১১ মাঘ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ২৫ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

সোশ্যাল মিডিয়ায় দেদার ট্রোল বন্ধে নিয়ন্ত্রণের ভাবনা কেন্দ্রের

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: March 18, 2018 12:30 pm|    Updated: August 14, 2019 2:18 pm

Govt is Working To Become a Troll Monitor: Smriti Irani

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কিছুদিন আগেও স্কুলের পরীক্ষায় প্রবন্ধ লিখতে দেওয়া হতো- বিজ্ঞান আশীর্বাদ না অভিশাপ? সময় বদলেছে। এখন বোধহয় বিজ্ঞানের জায়গায় এ শিরোনামে সোশ্যাল মিডিয়া বসিয়ে দিলে অত্যুক্তি করা হবে না। স্বাধীন ফ্ল্যাটফর্ম হিসেবে যতখানি শক্তি এই মাধ্যমের, ঠিক তেমনই এর অপব্যবহার। বিশেষত ট্রোলিং যেন দিনে দিনে ক্রনিক অসুখে পরিণত হচ্ছে। এবার তা নিয়ন্ত্রণেরই ভাবনা কেন্দ্রের। ইঙ্গিত দিলেন কেন্দ্রীয় তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি

[  ‘দেশ বাঁচাতে প্রয়োজনে সীমান্ত পেরিয়েও হামলা চালাবে সেনা’ ]

এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যম আয়োজিত বিশেষ অনুষ্ঠানেই গুরুত্বপূর্ণ এ ইঙ্গিত দিয়েছেন স্মৃতি। জানালেন, তিনিও এই ট্রোলিংয়ের শিকার হয়েছেন। তিনি নিজে হয়তো রোজ সোশ্যাল মিডিয়া ঘেঁটে দেখার সময় পান না। কিন্তু এই মাধ্যমকে হাতিয়ার করে যে চরম বিদ্বেষ ছড়ানো হচ্ছে, তা তাঁর অজানা নয়। অভিনেত্রীরা কোনও ছবি পোস্ট করলেই তা নিয়ে শুরু হচ্ছে কটাক্ষ, মশকরা, ট্রোলিং। কখনও কখনও তো তাঁদের যৌনকর্মী তকমাও দিয়ে দিচ্ছেন নেটিজেনরা। যেহেতু মুখ লুকিয়ে এই প্ল্যাটফর্মে যে কোনও মন্তব্য করা যায়, তাই কোনও রেয়াত নেই। সম্পাদনা নেই বলে অনেকটাই খুল্লমখুল্লা এবং সময়ে সময়ে তা রুচি-শালীনতার বাইরেও। এমনকী রাজনীতি বা জাতিবিদ্বেষের অশান্তি ছড়াতেও এই মাধ্যমকে দেদার ব্যবহার করা হচ্ছে। খবরের সঙ্গে জুড়ে দেওয়া হচ্ছে বিভিন্ন ব্যক্তিগত মতবাদ। প্রভাবিত করা হচ্ছে মানুষকে। রসিকতার নামে ছড়ানো হচ্ছে ঘৃণা। এই প্রবণতা যে বন্ধ হওয়া দরকার এমনটাই মনে করেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী। গুরুত্বপূর্ণ ইঙ্গিত দিয়ে তাই জানান, সোশ্যাল মিডিয়ায় যে হারে ট্রোল সংস্কৃতি ফুলেফেঁপে উঠেছে, তাতে কেন্দ্র নিয়ন্ত্রক হয়ে ওঠার কথাও ভাবছে।

[  ‘জাতীয় সংগীত থেকে বাদ দেওয়া হোক অধিনায়ক শব্দটি’ ]

পাশাপাশি স্বাধীন প্ল্যাটফর্মের শক্তিও স্বীকার করেছেন মন্ত্রী। তবে তিনি চিন্তিত মাধ্যমের অপব্যবহার নিয়ে। ভুয়ো খবর যেভাবে ছড়ানো হচ্ছে তাতে রীতিমতো বিচলিত ও বিরক্ত স্মৃতি। প্রযুক্তির কল্যাণে একদিকে যেমন সৃষ্টিশীলতায় জোয়ার এসেছে, পাশাপাশি তার ভুল ব্যবহারে যে সামাজিক প্রভাব পড়ছে তাও কোনওভাবে অস্বীকার করা যায় না। এমনটাই মত মন্ত্রীর। অদূর ভবিষ্যতে তাই বিশেষ বিশেষ ক্ষেত্রে, বিশেষত ট্রোলিংয়ের ক্ষেত্রে কেন্দ্র নিয়ন্ত্রকের ভূমিকা নিতে পারে বলেই ইঙ্গিত তাঁর।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে