২৫ কার্তিক  ১৪২৬  মঙ্গলবার ১২ নভেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

২৫ কার্তিক  ১৪২৬  মঙ্গলবার ১২ নভেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মহারাষ্ট্র এবং হরিয়ানায় ক্ষমতায় ফেরার আশা অতি বড় কংগ্রেস সমর্থকরাও করেননি। কিন্তু, তাঁরা আশা করছিলেন ক্ষমতায় ফিরতে না পারলেও, দুই রাজ্যে অন্তত সম্মানজনক জায়গায় শেষ করবে দল। হরিয়ানায় হয়তো সেটাও হচ্ছে না। এবিপি নিউজ-সি ভোটারের সমীক্ষা বলছে, হরিয়নায় কংগ্রেস কমতে কমতে গিয়ে ঠেকতে পারে মাত্র ৩ আসনে। মহারাষ্ট্রে অবশ্য, অবস্থা অতটা লজ্জাজনক নয়। তবে, কংগ্রেসের জন্য মারাঠাভূমেও বিরাট কোনও আশার বাণী শোনাতে পারেনি এবিপি নিউজের সমীক্ষা। একই ইঙ্গিত দিচ্ছে আইএএনএস-সি ভোটার সমীক্ষাও।


মহারাষ্ট্রে এবিপি নিউজের সমীক্ষা বলছে, সহজেই ক্ষমতায় ফিরছে বিজেপি-শিব সেনা জোটা। মুখ্যমন্ত্রীর আসনে ফের বসতে পারেন দেবেন্দ্র ফড়ণবিস। ২৮৮ সদস্যের মহারাষ্ট্র বিধানসভায় বিজেপি- শিব সেনা জোট পেতে পারে ১৯৪ আসন। অন্যদিকে, কংগ্রেস এনসিপি জোটের আসন কিছুটা বেড়ে হতে পারে ৮৬। অন্যান্যরা পেতে পারে মাত্র ৮টি আসন। অন্যদিকে, আইএএনএস-সি ভোটার সমীক্ষা বলছে, বিজেপি নেতৃত্বাধীন এনডিএ পেতে পারে ১৮২-২০৬টি আসন। অন্যদিকে, কংগ্রেস-এনসিপি জোট পেতে পারে ৭২-৯৮টি আসন। উল্লেখ্য, ২০১৪ নির্বাচনে বিজেপি পায় ১২২টি আসন, শিব সেনা পায় ৬৩টি আসন। এবছর তাদের আসনসংখ্যা সামান্য বাড়ছে। অন্যদিকে, একসময় দিকভ্রান্ত কংগ্রেস-এনসিপিও শেষদিকে লড়াইয়ে ফিরছে। তাদের আসনসংখ্যাও গতবারের তুলনায় কিছুটা বাড়ছে। দুটি সমীক্ষাতেই ইঙ্গিত, বিজেপি শিব সেনা ৪৭ শতাংশের আশেপাশে এবং কংগ্রেস-এনসিপি ৩৮ শতাংশের আশেপাশে ভোট পাবে।

[আরও পড়ুন: ‘অর্থনীতি নিয়ে কোনও ব্যাখ্যা চাই না’, মনমোহনকে পালটা নির্মলার]

এবার আসা যাক হরিয়ানায়। দুটি সমীক্ষাতেই ইঙ্গিত হরিয়নায় খাট্টার সরকার ব্যাপক সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে ক্ষমতায় ফিরতে চলেছে। এবিপি নিউজ-সি-ভোটার বলছে, হরিয়নার ৯০টি আসনের মধ্যে বিজেপি একাই পেতে পারে ৮৩টি আসন। কংগ্রেস পেতে পারে মাত্র ৩ আসন। লোক দল পেতে পারে বাকি ৪টি আসন। দুই বিরোধী দলেরই কাল হচ্ছে গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব। আইএএনএস-সি ভোটার সমীক্ষাও একই কথা বলছে। এই সমীক্ষা অনুযায়ী বিজেপি পাচ্ছে, ৭৯-৮৭টি আসন। কংগ্রেসের দখলে যাচ্ছে ১-৭টি আসন। বাকি আসন যাবে অন্যান্যদের দখলে।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং