BREAKING NEWS

০২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ১৭ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

ধর্ষণ রুখতে ৩ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে নতুন প্রকল্প কেন্দ্রের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: September 9, 2018 6:16 pm|    Updated: September 9, 2018 6:16 pm

Centre to introduce new 'Women safe city' project

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বর্তমান ভারতের সবচেয়ে জ্বলন্ত সমস্যা নারী নিরাপত্তা। বিরোধীরা তো বটেই এমনকী বিদেশি এজেন্সিগুলিও প্রশ্ন তুলতে শুরু করেছে সরকারের ভূমিকা নিয়ে। সম্প্রতি প্রকাশিত এক রিপোর্টে দেখানো হয়েছে মেয়েদের জন্য সবচেয়ে বিপজ্জনক দেশ ভারতবর্ষ। এমনকি আরব দেশগুলিও ভারতের চেয়ে মেয়েদের জন্য সুরক্ষিত। বলা বাহুল্য, এই রিপোর্টে আন্তর্জাতিক মহলে বেশ কলুষিত হয়েছে দেশের ভাবমূর্তি। তাই এবার আসরে নেমে পড়ল কেন্দ্র। নারী নিরাপত্তার জন্য ৮ শহরে বিশেষ কিছু পদক্ষেপ করা হচ্ছে।

[নেতা-রণনীতি কোনওটাই নেই বিরোধীদের, মহাজোট প্রসঙ্গে কটাক্ষ বিজেপির]

ওমেন সেফ সিটি নামের একটি নতুন প্রকল্প আনতে চলেছে কেন্দ্র। ৩ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে এই প্রকল্পের আওতায় আসছে মোট আটটি শহর। তালিকায় আছে, দিল্লি, মুম্বই, কলকাতা, চেন্নাই, বেঙ্গালুরু, হায়দরাবাদ, আমেদাবাদ এবং লখনউ। শুধু মহিলাদের নয়, শিশুদের জন্যও এই ৮ শহরকে পুরোপুরি নিরাপদ বানাতে চায় কেন্দ্র। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক সূত্রে খবর, এই আট শহরে নারী নিরাপত্তার জন্য শুধুমাত্র মহিলা পুলিশের বিশেষ দল বানানো হচ্ছে। এই অল উওম্যান পুলিশ ফোর্স গোটা এলাকায় টহলদারি চালাবে। শহরের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ এবং নির্জন স্থানে লাগানো হবে পাবলিক প্যানিক বাটন। থাকবে সহায়তা দপ্তরও। রাস্তায় লাগানো হবে এলইডি লাইট। এছাড়াও আরও সক্রিয় করা হবে ফরেনসিক দল এবং সাইবার ক্রাইম দলকে।

[গিরিরাজের বাড়ি থেকে লোপাট কোটি টাকা, অভিযোগ দায়ের ৫০ হাজারের]

এই প্রকল্পের মোট বরাদ্দের সিংহভাগই আসছে নির্ভয়া ফান্ড থেকে। ২০১৩ সালে নির্ভয়া কাণ্ডের পর তহবিলটি তৈরির সিদ্ধান্ত নিয়েছিল তৎকালীন মনমোহন সরকার। নারী নিরাপত্তা সংক্রান্ত খরচের একটা বড় অংশ আসে এই তহবিল থেকেই। এই প্রকল্পের অধীনে সবচেয়ে বেশি খরচ করা হবে কলকাতাতেই। এ শহরের জন্য খরচ করা হবে ৬৬৭ কোটি টাকা। কলকাতার পরই দিল্লির স্থান। দিল্লিতে খরচ হচ্ছে প্রায় ৬৬৩ কোটি টাকা। আমেদাবাদের জন্য সর্বনিম্ন ১৮১ কোটি টাকা খরচ করা হবে।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে