১৫ ফাল্গুন  ১৪২৭  সোমবার ১ মার্চ ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

প্রকাশ্যে রাস্তায় কাশির জের, যুবককে পিটিয়ে মারল জনতা

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: April 24, 2020 12:24 pm|    Updated: April 24, 2020 12:27 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: করোনা ভাইরাসের জেরে ভয়াবহ অবস্থা হয়েছে গোটা বিশ্বের। শুক্রবার সকাল পর্যন্ত এক লক্ষ ৯০ হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে। আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ২৫ লক্ষের বেশি। এর সংক্রমণ থেকে বাঁচতে লকডাউন জারি করা হয়েছে ভারতে। ফলে ঘরবন্দি অবস্থায় দিন কাটাচ্ছেন বেশিরভাগ মানুষ। ঘরে বসে মানসিক অবসাদগ্রস্ত হয়ে পড়ার পাশাপাশি আতঙ্কিতও হয়ে পড়েছেন অনেকে। কাছাকাছির মধ্যে কারও করোনা হয়েছে শুনলেই তা আরও বৃদ্ধি পাচ্ছে। অনেক জায়গায় করোনা সন্দেহে গোটা পরিবারকে একঘরেও করে দিচ্ছেন প্রতিবেশীরা। সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে গিয়ে মানবিকতা ভুলে সম্পর্কও ভেঙে ফেলছেন কেউ কেউ। এবার প্রকাশ্যে কাশতে থাকায় এক যুবককে পিটিয়ে মারল একদল মানুষ। মর্মান্তিক এই ঘটনা ঘটেছে মহারাষ্ট্রের থানে জেলার কল্যাণ (Kalyan) শহরে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, লকডাউনের জেরে গৃহবন্দি অবস্থাতই জীবন কাটাচ্ছিলেন কল্যাণের বাসিন্দা ৩৪ বছরের যুবক গণেশ গুপ্তা। বুধবার বাড়ির কিছু নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিস কিনতে রাস্তায় বেরিয়েছিলেন তিনি। রাস্তা দিয়ে স্থানীয় দোকানে যাওয়ার সময় কিছুটা দূরে কয়েকজন পুলিশকে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখেন। তখন ভয়ে মেন রাস্তার বদলে অন্য একটি গলি দিয়ে ওই দোকানে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন। কিন্তু, সেখানে যে মৃত্যু তাঁর জন্য অপেক্ষা করছে তা আগে থেকে বুঝতে পারেননি ।

[আরও পড়ুন: করোনায় ব্যবসায়ীর মৃত্যু, সংক্রমণের আশঙ্কায় বন্ধ বৃহত্তম পাইকারি বাজারের ৩০০ দোকান ]

ওই গলি দিয়ে যাওয়ার সময় হঠাৎ কাশতে শুরু করেন তিনি। এই নিয়ে পথচলতি কয়েকজনের সঙ্গে বচসা শুরু হয় তাঁর। এর মাঝেই আচমকা তাঁর উপর চড়াও হয়ে মারধর শুরু করে একদল মানুষ। কিছুক্ষণ এইভাবে চলার পর রাস্তার পাশে থাকা ড্রেনে পড়ে যান গণেশ। আর তারপরই মৃত্যু হয় তাঁর।

খবর পেয়ে স্থানীয় খাদাকপাডা থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মৃতদেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালে পাঠায়। দুর্ঘটনাজনিত কারণে মৃত্যুর মামলা দায়ের করে তদন্ত শুরু করা হয়েছে।

[আরও পড়ুন: রাজ্যের প্রাপ্য মেটাচ্ছে দিল্লি, বাংলার ভাঁড়ারে আসছে ৩৪৬১ কোটি টাকা]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement