BREAKING NEWS

১৫ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  বৃহস্পতিবার ২ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

বিহারে আরও দুর্বল হচ্ছে মহাজোট! এবার NDA’র পথে পা বাড়িয়ে আরও এক বিরোধী দল

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: September 24, 2020 12:28 pm|    Updated: September 24, 2020 12:28 pm

Bihar Election 2020: RLSP may quit Mahagatbandhan to join NDA | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নির্ধারিত সূচি অনুযায়ী নভেম্বরেই বিধানসভা নির্বাচন হওয়ার কথা বিহারে। করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এলে বছরের শেষের দিকেই নতুন সরকার পাবে রাজনৈতিকভাবে অতি গুরুত্বপূর্ণ এই রাজ্যটি। ইতিমধ্যেই বেজে গিয়েছে ভোটের দামামা। রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের মতে, বিহারের এবারের লড়াইয়েও খাতায় কলমে বিরোধীদের থেকে কিছুটা এগিয়েই শুরু করছে এনডিএ (NDA) শিবির। লালুপ্রসাদ যাদব (Lalu Prasad Yadav) জেলে থাকায় অনেকটাই দুর্বল বিরোধী শিবির। সেই তত্ত্ব যে পুরোপুরি উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না, তা তথাকথিত ‘হাওয়া মোরগ’দের কার্যকলাপেই স্পষ্ট।

ইতিমধ্যেই বিহারের বিরোধী মহাজোট ছেড়ে বেরিয়ে গিয়েছে রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী জিতন রাম মাঝির দল হিন্দুস্তান আওয়াম মোর্চা।মাঝি সরাসরি যোগ দিয়েছেন নীতীশ কুমারের (Nitish Kumar) নেতৃত্বাধীন এনডিএ শিবিরে। এবার প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী উপেন্দ্র কুশওয়াহাও মাঝির পথ ধরে বিজেপি শিবিরে নাম লেখানোর ইঙ্গিত দিলেন। কুশওয়াহার দল আরএলএসপি (RLSP) সাফ জানিয়ে দিল, বিরোধী মহাজোটের নেতৃত্ব নিয়ে তাঁরা সন্দিহান। তাই এনডিএতে ফিরে যাওয়ার সব সম্ভাবনা খোলা আছে। আরএলএসপির শীর্ষনেতা মাধব আনন্দ বলছেন,”মহাজোটের দুই বড় সঙ্গী কংগ্রেস এবং আরজেডি (RJD) এখনও ঠিকই করতে পারেনি, তাঁরা কার নেতৃত্বে কীভাবে লড়বে। তেজস্বীই নেতা হবেন কিনা! এই অবস্থায় আমরা ছোট জোটসঙ্গীরা কীভাবে স্থির থাকতে পারি?” মাধব বলছেন, জিতন রাম মাঝির জোট ত্যাগের পরও কোনও শিক্ষা কংগ্রেস বা আরজেডি নেয়নি। বিরোধী শিবিরে চূড়ান্ত সমন্বয়ের অভাব দেখা যাচ্ছে। এই পরিস্থিতিতে তাঁদের পক্ষে এনডিএতে ফেরাটা অসম্ভব কিছু নয়।

[আরও পড়ুন: এখন থেকে লাভ জিহাদও গুন্ডামির শামিল! কড়া আইন আনছে গুজরাটের বিজেপি সরকার]

উল্লেখ্য, ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের আগে এনডিএ ছেড়ে বিরোধী শিবিরে আসেন তৎকালীন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী কুশওয়াহা। ইচ্ছা ছিল, বিরোধী শিবিরে যোগ দিয়ে নিজের ওজন বাড়িয়ে নেবেন। এবং আসন ভাগাভাগীতে সুবিধা পাবেন। কিন্তু সমস্যা হল, মহাজোটে এই মুহূর্তে অতি সন্ন্যাসীতে গাজন নষ্টের মতো অবস্থা। আরজেডি, কংগ্রেস, বিকাশশীল ইনসান পার্টির সঙ্গে আবার যোগ হয়েছে বামেরা। ফলে উপেন্দ্র কুশওয়াহাকে কাঙ্ক্ষিত আসন দিতে পারছে না আরজেডি-কংগ্রেস। আর সম্ভবত সেকারণেই মহাজোট ছাড়তে চলেছেন প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী।বিহারের কুরমিদের মধ্যে কুশওয়াহা বেশ জনপ্রিয়। তিনি হাত ছাড়লে মহাজোট ভালই চাপে পড়ে যাবে। 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে