৭  আশ্বিন  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

নোট মামলায় স্থগিতাদেশ চেয়ে সুপ্রিম কোর্টে কেন্দ্র

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: November 18, 2016 12:55 pm|    Updated: November 18, 2016 12:55 pm

Centre moves Supreme Court to stay proceedings against demonetisation

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: চলতি মাসের ৮ তারিখে হঠাত্‍ করেই ৫০০ ও ১০০০ টাকার নোট বাতিল করার সিদ্ধান্ত নেয় কেন্দ্র৷ কেন্দ্রীয় সরকারের ওই সিদ্ধান্ত বাতিলের দাবিতে ইতিমধ্যেই বিভিন্ন রাজ্যের হাই কোর্টে ও অন্যান্য আদালতে একাধিক মামলা হয়েছে৷ ওই সব মামলার উপর স্থগিতাদেশ চেয়ে বুধবার সর্বোচ্চ আদালতে আবেদন করে কেন্দ্রের নরেন্দ্র মোদি সরকার৷ শীর্ষ আদালত শুক্রবার কেন্দ্রের ওই আবেদনের শুনানি করবে৷

কেন্দ্রের তরফে অ্যাটর্নি জেনারেল মুকুল রোহতগি শীর্ষ আদালতে জানান, নোট বাতিলের সিদ্ধান্ত নিয়ে সুপ্রিম কোর্ট ছাড়া অন্যান্য আদালতেও একাধিক মামলা চলছে৷ ফলে বিষয়টি নিয়ে বিপুল পরিমাণ বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে৷ বিচারপতি এ আর দাভে এবং বিচারপতি এ এম খানউইলকারকে নিয়ে গঠিত সর্বোচ্চ আদালতের এক বেঞ্চ রোহতগির এই যুক্তি মেনে নেয়৷ বেঞ্চ জানায়, শীর্ষ আদালতের প্রধান বিচারপতি টি এস ঠাকুরের নেতৃত্বে গঠিত একটি বেঞ্চের কাছে এই আবেদনের শুনানি হবে৷ কারণ ওই বেঞ্চেই নোট বাতিলের জেরে দায়ের হওয়া একাধিক জনস্বার্থ মামলার শুনানি চলছে৷ উল্লেখ্য, এর আগে ১৫ নভেম্বর নোট বাতিলের সিদ্ধান্তের উপর কোনও স্থগিতাদেশ দিতে অস্বীকার করেছিল সর্বোচ্চ আদালত৷ তবে নোট বাতিলের ফলে সাধারণ মানুষকে যে সব সমস্যার মুখে পড়তে হচ্ছে সেই অসুবিধা দূর করতে সরকার কী ব্যবস্থা নিয়েছে তা জানতে চায় শীর্ষ আদালত৷

প্রসঙ্গত, ৫০০ ও ১০০০ টাকার নোট বাতিলের সিদ্ধান্ত খারিজের দাবিতে সুপ্রিম কোর্টে চারটি জনস্বার্থের মামলা দায়ের হয়েছে৷ যার মধ্যে দু’টি মামলা দায়ের করেছেন আইনজীবী বিবেক নারায়ণ সিং এবং সঙ্গমলাল পাণ্ডে৷ অপর মামলা দু’টি করেছেন এস মুথুকুমার এবং আদিল আলভি নামে দুই ব্যক্তি৷ আবেদনকারীদের বক্তব্য, সরকারের এই সিদ্ধান্তে সাধারণ মানুষকে যথেষ্ট অসুবিধার মুখে পড়তে হচ্ছে৷ চারিদিকে একটি বিশৃঙ্খল পরিবেশ তৈরি হয়েছে৷ তাই সরকারকে অবিলম্বে এই সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করে নিতে অথবা কিছু দিনের জন্য পিছিয়ে দিতে হবে৷ অন্যদিকে ৮ নভেম্বর রাতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ঘোষণা করেন, কালো টাকার বিরুদ্ধে লড়াই করতেই ৫০০ ও ১০০০ টাকার নোট বাতিল করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে