BREAKING NEWS

১৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ৩০ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

সুকমা শহিদদের পাশে দাঁড়ানোয় মাওবাদীদের রোষে সাইনা, অক্ষয়

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: May 29, 2017 5:52 am|    Updated: October 27, 2020 8:18 pm

Maoists warn Akshay Kumar, Saina Nehwal for aiding CRPF jawans

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: এবার মাওবাদীদের কোপের মুখে বলিউডের খিলাড়ি অভিনেতা অক্ষয় কুমার ও ব্যাডমিন্টন তারকা সাইনা নেহওয়াল। কারণ ছত্তিশগড়ের সুকমায় মাওবাদীদের সঙ্গে লড়াইয়ে শহিদ হওয়া ১২ জন সিআরপিএফ জওয়ানদের পরিবারের সাহায্যে এগিয়ে এসেছিলেন ওই দুই তারকা।

মার্চের ১৬ তারিখ বস্তার জেলার অন্তর্গত সুকমার  ভেজিতে মাওবাদীরা হামলা চালায় সিআরপিএফ জওয়ানদের উপর।  ওই হামলায় শহিদ হন ১২ জন জওয়ান।  ওই ঘটনার পর দেশ জুড়ে বয়ে যায় নিন্দার ঝড়।  এমনই সময় জওয়ানদের পরিবারের পাশে দাঁড়ান বলিউড তারকা অক্ষয় কুমার ও লন্ডন অলিম্পিকে ব্রোঞ্জজয়ী শাটলার সাইনা নেহওয়াল।  ওই ১২ শহিদ জওয়ানদের পরিবারের জন্য ১২ লক্ষ টাকার সাহায্য ঘোষণা করেন অক্ষয় ও ৫০ হাজার টাকার সাহায্য ঘোষণা করেন সাইনা।

[ঝাড়খণ্ডে রেললাইন উড়িয়ে দিল মাওবাদীরা, বিপর্যস্ত ট্রেন চলাচল]

তাই জওয়ানদের সাহায্য করে ওই অক্ষয় ও সাইনার উপর খড়গহস্ত মাওবাদীরা।  হিন্দি ও উপজাতীয় গোন্দ ভাষায় লেখা প্যামফ্লেটে অক্ষয় ও সাইনাকে সাবধান করেছে মাও জঙ্গিরা।  সেখানে বলা হয়েছে নিরাপত্তাকর্মীরা কর্পোরেট হাউসগুলির স্বার্থ রক্ষার কাজ করে।  তাই তাদের যেন কোনও ভাবেই সাহায্য না করা হয়।  নিরাপত্তাকর্মীদের সাহায্য না করে সেলিব্রিটিরা যেন মাওবাদীদের সাহায্য করে এমন আবেদনও জানানো হয়েছে ওই পোস্টারগুলিতে।  রবিবার ছত্তিশগড়ের বস্তার জেলার দক্ষিণে দান্তেওয়াড়ার বয়লাডিলা এলাকায় পাওয়া গিয়েছে ওই পোস্টারগুলি। সংগঠনের অর্ধশতবার্ষিকী উপলক্ষ্যে সপ্তাহভর উৎসব পালন করছে মাওবাদীরা। সেই উপলক্ষ্যে এই প্যামফ্লেট ছাপিয়ে বিলি করছে তারা।

[আমাদের রাস্তা এখন থেকে আলাদা’, শুভশ্রীকে জানিয়ে দিলেন রাজ]

উল্লেখ্য, রবিবার রাতে ঝাড়খণ্ডের ধানবাদ শাখার করমাবাদ হল্ট স্টেশনের কাছে রেললাইন উড়িয়ে দেয় মাওবাদীরা। তারপরই জমুইয়ে লক্ষ্মীপুরের কাছে আনন্দপুর গ্রামে মোবাইল টাওয়ার উড়িয়ে দেওয়া হয়। এখানেই শেষ নয়, ডুমরি-গিরিডি রোডে দাঁড়িয়ে থাকা একটি গাড়িতে আগুনও ধরিয়ে দেয় তারা। শিয়ালদহ-দিল্লি রাজধানী এক্সপ্রেস ওই রুট দিয়ে বেরিয়ে যাওয়ার পরই ঘটে বিস্ফোরণ। রাঁচি-পটনা রুটেও বন্ধ হয়ে যায় ট্রেন চলাচল। দিল্লি-হাওড়া ডাউন লাইনে সোমবার সকালেও দাঁড়িয়ে একাধিক ট্রেন। কোডারমা স্টেশনে দাঁড়িয়ে ডাউন যোধপুর এক্সপ্রেস। রফিগঞ্জ স্টেশনে দাঁড়িয়ে ডাউন আনন্দবিহার বাই-উইকলি। হাজারিবাগ স্টেশনে দাঁড়িয়ে ডাউন কালকা মেল। গুজহান্ডি স্টেশনে দাঁড়িয়ে ডাউন শিপ্রা এক্সপ্রেস। তবে ঝাড়খণ্ড রেল কর্তৃপক্ষের তরফে জানানো হয়, রেল লাইন সারাইয়ের কাজ চলছে। দ্রুত ট্রেন পরিষেবা স্বাভাবিক হয়ে যাবে।

[ঝাড়খণ্ডে রেললাইন উড়িয়ে দিল মাওবাদীরা, বিপর্যস্ত ট্রেন চলাচল]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে