BREAKING NEWS

১৪ আশ্বিন  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ১ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

মহামারী আবহে রাম মন্দিরের ভূমিপুজোর বিকল্প উপায় বাতলে দিলেন উদ্ধব ঠাকরে

Published by: Subhamay Mandal |    Posted: July 26, 2020 10:18 pm|    Updated: July 30, 2020 3:36 pm

An Images

ফাইল ফটো

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: করোনা পরিস্থিতির মধ্যেই আগামী ৫ আগস্ট রাম মন্দিরের (Ram Mandir) ভূমিপুজোর আয়োজন করেছে রাম মন্দির ট্রাস্ট। সেইদিন ভূমিপুজোর মধ্যে দিয়ে বহু প্রতীক্ষিত রাম মন্দিরের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করার কথা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির (Narendra Modi)। সেইসঙ্গে আমন্ত্রিত সব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী-সহ ২০০ জন বিশিষ্ট ব্যক্তি। যা নিয়ে বিরোধীরা হইচই শুরু করেছে। কংগ্রেস-বাম দলগুলি করোনা আবহে রাম মন্দিরের অনুষ্ঠানের তীব্র বিরোধী। এবার আসরে নয়া পন্থা নিয়ে আলোচনায় এলেন মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরে (Uddhav Thackeray)। মহামারী আবহে ভারচুয়াল ভূমিপুজোর পক্ষে সওয়াল করেছেন শিব সেনা সুপ্রিমো। যা নিয়ে পালটা আবার হিন্দুত্ববাদী সংগঠনগুলির কটাক্ষ, এটা কোনও সরকারি বৈঠক নয় যে ভারচুয়াল পুজো হবে।

প্রসঙ্গত, শিব সেনার মুখপত্র সামনায় একটি প্রতিবেদনে উদ্ধব বলেছেন, ‘ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন অনুষ্ঠান, ভূমি পুজো ভারচুয়াল ভাবে করা যেতে পারে। ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে অনুষ্ঠান সম্পন্ন হোক। এই অনুষ্ঠান বহু প্রতীক্ষিত, বহু মানুষ এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকতে চাইবেন। আমরা কি সংক্রমণ ছড়াতে অনুমতি দিতে পারি?’ এরপরই তিনি পরামর্শ দিয়েছেন, ‘এটা কোনও সাধারণ মন্দির নয়। বর্তমানে আমরা করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করছি। যে কোনও ধরনের বড় ধর্মীয় জমায়েত নিষিদ্ধ। আমি এই মুহূর্তে অযোধ্যায় যেতেই পারি, কিন্তু লক্ষ লক্ষ রাম ভক্তের কী হবে? কীভাবে তাঁদের আটকাবেন? আমার মতে, ভারচুয়াল ভূমিপুজো এর সমাধান।’

[আরও পড়ুন: তিনটি চূড়া ও বালিপাথরে তৈরি হবে ইতিহাস, কল্পনাকেও হারাবে অযোধ্যার রাম মন্দির]

উদ্ধবের মন্তব্যের জেরে বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে। রাম মন্দির ট্রাস্টের সম্পাদক চম্পত রাই পালটা বলেছেন, এটা কোনও সরকারি বৈঠক নয় যে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে হবে। মন্দিরের ভূমিপুজোর একটা ধর্মীয় আবেগ আছে। আর সেটা সবার উপস্থিতিতেই সম্ভব।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement