BREAKING NEWS

০৯ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৪ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

সংশোধানাগারে বন্দির মৃত্যু, অশান্তি ছড়ানোর অভিযোগ ইন্দ্রাণীর বিরুদ্ধে

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: June 26, 2017 1:57 pm|    Updated: October 7, 2019 2:02 pm

Indrani Mukerjea incited riot, say jail officials

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:  বছর দুয়েক আগে শিনা বোরা হত্যাকাণ্ডে তোলাপাড় হযেছিল গোটা দেশ৷ ঘটনায় মূল অভিযুক্ত ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায় এখন মুম্বইয়ের বাইকুল্লা সংশোধানাগারে বন্দি৷ সম্প্রতি এক বন্দির মৃত্যুকে ঘিরে সংশোধানাগারে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে৷ সংশোধানাগার চত্বরে তুমুল বিক্ষোভ দেখান মহিলা বন্দিরা৷ ঘটনায় ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায়-সহ  ২০০ জন মহিলা বন্দির বিরুদ্ধে অশান্তি পাকানো ও অপরাধমূলক ষড়যন্ত্রের অভিযোগে মামলা রুজু করেছে পুলিশ৷

[‘শুধু হিন্দুরাই কেন ইদের শুভেচ্ছা জানাবে?’ প্রশ্নের মুখে প্রাক্তন আপ নেতা]

জানা গিয়েছে, গত মাসে খুনের মামলায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত মঞ্জুলা শেঠি নামে এক বন্দিকে বাইকুল্লা সংশোধানাগারে আনা হয়৷ শুক্রবার সংশোধানাগারের ভিতরেই তাঁর মৃত্যু হয়৷ এই খবর ছড়িয়ে পড়তেই, সংশোধানাগারের ভিতরে ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন ২০০ জন মহিলা বন্দি৷  বেশ কিছু কাগজ, বই ও জামা-কাপড়ে আগুন জ্বালিয়ে দেন  বিক্ষোভকারীদের কয়েকজন৷  মহিলা বন্দিদের অভিযোগ, সংশোধানারের আধিকারিকদের বেধড়ক মারের চোটে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত ওই বন্দির৷ এমনকী, গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়ার পর ওই বন্দির প্রাথমিক চিকিৎসারও ব্যবস্থা করা হয়নি৷ মহিলা বন্দিদের বিক্ষোভে সংশোধানাগার চত্বরে তুমুল উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে৷ শেষ পর্যন্ত স্থানীয় নাগপাডা থানার পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে৷ ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায়-সহ অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে অশান্তি পাকানো ও অপরাধমূলক ষড়যন্ত্রের অভিযোগে মামলা দায়ের করা হয়৷

[হিমাচল প্রদেশে খাদে গাড়ি, মৃত একই পরিবারের ৭]

প্রসঙ্গত, বাইকুল্লা সংশোধানাগারে বন্দিমৃত্যুর ঘটনায় সুপার-সহ সংশোধানাগারের ছয়জন আধিকারিককে সাসপেন্ড করেছে কারা দপ্তর৷ তাঁদের বিরুদ্ধে খুনের মামলাও দায়ের হয়েছে৷ পুলিশের এক আধিকারিক জানিয়েছে, বন্দিমৃত্যুর ঘটনায় অভিযুক্তদের খুব তাড়াতাড়ি জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডেকে পাঠানো হবে৷ গ্রেপ্তারও করা হতে পারে৷

[ইদের দিনেও অশান্ত কাশ্মীর, পুলিশ-বিক্ষোভকারী সংঘর্ষে আহত একাধিক

অভিযোগ, ২০১২ সালে ২৪ এপ্রিল নিজের মেয়ে বছর তেইশের শিনা বোরাকে গলা টিপে খুন করে ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায়, তার প্রাক্তন স্বামী সঞ্জীব খান্না ও ড্রাইভার শ্যাম রাই৷ পরে মুম্বইয়ের কাছেই রায়গড়ের জঙ্গলে শিনা বোরার দেহ পুড়িয়ে মাটি চাপা দিয়ে দেওয়া হয়৷  ২০১৫ সালে অন্য একটি ঘটনায় ধরা পড়ে শ্যাম রাই৷ পুলিশি জেরার মুখে শিনা বোরাকে হত্যার কথা স্বীকার করে নেয়৷ দেশ জুড়ে শোরগোল পড়ে যায়৷ এরপরই একে একে গ্রেপ্তার হয় ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায়, তার প্রাক্তন স্বামী সঞ্জীব খান্না, বর্তমান স্বামী পিটার মুখোপাধ্যায়৷ গত জানুয়ারি মাসে শিনা বোরা হত্যা মামলায় ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায় ও পিটার মুখোপাধ্যায় বিরুদ্ধে হত্যা ও অপরাধমূলক ষড়যন্ত্রের চার্জও গঠন করেছে বিশেষ সিবিআই আদালত৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে