১৪ মাঘ  ১৪২৮  শুক্রবার ২৮ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

চলন্ত ট্রেনে কুপিয়ে খুন যুবককে, আহত ১

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: June 24, 2017 6:31 am|    Updated: June 24, 2017 6:31 am

Haryana: Mob lynch youth in running train

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দিল্লি থেকে ইদের বাজার সেরে ফেরার পথে ট্রেনে এক যুবককে ছুরি দিয়ে কুপিয়ে খুন করল একদল যুবক।ছুরির আঘাতে গুরুতর জখম হয়েছেন আরও একজন। ঘটনাটি ঘটেছে হরিয়ানার বল্লভগড় স্টেশনে। স্থানীয় জিআরপি-র তরফে জানানো হয়েছে, ঘটনায় একজনকে গ্রেপ্তার ও একজন আটক করা হয়েছে।

[কাশ্মীরে ডিএসপির নির্মম হত্যার জন্য বিজেপি-পিডিপি সরকারকে দুষলেন রাহুল]

জানা গিয়েছে, আক্রান্তরা হরিয়ানার বল্লভগড়েরই বাসিন্দারা। ইদের বাজার করতে দিল্লি গিয়েছিলেন তাঁরা। বৃহস্পতিবার সদর বাজার স্টেশন থেকে ফেরার ট্রেন ধরেন জুনেদ, মহসিন, হাসেম ও মইন নামে ওই চার যুবক। পরিবারের জন্য কেনা খাবার ও উপহার একটি প্লাস্টিকে মুড়ে নিয়েছিলেন তাঁরা। হাসেম জানিয়েছেন, ট্রেনে নিজেদের সিটে বসে লুডো খেলছিলেন তাঁরা। ওখলা স্টেশন থেকে ১৫-২০ জনের একটি দল ট্রেনে ওঠে। সিটে ছেড়ে দিতে বলে তারা। কিন্তু সিট ছাড়তে  রাজি না হওয়ায় হাসেম ও তাঁর ভাইদের অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করতে শুরু করে ওই দলের সদস্যরা। বলে, হাসেমদের সঙ্গে থাকা প্লাস্টিক ব্যাগে নাকি গো-মাংস আছে। তাই তাদের সিটে বসতে দেওয়া হবে না।  হাসেমরা বোঝানোর চেষ্টা করেন, যে ওই প্লাস্টিক ব্যাগে গো-মাংস নেই।  কিন্তু, তাতে পরিস্থিতি আরও উত্তপ্ত হয়ে ওঠে।

[জানেন, রমজান মাসে কাশ্মীরে কতজনের মৃত্যু হয়েছে?]

পরিস্থিতি হাতে বাইরে চলে যাচ্ছে দেখে হাসেম ও তাঁর ভাইয়েরা অন্য কামরায় চলে যান। সেখানেও তাঁদের পিছু নেয় ওই যুবকরা এবং অকথ্য গালিগালাজ করতে থাকে। মহসিন জানিয়েছেন, ‘ আমরা ফরিদাবাদ স্টেশনে নেমে অন্য ট্রেন ধরার সিদ্ধান্ত নিই। কিন্তু, ওঁরা আমাদের বাধা দেয়। ট্রেনের ভিড় থাকায় চেষ্টা করেও, আমরা নামতে পারিনি।’ এরপর ট্রেন বল্লভগড় স্টেশনে পৌঁছলে, দু’পক্ষের মধ্যে বচসা শুরু হয়। ট্রেনের ভিতরেই জুনেদ নামে এক যুবককে ছুরি দিয়ে কোপাতে শুরু করে এক যুবক। তাঁকে বাঁচাতে গিয়ে ছুরির আঘাতে গুরুতর জখম হন আরও একজন। পরের স্টেশনে ওই চার যুবককে ট্রেন থেকে ফেলে দেওয়া হয়। পরে স্থানীয় একটি হাসপাতালে নিয়ে গেলে, জুনেদকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা। গুরুতর জখম অপর যুবককে এইমস-এর ট্রমা কেয়ার সেন্টারে স্থানান্তরিত করা হয়েছে। তাঁর অবস্থা আশঙ্কাজনক।

[বরাত জোরে চোরাশিকারিদের হাত থেকে রক্ষা পেল বিরল প্রজাতির সিংহ]

যদিও গো-মাংস নিয়ে বিবাদের জেরে এই ঘটনা ঘটেনি বলে দাবি করেছেন হরিয়ানার ডিজিপি বিএস সাঁধু। তিনি জানিয়েছেন, ‘দুই দলের মধ্যে সংঘর্ষে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। একজনকে ইতিমধ্যেই গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তদন্ত চলছে। বাকিদেরও গ্রেপ্তার করা হবে।’ এই ঘটনার নিন্দা করেছেন কেন্দ্রীয় তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী বেঙ্গাইয়া নায়ডু।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে