BREAKING NEWS

২ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

নির্বাচন আসলে রাম ও আল্লার লড়াই, বেফাঁস মন্তব্যে বিপাকে বিজেপি নেতা

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 24, 2018 8:39 am|    Updated: January 24, 2018 8:39 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আল্লাকে জেতাবেন? নাকি ভগবান রামের বন্ধুকে জয়যুক্ত করবেন? নির্বাচনী প্রচারে গিয়ে একেবারে স্ট্রেট ব্যাটে খেললেন বিজেপি নেতা। ভেবেছিলেন বাউন্ডারি বাঁধা। কিন্তু আটকে গেল বোলারের হাতে। দুই সম্প্রদায়ের মধ্যে হিংসে ছড়ানোর অভিযোগ দায়ের হল ওই বিজেপি নেতার নামে।

বাগদেবীর আরাধনা ছুতো, কলেজেই বসল অশ্লীল নাচের আসর ]

অভিযুক্ত বিজেপি বিধায়ক সুনীল কুমার। পোড় খাওয়া রাজনীতিক। ভোটের ময়দানকে কীভাবে গরম করতে তা ভালই জানেন। কর্নাটকের এক জেলা নির্বাচন উপলক্ষে চলছে প্রচার কাজ। সেখানে বিজেপির হয়ে দাঁড়িয়েছেন রাজেশ নায়েক। বিরোধী কংগ্রেসের হয়ে লড়ছেন বি রামনাথ রাই। বিজেপি প্রার্থীর হয়েই প্রচার করতে গিয়ে ধর্মীয় তাসে আর কোনও রাখঢাক করলেন না বিজেপি নেতা। সাফ জানিয়েছিলেন, এ লড়াই আসলে আল্লার সঙ্গে রামের যুদ্ধ। এবার জনগণই ঠিক করবেন, আল্লাকে জেতাবেন না ভগবান রামকে জেতাবেন। এই মন্তব্য সামনে আসার পরই শোরগোল পড়ে। ধর্মীয় কারণে বিভেদ ছড়ানোয় অভিযুক্ত হয়েছেন এই নেতা।

নানা রকমের কয়েন কি আদৌ নেবেন? কী জানাল আরবিআই? ]

ধর্মে ধর্মে বিভেদ মেটানোর ডাক দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সাম্প্রদায়িক বিভাজন নয়, উন্নয়নই তাঁর লক্ষ্য। স্পষ্ট করে তাই জানিয়েছেন ‘সবকা সাথ সবকা বিকাশ’। এই যখন দলের আদর্শ, তাহলে সে দলেরই নেতার মুখে কেন এমন কথা। নেতা জানাচ্ছেন, শুরুটা করেছিলেন কংগ্রেস নেতাই। নির্বাচনী প্রচারে গিয়ে তিনি বলেছিলেন, আল্লার মেহেরবানিতেই তিনি টানা ছ’বার বিধায়ক হয়েছেন। পালটা দিয়ে বিজেপি নেতা বলেছেন, তাহলে মানুষই ঠিক করুন আল্লাকে বারবার জেতাবেন কিনা? নাকি জয়যুক্ত করবেন শ্রীরামের বন্ধুকে? তাই এ লড়াইকে আল্লা ও রামের লড়াই হিসেবে তুলে ধরেছেন তিনি। অন্যদিকে কংগ্রেসের অভিযোগ, বিজেপি বরাবরই এই সাম্প্রদায়িকতার খেলা খেলে। কিন্তু এই বিভাজনে কংগ্রেস বিশ্বাস করে না। গান্ধীজির ‘ঈশ্বর-আল্লা-তেরে-নাম’ মতাদর্শেই কংগ্রেস বিশ্বাসী। এবং সংবিধানও সর্বধর্ম সমন্বয়কেই স্বীকৃতি দেয়। বিজেপি নেতার এভাবে কথা বলা যে উচিত হয়নি এমনটাই মত কংগ্রেস নেতার।

ফের টানা ছুটির ফাঁদে ব্যাংক, আপনার জরুরি কাজ সেরে রেখেছেন তো? ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement