BREAKING NEWS

১ আশ্বিন  ১৪২৭  শুক্রবার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

একদা ‘ব্রাত্য’ মোদিকেই সংবর্ধনা মার্কিন কংগ্রেসের

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: June 8, 2016 3:31 pm|    Updated: June 8, 2016 3:31 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সময় বদলালে কত কিছুই না বদলে যায়৷ নিষেধাজ্ঞাও উঠে যায়৷ ‘কালো তালিকা’ থেকে সরাসরি মার্কিন কংগ্রেসের মঞ্চে আমন্ত্রণ জানানো হয় ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে৷ ঘটনার সূত্রপাত হয় ২০০৫ সালে৷ তখন গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি৷ ২০০২-এ গুজরাতে সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা রুখতে ব্যর্থতার জন্য মোদির উপর নিষেধাজ্ঞা প্রস্তাব পাস করেছিল মার্কিন কংগ্রেস৷ এরপরই তৎকালীন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জর্জ বুশ প্রশাসন থেকে মোদির আমেরিকায় প্রবেশের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করে ‘টুরিস্ট ভিসা’ বাতিল করে দেওয়া হয়৷

সেই মার্কিন কংগ্রেসের অধিবেশনেই এদিন ভাষণ নরেন্দ্র মোদির৷ ভারতের প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য শুনতে উপস্থিত থাকছেন মার্কিন বিচারপতিরা, ডেমোক্র্যাট ও রিপাবলিকান দলের প্রথম সারির নেতা-মন্ত্রীরা৷ মার্কিন প্রেসিডেন্ট ‘বন্ধু’ বারাকের আমন্ত্রণে মার্কিন কংগ্রেসের যৌথ অধিবেশনে ভারতের প্রধানমন্ত্রীর ভাষণ দেওয়ার সুযোগ নিশ্চিতভাবে এক ঐতিহাসিক ঘটনা৷ ১১ বছর পর কোনও ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী মার্কিন কংগ্রেসে ভাষণ দেন৷ রাজীব গান্ধী, নরসিংহ রাও, অটলবিহারী বাজপেয়ী এবং মনমোহন সিংয়ের পর তিনিই পঞ্চম প্রধানমন্ত্রী হিসাবে এই আমন্ত্রণ পেয়েছেন৷

মার্কিন কংগ্রেসে ভাষণ দেওয়ার পাশাপাশি মোদির এই সফর স্মরণীয় হয়ে থাকবে নিউক্লিয়ার সাপ্লাই গ্রূপ (এনএসজি) এবং মিসাইল টেকনোলজি কন্ট্রোল রেজিম (এমটিসিআর)-এর সদস্য পদের জন্য ভারতকে সমর্থনের প্রশ্নে মার্কিন প্রেসিডেণ্টের তরফে সবুজ সঙ্কেত মেলায়৷

এমটিসিআর-এর সদস্যপদ পাওয়ার ফলে উচ্চ প্রযুক্তির ক্ষেপণাস্ত্র ও ড্রোন কেনা বা তৈরির ক্ষেত্রে ভারতের আর কোনও বাধা থাকল না৷ পাশাপাশি মঙ্গলবার মার্কিন বণিকমহলের বৈঠকে ইন্দো-আমেরিকান বিজনেস কাউন্সিল (ইউএসআইবিসি) ভারতে ৪৫০ কোটি ডলার বিনিয়োগ করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে৷ প্রেসিডেন্ট ওবামার সঙ্গে বৈঠকের পর মোদি জানান, প্রতিরক্ষা ব্যবস্থাকে উন্নততর করতে আমেরিকার কাছ থেকে ছ’টি নিউক্লিয়ার রিঅ্যাক্টর কেনা হবে৷ দু’দেশের অসামরিক পরমাণু চুক্তির বিষয়টিও ওবামা-মোদি বৈঠকে গতি পেয়েছে৷  মোদি বলেন, “ভারতকে এমন একটা জায়গায় পৌঁছতে চাই যেখানে ব্যবসা করা অনেক সুবিধা হবে৷”

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement