BREAKING NEWS

১৫  আষাঢ়  ১৪২৯  বৃহস্পতিবার ৩০ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

রাতভর ঘেরাও, পড়ুয়াদের আচরণে ক্ষুব্ধ জেএনইউ-র উপাচার্য

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: October 20, 2016 2:22 pm|    Updated: January 27, 2020 5:08 pm

JNU siege ends, but protest to continue over missing student

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বৃহস্পতিবারও দিল্লির জওহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ে অশান্তি জিইয়ে রাখলেন একাংশের পড়ুয়ারা৷ তবে বুধবারের তুলনায় এদিন পরিস্থিতির খানিকটার উন্নতি হয়েছে৷ গতকাল, এক পড়ুয়া নিখোঁজ হয়ে যাওয়ার অভিযোগে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ও আধিকারিকদের ঘিরে বিক্ষোভ দেখান জেএনইউ-র পড়ুয়াদের একাংশ৷ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিতরে তাঁদের তালা-বন্ধ করে রাখেন পড়ুয়ারা৷ আজ সকালে তাঁদের জেএনইউ চত্বর ছেড়ে যাওয়ার অনুমতি দেওয়া হয়৷

মুক্তি পাওয়ার পর উপাচার্য এম জগদীশ কুমার মন্তব্য করেন, “বেআইনিভাবে শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মীদের আটকে রাখা হয়েছিল৷ পড়ুয়াদের স্পর্ধা দেখে অবাক হচ্ছি৷ ঘটনার তদন্তে ইতিমধ্যেই একটি কমিটি গড়ার নির্দেশ দিয়েছি আমরা৷ পড়ুয়াদের দাবি, আমরা নাকি কোনও পদক্ষেপই নিইনি, সেটা সম্পূর্ণ ভুল৷”

তাঁর আরও অভিযোগ, গতকাল রাতভর অধ্যাপকদের ন্যূনতম খেতে পর্যন্ত দেওয়া হয়নি৷ সারারাত মাটিতে শুয়ে থাকতে থাকতে কয়েকজন শিক্ষক অসুস্থ হয়ে পড়েন৷ তাঁদের বিনা চিকিৎসায় গোটা রাত কাটাতে হয় বলে ক্ষোভপ্রকাশ করেন উপাচার্য৷ বুধবার দুপুর আড়াইটে থেকে তাঁরা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিতরে তালাবন্দি ছিলেন৷

পড়ুয়াদের আচরণের নিন্দা করেছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের প্রতিমন্ত্রী কিরেণ রিজিজুও৷ তিনি বলেন, “উপাচার্য-সহ বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্যান্য আধিকারিককে ঘেরাও করার ঘটনায় দুঃখিত৷ দেখে মনে হচ্ছে, কয়েকজন পড়ুয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে রাজনীতি করতে এসেছে, পড়াশোনা করতে নয়৷”

বিক্ষোভকারী পড়ুয়াদের পাল্টা অভিযোগ, গত শনিবার জেএনইউ-র বায়োটেকনোলজি বিভাগের ছাত্র নাজিব আহমেদ নিখোঁজ হয়ে যাওয়ার অভিযোগ জানানো সত্ত্বেও বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ কোনওরকম পদক্ষেপ করেনি৷ অন্যদিকে, নিখোঁজ ছাত্রের খোঁজ দিতে পারলে দিল্লি পুলিশ ৫০ হাজার টাকার পুরস্কার ঘোষণা করেছে৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে