BREAKING NEWS

৫ মাঘ  ১৪২৮  বুধবার ১৯ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

কৃষক বিক্ষোভে ধুন্ধুমার রাজধানী, জল কামান-কাঁদানে গ্যাস পুলিশের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: October 2, 2018 1:12 pm|    Updated: October 2, 2018 1:12 pm

Chaos in Kisan Kranti Padyatra' in Delhi

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ১৫ দফা দাবি নিয়ে উত্তরপ্রদেশ থেকে রাজধানী দিল্লিতে প্রবেশ করার চেষ্টা করছেন প্রায় ৭০ হাজার কৃষক। ভারতীয় কিষাণ ইউনিয়ন নামের একটি সংগঠনের ব্যানারে আয়োজিত এই মহা কিষাণ ব়্যালিকে রাজধানীতে প্রবেশের আগেই বাধা দিল পুলিশ। দিল্লি-উত্তরপ্রদেশ সীমান্তে আগে থেকেই মোতায়েন ছিল কড়া পুলিশি প্রহরা। বিক্ষোভকারী কৃষকরা তাদের বাধা টপকে রাজধানীতে প্রবেশ করার চেষ্টা করলে এলাকায় ধন্ধুমার পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়। বিক্ষোভকারী ও কৃষকদের সংঘর্ষ খণ্ডযুদ্ধের রূপ নেয়। কৃষকদের আটকাতে মানব-প্রাচীর তৈরি করে পুলিশ। তাতেও আটকানো সম্ভব না হলে, উত্তেজিত জনতাকে ছত্রভঙ্গ করতে কাঁদানে গ্যাস ছুঁড়তে হয় পুলিশকে, দাগা হয় জল কামানও।

[লোকপাল ইস্যুতে ফের অনশনে বসছেন আন্না হাজারে]

মোট ১৫ দফা দাবিতে কিষাণ ক্রান্তি যাত্রার আয়োজন করা হয়। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য কৃষিঋণ মকুব, আখের বকেয়া মূল্য পরিশোধ করা, স্বামীনাথন কমিটির সমস্ত সুপারিশ লাগু করা, কৃষকদের ন্যূনতম মাসিক আয় নিশ্চিত করা। এবং ৬০ বছর বয়সের পর সব প্রান্তিক ও ক্ষুদ্র কৃষকের মাসিক ৫ হাজার টাকা পেনশন চালু করা। দুদিন আগে থেকেই উত্তরপ্রদেশের বিভিন্ন প্রান্তের কৃষকরা গাজিয়াবাদে একত্রিত হচ্ছিলেন। আজ সকালে দিল্লিতে ঢোকার চেষ্টা করা মাত্রই পুলিশ তাদের আটকে দেয়। গতকালই কৃষকদের তরফে জানানো হয়েছিল, “যতদিন না তাদের দাবিপূরণ হচ্ছে ততদিন এই আন্দোলন চলবে। আমরা কেন্দ্রীয় মন্ত্রীদের সঙ্গে কথা না বলা অবধি ফিরব না।”

[প্রণব-টাটার পর এবার আরএসএস মঞ্চে নোবেলজয়ী কৈলাশ সত্যার্থী]

সম্প্রতি একাধিক রাজ্যে কৃষক বিক্ষোভে বেশ অস্বস্তিতে মোদি সরকার। এর আগে মহারাষ্ট্রে বিশাল লং মার্চ করে চমক দিয়েছিলেন সে রাজ্যের কৃষকরা। দিল্লিতে কিছুদিন আগেই তামিল কৃষকদের আন্দোলন নজর কেড়েছিল। কিছুদিন আগেই সাতরাজ্যে কৃষক ধর্মঘটেরও আয়োজন করা হয়। কেন্দ্রের অস্বস্তির মধ্যেই ঘোলা জলে মাছ ধরতে নেমে পড়েছে বিরোধীরা। কংগ্রেস, আপ, সমাজবাদী পার্টি একযোগে সরকারের কৃষক-নীতির সমালোচনা করছে। কৃষকদের দিল্লিতে ঢুকতে বাধা দেওয়ার সিদ্ধান্তেরও সমালোচনা করছে বিরোধীরা।নিরীহ কৃষকদের উপর জল কামান, কাঁদানে গ্যাস কেন, প্রশ্ন তুলেছে কংগ্রেস। কংগ্রেস নেতা রণদীপ সিং সূরজেওয়ালার অভিযোগ, “গান্ধীজির জন্মদিনেই মোদি সরকার বুঝিয়ে দিল আমরা ব্রিটিশ রাজে বাস করছি।”

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে