BREAKING NEWS

১৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ৩০ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

নেতাজি নিয়ে সব ফাইল প্রকাশ্যে এসেছে, মন কি বাত-এ দাবি প্রধানমন্ত্রীর

Published by: Utsab Roy Chowdhury |    Posted: January 27, 2019 5:04 pm|    Updated: January 27, 2019 7:21 pm

Government brings out Netaji file, said Modi

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নতুন বছরের প্রথম মন কি বাত অনুষ্ঠানে দরাজ কণ্ঠে নেতাজি মাহাত্ম্য বর্ণনা করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তিনি বলেন, ‘নেতাজি দেশের বীর সৈনিক ছিলেন। তাঁর গোপন নথি ও ফাইল প্রকাশ নিয়ে দীর্ঘদিন দাবি উঠেছে। সেসব মানুষের সামনে এনে দিয়েছে বিজেপি সরকার।’ যদিও প্রধানমন্ত্রীর এই অভিযোগকে কড়া ভাষায় নিন্দা করেছেন নেতাজি গবেষক অনুজ ধর। তিনি টুইটে জানান, মোদিজিকে ধন্যবাদ। নেতাজির ৩০৬টি ফাইল মানুষের সামনে এসেছে। কিন্তু গোয়েন্দা সংস্থার কাছে থাকা ৭০ থেকে ৭৫টি ফাইল এখনও প্রকাশ্যে আসেনি। যেগুলো সামনে না আসলে অনেক কিছু অজানা থেকে যায়। প্রধানমন্ত্রী যা করেছেন, তার জন্য ধন্যবাদ। কিন্তু অনেক বেশি প্রত্যাশা ছিল।

[পঞ্চম বাঙালি হিসেবে ভারতরত্ন, প্রণব মুখোপাধ্যায়কে শুভেচ্ছা রাহুলের]

রবিবার মন কি বাত অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বলেন, “বীর সৈনিক হিসেবে সুভাষবাবুর নাম সবসময় মনে রাখবে দেশ। স্বাধীনতা সংগ্রামে তাঁর ভূমিকা অনস্বীকার্য। ‘দিল্লি চলো’, বা ‘তোমরা আমাকে রক্ত দাও, আমি তোমাদের স্বাধীনতা দেব’- এসব স্লোগানে ভারতবাসীর বুক কেঁপে ওঠে। অনেক বছর ধরে নেতাজির ফাইল প্রকাশ্যে আনার দাবি উঠেছে। আমি খুব খুশি, যে আমরা নেতাজির সব ফাইল সামনে আনতে পেরেছি। মানুষের দাবি মেটাতে পেরেছি। ১৯৪২ সালে আজাদ হিন্দ রেডিও শুরু করেছিলেন নেতাজি। এর মাধ্যমে মানুষের সঙ্গে যোগাযোগ করতেন। আজাদ হিন্দ বাহিনীর জওয়ানদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখতেন।” ২৩ জানুয়ারি, নেতাজির জন্মজয়ন্তীতে লালকেল্লায় ক্রান্তি মিউজিয়াম উদ্বোধন  করেন প্রধানমন্ত্রী। সেটা নিয়েও বললেন মোদি। তিনি বলেন, “দেশজুড়ে ২৩ জানুয়ারি নেতাজি জন্মজয়ন্তী পালিত হয়। দেশের স্বাধীনতা সংগ্রাম নিয়ে বীর সৈনিকদের উদ্দেশ্যে লালকেল্লায় ক্রান্তি মন্দিরের উদ্বোধন করা হয়েছে। বসু পরিবারের সদস্যরা আমাকে নেতাজির ব্যবহৃত একটি টুপি উপহার দিয়েছেন। আমি ওই মিউজিয়ামে নেতাজির ব্যবহৃত টুপি রেখে দিয়েছি। যাঁরা ওই মিউজিয়ামে আসবেন, তাঁরা ওই টুপি দেখে অনুপ্রেরণা পাবে।” গত মাসে আন্দামানে গিয়ে তিনটি দ্বীপের নাম বদলের ঘোষণা করেন। সেটিও উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, “আমি আন্দামান ও নিকোবর গিয়েছিলাম গত মাসে। ৭৫ বছর আগে ওখানেই প্রথম জাতীয় পতাকা তোলা হয়েছিল। অক্টোবর মাসে যখন লালকেল্লায় ওই পতাকা উত্তোলন হয়, সবাই অবাক হয়েছিল। সবাই জানে, ১৫ আগস্ট পতাকা ওড়ে। কিন্তু আজাদ হিন্দ সরকারের ৭৫ বছর পালনে ওই পতাকা ওড়ানো হয়।”

[ওয়াঘা সীমান্তে পাক সেনাকে মিষ্টি বিতরণ ভারতীয় জওয়ানদের]

তবে প্রধানমন্ত্রীর নেতাজি সংক্রান্ত ফাইল সব প্রকাশ করার কথা বললেও তা মানতে চাননি নেতাজি গবেষক অনুজ ধর। মন কি বাত অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীর এই মন্তব্য নিয়ে তিনি টুইট করে জানান, মোদিজি যে কাজ করেছেন, তার জন্য ধন্যবাদ। কিন্তু নেতাজির অধিকাংশ ফাইল এখনও সরকারের কাছে আটকে আছে। অনুজ ধর বলেন, “দেশের অনেক প্রধানমন্ত্রী এসেছেন। অনেকে কাজ করেছেন। অনেকে করেননি। যাঁরা নেতাজি নিয়ে কাজ করেছেন, প্রত্যেককে ধন্যবাদ। গতকাল সাধারণতন্ত্র দিবসে প্রধানমন্ত্রীর কথাতে প্রথমবার আইএনএ সেনাদের আমন্ত্রণ জানানো হল প্রথমবার। আমরা তাতে সমর্থন করি। আজ নেতাজির ফাইল প্রকাশ করা নিয়ে যে মন্তব্য করেছেন, তা শুনলাম। তিনি জানিয়েছেন, মানুষের দাবি অনুযায়ী নেতাজির সব ফাইল প্রকাশ করেছে সরকার। ৩০০ থেকে ৩০৬টি বিদেশ মন্ত্রালয় ও অন্য দপ্তরের ফাইল প্রকাশিত হয়েছে। কিন্তু সব ফাইল প্রকাশ করা হয়নি। আমি ও আমার বন্ধুরা প্রথম থেকেই বলে এসেছি, নেতাজিকে নিয়ে গোয়েন্দা দপ্তরের যে ফাইল আছে, অর্থাৎ RAW বা আইবি সংক্রান্ত ফাইল সেগুলো সামনে আনতে হবে। সুভাষ বসুকে নিয়ে অধিকাংশ তথ্য সেখানেই আছে। খুবই গোপন তথ্য, যা প্রধানমন্ত্রীর সাধারণত জানার কথা নয়। ওসব গোয়েন্দা সংস্থার কাছেই আছে। আমি যতদূর জানি, ৭০ থেক ৭৫টি ফাইল গোয়েন্দা সংস্থার হাতে আছে। এতে হয়তো কোনও বিতর্কের সমাধান হবে না। কিন্তু নেতাজি সংক্রান্ত অনেক অজানা তথ্য সামনে আসবে।”

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে