Advertisement
Advertisement

Breaking News

Rahul Gandhi

জেলযাত্রার কী প্রভাব রাহুলের রাজনৈতিক জীবনে? সাংসদ পদ কি খারিজ হতে পারে?

উচ্চ আদালতে স্বস্তি না পেলে বড় বিপাকে পড়তে পারেন কংগ্রেস সাংসদ।

Congress leader Rahul Gandhi may be at risk of being disqualified from parliament following his conviction | Sangbad Pratidin
Published by: Subhajit Mandal
  • Posted:March 23, 2023 4:38 pm
  • Updated:March 23, 2023 4:59 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মানহানির ফৌজদারি মামলা। বিজেপি (BJP) বিধায়কের করা এই  মামলাতেই কংগ্রেস সাংসদ রাহুল গান্ধীকে ২ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছে সুরাটের আদালত। যদিও সঙ্গে সঙ্গে জামিনও পেয়ে গিয়েছেন তিনি। কিন্তু এবার প্রশ্ন উঠছে সুরাট আদালতের এই রায়ে কি রাহুল গান্ধীর সাংসদ পদ বাতিল হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে? কী বলছে আইন?

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ভারতের জনপ্রতিনিধি আইনের সেকশন ৮ (৩) অনুযায়ী, কোনও সাংসদ যদি যে কোনও অপরাধে দু’বছর বা তাঁর বেশি কারাদণ্ডে দণ্ডিত হন, তাহলে তাঁর সাংসদ পদ বাতিল হতে পারে। শুধু তাই নয়, ওই ব্যক্তি পরবর্তী ৮ বছর লোকসভা নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতাও করতে পারবেন না। অর্থাৎ উচ্চতর কোনও আদালতে এই রায় বাতিল না হলে ২০২৪ সালের লোকসভার লড়াই থেকেও রাহুল ছিটকে যেতে পারেন।

Advertisement

[আরও পড়ুন: ‘আদানিকে গ্রেপ্তার করুন’, অর্থমন্ত্রী ও ইডি দপ্তরে দাবিতে সোচ্চার তৃণমূল]

যদিও রাহুল গান্ধীর কাছে উচ্চতর আদালতে আবেদন করার সুযোগ রয়েছে। কিন্তু রাহুল যদি কোনও আদালতে গিয়ে সুরাট আদালতের এই রায়ে স্থগিতাদেশ আদায় করতে না পারেন, তাহলে তাঁর সাংসদ পদ বাতিল করে ওয়ানড় লোকসভা কেন্দ্রটিতে ফের নির্বাচন করাতে পারে নির্বাচন কমিশন। এবং সেই নির্বাচনে রাহুল লড়তেও পারবেন না। তবে কংগ্রেস (Congress) সূত্রের খবর, রাহুল এই রায়ের বিরুদ্ধে উচ্চতর আদালতে আবেদন করবেন। প্রয়োজনে সুপ্রিম কোর্টেও (Supreme Court) যেতে পারেন। আইন বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ভারতীয় দণ্ডবিধির যে ৪৯৯ নম্বর ধারায় কংগ্রেস সাংসদকে ২ বছরের সাজা দেওয়া হয়েছে, সেই ধারায় ২ বছরের শাস্তি হওয়াটা খুব বিরল।

Advertisement

[আরও পড়ুন: ১৪০ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ সংক্রমণ, দেশের করোনা পরিসংখ্যানে ফের উদ্বেগ]

এদিকে আদালতের রায়ের পর আসরে নেমে গিয়েছে বিজেপিও। পীযুষ গোয়েল, কিরেণ রিজিজুর মতো কেন্দ্রীয় মন্ত্রীরা দাবি করছেন, রাহুল কোনওকালেই সাংবিধানিক পদকে সম্মান করতে পারেন না। এমনকী, মনমোহন সিং প্রধানমন্ত্রী থাকাকালীনও তিনি সরকারের পাশ করানো অর্ডিন্যান্স ছিঁড়ে ফেলেছিলেন তিনি। আগামী দিনে  বিজেপি যে কংগ্রেস নেতার সাংসদ পদ খারিজের উদ্দেশ্যে পদক্ষেপ করবে, সেটাও স্পষ্ট। কংগ্রেসের আশঙ্কা, রাহুলের (Rahul Gandhi) সাংসদ পদ খারিজ করার লক্ষ্যেই বিচারবিভাগকে প্রভাবিত করছে বিজেপি। দলের একটা অংশের আবার অভিযোগ, আদানি ইস্যুতে লাগাতার প্রশ্ন তোলায় রাহুলকে হেনস্তা করা হচ্ছে। ইতিমধ্যেই দেশজুড়ে এই রায়ের প্রতিবাদে বিক্ষোভ দেখানো শুরু করে দিয়েছে কংগ্রেস। রাজ্যে রাজ্যে পথে নেমেছেন যুব কংগ্রেস কর্মীরাও। এরাজ্যের যুব কংগ্রেসের তরফেও রাজভবনের সামনে বিক্ষোভ কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছিল। 

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ