BREAKING NEWS

০৯ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৪ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

কাশ্মীর সমস্যার সমাধানে কিছুই করেনি বিজেপি সরকার, কটাক্ষ কংগ্রেসের

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: May 22, 2017 9:26 am|    Updated: May 22, 2017 9:26 am

'BJP must shun Hindu Rashtra agenda to quell Kashmir unrest'

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কেন্দ্রে ক্ষমতাসীন এনডিএ সরকারই কাশ্মীর সমস্যার সমাধান করতে সক্ষম। রবিবার এক জনসভায় এমনটাই বলেছিলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং। আর সোমবার এই প্রসঙ্গে বিবৃতি দিল কংগ্রেসের শীর্ষ নেতৃত্ব। কেন্দ্রে ক্ষমতাসীন বিজেপি এই বুলি সবসময় আওড়ায়, কিন্তু যতদিন না তাঁরা ভারতকে ‘হিন্দু রাষ্ট্র’ হিসাবে গড়ে তোলার আদর্শ থেকে সরে আসছে, ততদিন কাশ্মীরের পরিবেশ শান্ত হবে না। কীভাবে ওই অশান্ত পরিস্থিতি সামলানো হবে সেই পথও খুঁজে পাওয়া যাবে না। এভাবেই কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে তীব্র বাক্যবাণে বিঁধল কংগ্রেস।

[অনুষ্ঠানের মধ্যেই স্বামী ওমকে উত্তম-মধ্যম জনতার, দেখুন ভিডিও]

গত তিন বছরে কেন্দ্রের বিজেপি সরকার কাশ্মীর ইস্যু সমাধানে ব্যর্থ। এজন্য মোদি সরকারকে খোঁচা দিয়ে কংগ্রেস নেতা মনিশঙ্কর আইয়ার বলেন, ‘আশা করি কেন্দ্র এই সমস্যা সমাধান করতে নিশ্চয়ই পারবে। কিন্তু ভারতকে হিন্দু রাষ্ট্রে পরিণত করতে যেভাবে উদ্যত হয়েছে কেন্দ্র,  আমার মনে হয় না অতি সহজে কাশ্মীর সমস্যার সমাধান মিলবে।’ এর সঙ্গেই তিনি যোগ করেন, ‘গত তিন বছরে অশান্ত কাশ্মীরের পরিস্থিতি সামাল দেওয়ার জন্য কিছুই করেনি কেন্দ্র। যা প্রমাণ করে দেয় এই সমস্যার সমাধান কেন্দ্রের কাছে নেই। ওরা বরং পরিস্থিতিকে আরও জটিল করে তুলেছে।’

[আদালতের রায় ঘোষণা পর্যন্ত নিরাপদে কুলভূষণ, ইঙ্গিত পাক রাষ্ট্রদূতের]

একই সুর উত্তরপ্রদেশের কংগ্রেসের প্রধান রাজ বব্বরের গলাতেও। প্রাক্তন বলিউড অভিনেতার মতে, এই সরকার কেবল মুখে কথাই বলতে পারে, কাজের সময় কিছু করে দেখাতে পারে না। তাঁদের বিদেশনীতি, নিরপত্তাসংক্রান্ত নীতি এবং পাকিস্তানের প্রতি নীতি চূড়ান্ত ব্যর্থতার উদাহরণ। সংবাদসংস্থা এএনআই-কে দেওয়া এক বিবৃতিতে বব্বর বলেন, ‘বিজেপি সরকার সবক্ষেত্রেই দু’ধরণের বুলি আওড়ায়। প্রথমত, ‘এটা অনেক পুরানো সমস্যা’। নিরাপত্তা সংক্রান্ত কোনও ব্যাপার, বিদেশনীতি, সীমান্ত নিয়ে ঝামেলা কিংবা আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক যে কোনও সমস্যার ক্ষেত্রেই কেন্দ্রের নেতা-মন্ত্রীরা এই একই কথা বলে থাকেন। আর দ্বিতীয়ত তাঁরা বলে থাকেন, ‘এটা খুবই নিন্দনীয় ঘটনা। সময়মতো উপযুক্ত জবাব দেওয়া হবে’। কিন্তু গত তিন বছরে এই জবাব দিতে দেখা যায়নি। নোট বাতিলের সময় বলা হয়েছিল, এবার সন্ত্রাসবাদ কমে যাবে। কিন্তু কোথায় কী, সন্ত্রাসবাদ যেন আরও মাথাচাড়া দিয়ে উঠেছে।’

[খাবার চুরির অপরাধে নগ্ন করা হল দুই নাবালককে]

প্রসঙ্গত, রবিবার এক জনসভায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং বলেছিলেন, ভারতের শান্তি নষ্ট করার জন্য পাকিস্তান আপ্রাণ চেষ্টা চালাচ্ছে। কিন্তু এই সরকারই কাশ্মীর সমস্যার প্রকৃত সমাধান খুঁজে বের করতে সক্ষম। তাঁর মতে, হয় পাকিস্তান নিজেকে পাল্টাবে, নয় ভারতই তাদের পাল্টে দেওয়ার ব্যবস্থা করবে। বিশ্বায়নের যুগে কোনও দেশ এভাবে আর একটি দেশকে ক্ষতিগ্রস্ত করতে পারে না। আন্তর্জাতিক আসরে তা কখনওই ক্ষমা করা হবে না। কাশ্মীর যে ভারতের ও কাশ্মীরিরা যে ভারতবাসীই এ নিয়ে কোনও দ্বিমত নেই। কিন্তু ভারতের সহনশীলতাকে পাকিস্তান বুঝে উঠতে পারেনি। আর তাই কাশ্মীরিদের মাধ্যমে দেশের শান্তি ও সুস্থিতি ধ্বংস করার চেষ্টা চালানো হচ্ছে। কিন্তু তা যে কোনওভাবেই বরদাস্ত করা হবে না সেটাও জানিয়ে ছিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

[পড়াশোনার খরচ জোগাতে দেহ ব্যবসায় পড়ুয়ারা]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে