১৪  আষাঢ়  ১৪২৯  বুধবার ২৯ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

টোল প্লাজায় ১০ সেকেন্ড দেরি, কর্মীকে থাপ্পড় বিজেপি বিধায়কের

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: April 20, 2017 10:57 am|    Updated: October 8, 2019 2:32 pm

BJP lawmaker slaps toll booth employe over alleged delay

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দোষ বলতে মাত্র ১০ সেকেন্ড অপেক্ষা করানো হয়েছে তাঁকে। তার ওপর দিতে বলা হয়েছে কর। আর সেই দোষেই টোল প্লাজার কর্মীর ওপর চড়াও হলেন উত্তরপ্রদেশের বিজেপি বিধায়ক মহেন্দ্র যাদব। ঘটনার সঠিক সময় জানা না গেলেও বারেলি জেলার ফতেহগঞ্জের পশ্চিমে অবস্থিত একটি হাইওয়ের কাছে টোল প্লাজায় কাছে ঘটনাটি ঘটেছে। ইতিমধ্যে বিজেপি বিধায়কের ওই কাণ্ডের সিসিটিভি ফুটেজ ছড়িয়ে পড়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। যা দেখে অনেকেই সমালোচনায় মুখর হয়েছেন।

[হাওড়ার কারখানায় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড, গুরুতর জখম ২]

টোলপ্লাজার সিসিটিভি-র ফুটেজে দেখা গিয়েছে, সীতাপুরের বিধায়ক মহেন্দ্র যাদবের সঙ্গীরা প্রথমে টোল প্লাজার ওই কর্মীর সঙ্গে বচসায় জড়ান। এরপরেই গাড়ি থেকে বেরিয়ে পড়েন বিধায়ক মহাশয়। কোনও কথা না বলেই হঠাৎ করে ব্যারিকেড সরিয়ে ওই কর্মীর গায়ে হাত তোলেন মহেন্দ্র যাদব। জানা গিয়েছে, বিধায়কের গাড়ি আটকানো এবং অপেক্ষা করিয়ে রাখার জন্যই রেগে গিয়েছিলেন তিনি। আর একারণেই ওই কর্মীর গায়ে হাতও তোলেন। এখানেই শেষ নয়, বিধায়ক নিজেই ব্যারিকেড সরিয়ে দেন সঙ্গীরা টোল দিতে অস্বীকার করে, সেখান থেকে চলে যেতেও চান।

[গো-রক্ষকদের ভগৎ সিংয়ের সঙ্গে তুলনা হিন্দু নেত্রীর]

একদিকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি যেখানে ভিআইপি সংস্কৃতির অবসান ঘটানোর জন্য নেতা-মন্ত্রী-বিধায়কদের গাড়িতে লালবাতি সরিয়ে নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন। জানিয়েছিলেন, প্রধানমন্ত্রী, রাষ্ট্রপতি, সুপ্রিমকোর্টের প্রধান বিচারপতি-সহ কোনও রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী, নেতা-মন্ত্রী কারোর গাড়িতেই থাকবে না লালবাতি। ১ মে থেকে চালু হবে এই নিয়ম। একমাত্র আপ টুইট করে বলেছিলেন, ‘প্রত্যেক ভারতবাসীই স্পেশ্যাল। সবাই ভিআইপি।’ কিন্তু অপরদিকে তাঁরই দলের বিধায়কের এই কাণ্ড ফের একবার চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিল কীভাবে নিজের ক্ষমতার অপব্যবহার করে থাকেন নেতা-মন্ত্রীরা।

[মূর্তি না সরালে বাংলাদেশে হিন্দু উচ্ছেদের ডাক মুসলিম সংগঠনের]

কয়েকদিন আগে একইভাবে এয়ার ইন্ডিয়ার এক কর্মীর ওপর চড়াও হয়েছিলেন শিবসেনা সাংসদ রবীন্দ্র গায়কোয়াড। সেজন্য তাঁর বিমানযাত্রার ওপর নিষেধাজ্ঞা দায়ের করেছিল বিমানসংস্থাগুলি। পরে অবশ্য রবীন্দ্র গায়কোয়াড ক্ষমা চেয়ে নেন। এরপরেই তুলে নেওয়া হয় নিষেধাজ্ঞা। এখন দেখার নিজের দলের বিধায়কের এই কাণ্ডের জন্য তাঁকে কী শাস্তি দেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ?

[হিন্দু দেবীর ছবি পোস্ট করে বিপাকে হলিউড গায়িকা]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে