BREAKING NEWS

১০  আশ্বিন  ১৪২৯  শুক্রবার ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

ইসলাম বিদ্বেষী মন্তব্যের জের, নূপুরের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের দিল্লি পুলিশের

Published by: Anwesha Adhikary |    Posted: June 9, 2022 12:00 pm|    Updated: June 9, 2022 12:00 pm

Delhi Police lodged FIR against Nupur Sharma and others | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ফের অস্বস্তিতে পড়লেন বরখাস্ত বিজেপি নেত্রী নূপুর শর্মা (Nupur Sharma)। এবার তাঁর বিরুদ্ধে এফআইআর করল দিল্লি পুলিশ। ধর্মীয় ভাবাবেগে আঘাত দেওয়ার অভিযোগ নিয়েই মামলা দায়ের করা হয়েছে। সেই সঙ্গে নবীন জিন্দল, সাংবাদিক সাবা নকভি-সহ আরও বেশ কয়েকজনের বিরুদ্ধেও আলাদা করে মামলা দায়ের করা হয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় বিদ্বেষ ছড়ানোর অভিযোগ তোলা হয়েছে এঁদের বিরুদ্ধে।

দিল্লি পুলিশের তরফে জানা গিয়েছে, দু’টি এফআইআর দায়ের করা হয়েছে। একটিতে নুপুর শর্মার বিরুদ্ধে অভিযোগ রয়েছে। অন্য অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আলাদা করে এফআইআর করা হয়েছে। পুলিশের এক শীর্ষ আধিকারিক জানিয়েছেন, “বিশেষ কিছু সম্প্রদায়ের উদ্দেশ্যে বিদ্বেষ ছড়িয়েছেন অভিযুক্তরা। তার ফলে জনতার মধ্যে বিশৃঙ্খলা তৈরি হয়েছে।” আরও বলেছেন, অভিযুক্তদের মধ্যে সব ধর্মের মানুষই রয়েছেন। সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁদের কার্যকলাপ খতিয়ে দেখবে পুলিশ (Delhi Police)। একই সঙ্গে সোশ্যাল মিডিয়ায় ভুয়ো খবর ছড়ানোর অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে নূপুর, নবীন সহ অন্যদের বিরুদ্ধে।

[আরও পড়ুন: ১০০ দিনের কাজে বকেয়া ৭ হাজার কোটি টাকা, কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর দ্বারস্থ তৃণমূল সংসদীয় প্রতিনিধি দল]

একটি টিভি বিতর্কে অংশ নিয়ে হজরত মহম্মদের বিরুদ্ধে অস্মমানজনক মন্তব্য করেছিলেন নূপুর শর্মা। সেই মন্তব্যকে সমর্থন করেন টুইট করেন নবীন জিন্দল (Naveen Jindal)। তারপরেই তীব্র নিন্দার মুখে পড়েন নূপুর। অবস্থা সামাল দিতে বিবৃতি প্রকাশ করে বিজেপি। তারপরেই জাতীয় মুখপাত্রের পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয় নূপুরকে। দল থেকে বহিস্কার করা হয় নবীনকে। পরে নিঃশর্ত ক্ষমা চেয়েছেন নূপুর। কিন্তু তাতেও পরিস্থিতির উন্নতি হয়নি। 

আন্তর্জাতিক মহলেও নূপুরের মন্তব্যের ফলে বিপাকে পড়েছে ভারত সরকার। মধ্য প্রাচ্যের বিভিন্ন দেশের নিযুক্ত ভারতীয় রাষ্ট্রদূতদের ডেকে জবাব তলব করা হয়েছে। উপসাগরীয় দেশগুলিতে বসবাসকারী ভারতীয়দের নিরাপত্তা নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে। তবে কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে আশ্বাস দিয়ে বলা হয়েছে, সুরক্ষিত আছেন ভারতীয়রা। আরও বলা হয়েছে, কোনও ধর্ম বা ধর্মীয় ব্যক্তিত্বের প্রতি অপমানজনক মন্তব্য করাকে সমর্থন করেনা বিজেপি। যাঁরা ভুল করেছেন, ইতিমধ্যেই তাঁদের শাস্তি দেওয়া হয়েছে।

[আরও পড়ুন: শিশু পাচারে প্রথম তিনে দুই বিজেপি শাসিত রাজ্য, দিল্লির পরিসংখ্যানও উদ্বেগজনক

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে