BREAKING NEWS

১২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  রবিবার ২৯ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

‘আজানে প্রশ্ন, সোনু কি রাজ্যসভায় বিজেপি সাংসদ হওয়ার স্বপ্ন দেখছেন?’

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: April 19, 2017 4:35 am|    Updated: October 8, 2019 4:19 pm

Azaan Row: Sonu Nigam sarcastically replied to youth congress leader who pointed out Singer's 'mental instability'

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আজানের শব্দও একটা সময় মিলিয়ে যায়৷ কিন্তু আজান ঘিরে সোনু নিগমের টুইট বিতর্কের রেশ কিছুতেই কাটছে না৷ এবার এর নেপথ্যে থাকা রাজনৈতিক অভিসন্ধি নিয়ে প্রশ্ন তুললেন এক নেত্রী৷ তাঁর প্রশ্ন, এতদিন পর সোনু বুঝলেন যে আজানে তাঁর ঘুম ভাঙছে? আসলে কি তিনি বিজেপির হয়ে রাজ্যসভায় সাংসদ হতে চান? তার জবাবও দিলেন গায়ক৷

‘আজান শুনতে দারুণ লাগে’, প্রিয়াঙ্কার ভিডিওয় সোনুকে জবাব নেটিজেনদের ]

মুসলিম না হওয়া সত্ত্বেও কেন আজানের শব্দে ঘুম ভাঙে তাঁর? কেনই বা ধর্মের নামে লাউডস্পিকারের ব্যবহার? এ প্রশ্ন তুলেই বিতর্কে জড়িয়েছেন সোনু৷ অনেকেই তাঁর টুইটকে ইসলাম বিরোধী বলে চিহ্নিত করেছেন৷ তা নিয়ে পাল্টা নানা প্রশ্নও উঠেছে৷ অনেকেই বলেছেন, হিন্দুদের অনুষ্ঠানেও তো রাতভর মাইক বাজে৷ তাহলে তাও কি নিষিদ্ধ হবে? বা এ ধরনের কোনও অনুষ্ঠানে ডাক পেলে সোনু কি প্রতিবাদ জানিয়ে তা প্রত্যাখান করবেন? যদিও এ তর্ক-বিতর্কের মধ্যেও নিজের বক্তব্যে অনড় ছিলেন সোনু৷ তাঁর সাফ কথা, ধর্মের নামে মন্দির ও মসজিদে লাউডস্পিকার বাজানো বন্ধ হোক৷ অনেকে এই মন্তব্যের জেরে তাঁকে ক্ষমা চাইতেও বলেছিলেন৷ সোনুর জবাব, মুসলিম বিরোধী কোন কথাটা তিনি বলেছেন তা দেখালে তিনি নিশ্চয়ই ক্ষমা চাইবেন৷ তিনি যে তাঁর বিতর্কিত টুইটে গুরুদ্বারের কথা উল্লেখ করেছিলেন সে কথা কেন ভুলে যাওয়া হচ্ছে, সে প্রশ্নও তুলেছেন সোনু৷

এদিকে এ নিয়েই সোনুকে আক্রমণ করেন ইন্দ্রাণী মিশ্র নামে এক যুবনেত্রী৷ তাঁর টুইটার অ্যাকাউন্ট জানাচ্ছে, তিনি যুব কংগ্রেস নেত্রী৷ তাঁর প্রশ্ন, বিজেপির সাংসদ হওয়ার জন্যই কি এসব করছেন সোনু? উত্তরে গায়ক জানান, তাঁর সে স্বপ্ন নেই৷ সেই সঙ্গে সঠিক ইংরাজি লেখার দিকটিও ধরিয়ে দেন৷ এরপর সোনু মানসিক অস্থিরতা কাটিয়ে সুস্থ হয়ে উঠুন এই বলেই ব্যঙ্গ করেছিলেন নেত্রী৷ জবাবে সোনু কটাক্ষ করে জানিয়েছেন, ব্যাকরণে ভুল এমন ইংরাজি না বলে বরং হিন্দিতে টুইট করাই ভাল৷

কংগ্রেস নেতা আহমেদ প্যাটেল মঙ্গলবারই জানিয়েছিলেন, আজানের জন্য লাউডস্পিকারের প্রয়োজন নেই৷ ইসলামে কোথাও সে কথার উল্লেখ নেই৷ তাঁর দাবি ছিল, আজকাল ফোনেও আজান থাকে৷ তার জন্য লাউডস্পিকার ব্যবহার করার কোনও দরকার দেখেননি তিনি৷ যুবনেত্রীর এ টুইটে পাল্টা প্রশ্ন উঠেছে, তাহলে কি বর্ষিয়ান নেতাকেও মানসিক সুস্থিতিহীন বললেন তিনি?

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে