BREAKING NEWS

৮ মাঘ  ১৪২৮  শনিবার ২২ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

পাকিস্তান ‘শিশু’, চিনকেও ভয় দেখাচ্ছে ভারতের এই নয়া রণতরী

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: September 15, 2016 2:15 pm|    Updated: September 15, 2016 2:15 pm

A Glimpse Of Navy's Most Advanced Destroyer, Mormugao

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভারত মহাসাগরে চিনের দাপটকে চ্যালেঞ্জ ছুড়তে দ্রুত শক্তিশালী করা হচ্ছে নৌবাহিনীকে। পাকিস্তান তো দূর বটেই, পরাক্রমশালী চিনও এখন ডরাচ্ছে নৌসেনার অস্ত্রভাণ্ডারে নবতম সংযোজন ‘ডেস্ট্রয়ার’ মোরমুগাও-কে দেখে৷ এটি প্রোজেক্ট ১৫-বি ক্লাসের ডেস্ট্রয়ার, এখনও পর্যন্ত এ দেশে নির্মিত সর্বাধুনিক ও বিধ্বংসী রণতরী৷ এরকম মোট চারটি জাহাজ তৈরির কাজ চলছে মুম্বইয়ের মাজগাঁও ডকে, যার জন্য মোট খরচ পড়বে ২৯,৭০০ কোটি টাকা৷

৭৩০০ টন ওজনের এই রণতরী লম্বায় ১৬৩ মিটার৷ চারটি ইউক্রেনীয় গ্যাস টারবাইন ইঞ্জিনের সাহায্যে মহাসাগরের বুক চিরে ঘন্টায় ৫৬ কিলোমিটার গতি তুলতে সক্ষম৷ শত্রুপক্ষের শিরদাঁড়ায় শীতল স্রোত খেলিয়ে দেওয়া আর এক কালান্তক ঘাতক এই রণতরীতে মোতায়েন থাকবেন ৫০ জন অফিসার ও ২৫০ জন নাবিক৷ সমুদ্রে প্রায় ৪০০০ নটিক্যাল মাইল এলাকা-জুড়ে কর্তৃত্ব ফলাতে তৈরি হচ্ছে মোরমুগাও৷ নৌসেনা সূত্রে খবর, বিশ্বের আধুনিকতম গাইডেড মিসাইল ডেস্ট্রয়ারদের মধ্যে অন্যতম এই মোরমুগাও৷ প্রোজেক্ট ১৫-বি ক্লাসের এই ডেস্ট্রয়ার আধুনিক সেন্সর প্যাকেজ ও বাছাই করা সেরা অস্ত্রে বলীয়ান, সমুদ্রে গা ঢাকা দিতে ওস্তাদ ও স্বয়ংক্রিয়ভাবে চলতে পারে বলে এর জুড়ি মেলা ভার৷

এই জাহাজে ইজরায়েলে নির্মিত অত্যাধুনিক সেন্সর ও থ্রেট অ্যালার্ট রেডার রয়েছে। প্রায় ১০০ কিলোমিটার দূরের কোনও টার্গেটকেও নিখুঁতভাবে নিশানা করতে পারবে এই মাল্টি-ফাংশন সার্ভেলিয়েনস থ্রেট অ্যালার্ট রেডার বা এম এফ স্টার৷ একবার লক্ষ্যবস্তুকে নিশানা করে ফেললে এম এফ স্টার ৮টি দূরপাল্লার ‘সার্ফেস টু এয়ার’ মিসাইলকে (এলআর-এসএএম) নির্দেশ দিতে পারে টার্গেটকে ধ্বংস করে দেওয়ার৷ ভারত ও ইজরায়েলের যৌথ উদ্যোগে নির্মিত এই মিসাইল সিস্টেম শত্রুপক্ষের যে কোনও এয়ারক্রাফট বা সুপারসনিক মিসাইলকে মাঝপথেই নষ্ট করে দিতে সক্ষম৷ এই গাইডেড মিসাইল ডেস্ট্রয়ারে রয়েছে ব্রহ্মস সুপারসনিক ক্রুজ মিসাইলও, যা ৩০০ কিলোমিটার দূরে সমুদ্রে বা ভূমিতে আঘাত হানতে পারে৷ সবমিলিয়ে ডিজাইন থেকে শুরু করে অস্ত্রভাণ্ডার – পূর্বসূরিদের থেকে অনেকটাই উন্নত ‘ডেস্ট্রয়ার’ মোরমুগাও৷ মনে করা হচ্ছে, ভারতীয় নৌবাহিনীর তলোয়ারকে আরও ধারালো করে তুলল এই ১৫-বি ক্লাসের ডেস্ট্রয়ার৷ এই নিয়ে গত ছ’বছরে ভারতীয় নৌসেনায় ৮টি ফ্রন্টলাইন রণতরীর অভিষেক হয়েছে৷ আরও ৫টি রণতরী নির্মাণের কাজ প্রায় শেষের মুখে৷ নৌসেনা সূত্রে জানানো হয়েছে, বছর দুয়েকের মধ্যে এই জাহাজটি নৌসেনা ব্যবহার করতে শুরু করে দেবে৷ তখন ভারত মহাসাগরীয় অঞ্চলে দেশের স্বার্থ অনেক বেশি সুরক্ষিত থাকবে বলে মনে করছে নৌবাহিনী৷

mormugao-destroyer_web

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে