হত্যা করেন প্রীতি সেটিরও হদিশ মিলেছে জানিয়েছে পুলিশ।

লিভ-ইন সম্পর্কের জেরে মর্মান্তিক পরিণতির ঘটনা এর আগেও দেখা গিয়েছে। খাস কলকাতায় তরুণীর রহস্যমৃত্যু ঘটে গত জুন মাসে। যাদবপুরের ছিটকালিকাপুরে ঘর থেকে লিভ ইন সঙ্গী বেরনোর পরই উদ্ধার হয় ওই তরুণীর দেহ। তাঁর গলায় আঘাতের চিহ্ন মেলে। ঘটনাটি খুনের বলেই অনুমান করেছিল পুলিশ।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে