BREAKING NEWS

০২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

জোট সরকার শরীরে বিষক্রিয়ার সৃষ্টি করেছে, কুমারস্বামীর মন্তব্যে জল্পনা

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: July 15, 2018 12:57 pm|    Updated: July 15, 2018 12:57 pm

he’s not happy with the present situation of heading a coalition govt, says teary-eyed Kumaraswamy

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কংগ্রেসের সঙ্গে জোট করে মুখ্যমন্ত্রীর পদে বসার দেড় মাসের মধ্যেই কি মোহভঙ্গ হল জেডিএস নেতা তথা কর্ণাটকের মুখ্যমন্ত্রী এইচডি কুমারস্বামীর? বিভিন্ন মহলে উঠতে শুরু করেছে এই প্রশ্ন৷ কারণ, প্রথমে কংগ্রেসের সঙ্গে জোট, তাপর মুখ্যমন্ত্রিত্ব নিয়ে গতকাল থেকে কর্ণাটকের মুখ্যমন্ত্রী যা যা মন্তব্যে করেছেন তারপর এই প্রশ্ন ওঠা খুবই স্বাভাবিক বলে মনে করছেন রাজনৈতিক মহল৷

[বিতর্কের মাঝে ‘সেক্রেড গেম’ ইস্যুতে মুখ খুললেন রাহুল গান্ধী]

কী বলেছেন কুমারস্বামী? গতকাল দলীয় একটি অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে সমর্থকদের সামনে মনের গভীরে জমে থাকা ক্ষোভ ও কষ্টের বিস্ফোরণ ঘটান তিনি৷ অশ্রু ভেজা চোখে বলেন, তাঁকে মুখ্যমন্ত্রীর কুরসিতে দেখে সমর্থকরা খুশি হলেও তিনি নন৷ কারণ সর্বদা একটা অপরাধ বোধ কুঁড়ে কুঁড়ে খাচ্ছে তাঁকে৷ তিনি ভাবছেন, একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা না পেয়েই বা সংখ্যাগরিষ্ঠ মানুষের জনমত না লাভ করেই মুখ্যমন্ত্রীর দায়িত্ব গ্রহণ করতে হয়েছে৷ এখানেই থেমে যাননি ‘আন্না’৷ জানিয়েছেন, জোট করে মুখ্যমন্ত্রীর হওয়ার বিষয়টি তাঁর সমগ্র শরীরে বিষক্রিয়ার সৃষ্টি করেছে৷ কর্ণাটকের মুখ্যমন্ত্রীর এই বিতর্কিত মন্তব্যেই সিঁদুরে মেঘ দেখতে শুরু করেছেন অনেকেই৷ গুঞ্জন শুরু হয়েছে, তবে কি কংগ্রেসর সঙ্গে জোটে খুশী নন, জেডিএস নেতা? নাম না করে কি কংগ্রেসকেই নিশানা করলেন তিনি? যদিও বিষয়টি নিয়ে জল্পনা জিইয়ে রেখেছেন কর্ণাটকের মুখ্যমন্ত্রী৷ সমর্থকদের উদ্দেশ্যে বলেছেন, ভগবানের আশীর্বাদ মুখ্যমন্ত্রী হয়েছেন তিনি৷ ফলে ভগবান যতদিন চাইবেন ততদিন তিনি ওই চেয়ারে বসে থাকবেন৷ না চাইলে, কয়েক মিনিটের মধ্যে মুখ্যমন্ত্রিত্ব থেকে ইস্তফা দেবেন৷

[বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে ধর্ষণ বিএসএফ জওয়ানের, অপমানে আত্মঘাতী নির্যাতিতা]

মুখ্যমন্ত্রীর দায়িত্ব নেওয়ার পরেই কর্ণাটকের কৃষকদের ঋণ মকুব করেছেন কুমারস্বামী৷ রাজ্যের গরিব মানুষদের জন্য চালু করেছেন ‘আন্না ভাগ্য প্রকল্প’৷ যাতে প্রতিমাসে দারিদ্র সীমার নিচে থাকা পরিবারগুলি ৫ কিলোগ্রাম করে চাল পায়৷ কিন্তু এখানেও পিছু ছাড়েনি বিতর্ক৷ সেই নিচু তলা থেকেই দাবি উঠেছে ৫ কিলোগ্রামের বদলে ৭ কিলোগ্রাম করে চাল দেওয়ার৷ যা কার্যত মানতে নারাজ সরকার৷ এই নিয়ে সরকারের বিরুদ্ধে শুরু হয়েছে বিক্ষোভ৷ সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে “Kumaraswamy is not my CM” লেখা বার্তা৷ এই প্রসঙ্গ তুলে গতকাল নিজের মনের ক্ষেদ প্রকাশ করেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী এইচডি দেবগৌড়া পুত্র৷ বলেন, মানুষের জন্য কাজ করে বাবার স্বপ্ন সত্যি করার জন্য তিনি মুখ্যমন্ত্রী হয়েছেন, ক্ষমতার লোভে নন৷ কিন্তু, বিধানসভা নির্বাচনের ফলাফল থেকে তিনি বুঝতে পেরেছেন রাজ্যের মানুষ তাঁকে ভরসা করেন না৷ সূত্রের খবর, কেবল মনের ক্ষেদের বহিঃপ্রকাশই করেননি মুখ্যমন্ত্রী কুমারস্বামী৷ এমনকি অনুষ্ঠানে সংবর্ধনা টুকুই গ্রহণ করেননি তিনি৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে