BREAKING NEWS

১৩  আষাঢ়  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৮ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

Omicron: জ্বর, গলাব্যাথা হলেই সম্ভাব্য কোভিড রোগী! রাজ্যগুলিকে পরীক্ষা বাড়ানোর পরামর্শ কেন্দ্রের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: January 1, 2022 8:55 am|    Updated: January 1, 2022 8:55 am

Any individual with fever, cough, sore throat to be considered COVID, Says Govt | Sangbad Pratidin

নন্দিতা রায়, নয়াদিল্লি: ওমিক্রনের দাপটে দেশজুড়ে নতুন করে বাড়ছে করোনা (Coronavirus) রোগী। বিভিন্ন প্রান্তে হু হু করে বাড়ছে পজিটিভিটি রেট। আর তাতেই উদ্বিগ্ন কেন্দ্র। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে একযোগে রাজ্যগুলিকে সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দিয়ে চিঠি লিখল কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রক। স্বাস্থ্যসচিব রাজেশ ভূষণ (Rajesh Bhushan) রাজ্যগুলিকে লেখা এক চিঠিতে জানিয়েছেন, দেশের বিভিন্ন প্রান্তে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা এবং পজিটিভিটি রেটে বৃদ্ধি লক্ষ্য করা যাচ্ছে। তাই দ্রুত উপসর্গযুক্তদের শনাক্তকরণ, এবং করোনা পরীক্ষার হার বাড়ানো হোক।

Any individual with fever, cough, sore throat to be considered COVID, Says Govt

রাজ্যগুলিকে লেখা চিঠিতে কেন্দ্র সাফ বলছে, কারও শরীরে জ্বর, মাথাব্যথা, গলাব্যথা, শ্বাসকষ্ট, ডায়রিয়া, ক্লান্তি, স্বাদ বা গন্ধ চলে যাওয়ার মতো উপসর্গ থাকলেই তাঁকে সম্ভাব্য কোভিড রোগী বলে ধরে নিতে হবে। কেন্দ্রের নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, এই সন্দেহভাজন কোভিড (COVID-19) আক্রান্তদের দ্রুত শনাক্ত করে তাঁদের করোনা পরীক্ষা করাতে হবে। যাঁদের শরীরে এই ধরনের লক্ষণ দেখা দেবে তাঁদের দ্রুত কোয়ারেন্টাইনে পাঠাতে হবে।

[আরও পড়ুন: নতুন বছরের শুরুতেই মর্মান্তিক দুর্ঘটনা, বৈষ্ণোদেবী মন্দিরে পদপিষ্ট হয়ে মৃত ১২]

তবে, কেন্দ্রের মূল ফোকাস টেস্টিংয়ে। স্বাস্থ্যমন্ত্রক চিঠিতে সাফ জানিয়ে দিয়েছে, এই মুহূর্তে দিনে অন্তত ২০ লক্ষ করোনা পরীক্ষা করার মতো পরিকাঠামো ভারতে আছে। তবে পরীক্ষায় গতি আনতে রাজ্যগুলিকে Rapid Antigen test-এ বাড়িতে নজর দিতে বলেছে স্বাস্থ্যমন্ত্রক। চিঠিতে স্বাস্থ্য সচিব লিখছেন,”আরটি-পিসিআর (RT-PCR) টেস্টের রিপোর্ট আসতে অনেক সময় ৫-৮ ঘণ্টা লেগে যাচ্ছে। এই ঝঞ্ঝাট এড়াতে RAT টেস্টের দিকে জোর দেওয়া হোক।” সেলফ টেস্ট এবং বেসরকারি ক্ষেত্রে করোনা পরীক্ষাতেও জোর দিতে বলছে স্বাস্থ্যমন্ত্রক।

[আরও পড়ুন: ভাঁড়ারে টান, ফের রাজ্যে বিনামূল্যের রেশন পাঠানো বন্ধ করল কেন্দ্র]

প্রসঙ্গত, গতকালই সরকারি সূত্রে জানা গিয়েছে ভারতেও করোনার ডেল্টা (Delta) ভ্যারিয়েন্টকে ছাপিয়ে যাওয়া শুরু করেছে ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্টের সংক্রমণ। গবেষণায় ইতিমধ্যেই প্রমাণিত কোভিডের সবচেয়ে ভয়ংকর ভ‌্যারিয়ান্ট ডেল্টার তুলনায় ওমিক্রন প্রায় ৩ গুণ সংক্রামক। সুতরাং প্রাকৃতিক নিয়মেই ডেল্টাকে কোণঠাসা করে ফেলেছে করোনার এই নয়া অবতার। এই ভোলবদলের ফলেই ওমিক্রন আগের তুলনায় বেশি সংক্রামক হয়ে উঠেছে। যার প্রভাব ইতিমধ্যেই সরাসরি দেখা যাচ্ছে রাজধানী দিল্লি, মুম্বই-সহ বেশ কিছু শহরে। দেশে হঠাত এই করোনা বৃদ্ধিতে উদ্বেগের ভাঁজ প্রশাসনের কপালেও।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে