BREAKING NEWS

৬ মাঘ  ১৪২৮  বৃহস্পতিবার ২০ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

মেহবুবার সঙ্গে জঙ্গিদের গোপন আঁতাঁতের অভিযোগ সপা নেতার

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: June 18, 2017 8:07 am|    Updated: June 18, 2017 8:07 am

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: জম্মু ও কাশ্মীরের মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতির বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ উঠে গেল। মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে পাক মদতপুষ্ট জঙ্গিদের আঁতাঁত রয়েছে বলে সরাসরি অভিযোগ তুললেন সমাজবাদী পার্টির নেতা নরেশ আগরওয়াল। রবিবার সংবাদ সংস্থা এএনআইকে তিনি জানান, মুফতির নেতৃত্বাধীন রাজ্য সরকারের সঙ্গে জঙ্গিদের গোপন অশুভ আঁতাঁত রয়েছে।

[স্পিকারকে ‘কাকা’ সম্বোধন, চাকরি গেল নিরাপত্তারক্ষীর]

সমাজবাদী পার্টি বা সপা নেতার অভিযোগ, জম্মু ও কাশ্মীর ততদিন শান্ত হবে না, যতদিন মুফতি ক্ষমতায় রয়েছেন। কারণ, তিনিই উপত্যকার জঙ্গিদের আড়াল করছেন, তাদের রক্ষা করছেন। আর সেই জঙ্গিদের নিকেশ করতে গিয়েই প্রায় প্রতিদিনই দেশের বীর জওয়ানরা প্রাণের আহুতি দিচ্ছেন। সাম্প্রতিককালে উপত্যকায় যত সেনা-পুলিশকর্মী শহিদ হয়েছেন, তাঁদের কারও শেষকৃত্যে মুখ্যমন্ত্রীকে দেখা যায়নি বলেও অভিযোগ করেছেন নরেশ আগরওয়াল।

শুধু অভিযোগ করেই থেকে থাকেননি এই সপা নেতা। বিজেপি নেতৃত্বকে মেহবুবা মুফতির সঙ্গে গাঁটছড়া ভাঙারও আবেদন জানিয়েছেন তিনি। সম্প্রতি জম্মু ও কাশ্মীরের মুখ্যমন্ত্রী মন্তব্য করেন, “বন্দুক বা সেনা উপত্যকায় শান্তি ফিরিয়ে আনতে পারবে না।” তাঁর সেই মন্তব্যেরই পাল্টা এদিন মুখ খুললেন নরেশ আগরওয়াল, মনে করছেন রাজনৈতিক মহলের একাংশ। গতকালই মেহবুবা মুফতি জম্মু ও কাশ্মীর বিধানসভায় বিরোধীদের আক্রমণের বিরুদ্ধে বলেন, “আলোচনা ছাড়া উপত্যকায় শান্তি ফিরিয়ে আনা সম্ভব নয়।”

বিজেপি নেতা রবিন্দর রায়না অবশ্য পাল্টা অভিযোগ করে বলছেন, “নরেশ আগরওয়ালের উচিত সপার অন্দরে ও আজম খানকে নিয়ে চিন্তা করা। জম্মু ও কাশ্মীরের সরকার সন্ত্রাস ও বিচ্ছিনতাবাদের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতি নিয়েছে।” পক্ষে-বিপক্ষে নানা তর্ক-বিতর্কের মধ্যেও জম্মু ও কাশ্মীরে শান্তি ফিরে আসার কোনও লক্ষণ এখনই দেখা যাচ্ছে না। রবিবারও অনন্তনাগ জেলার বিজবেহারার কাছে সেনার একটি গাড়িতে আগুন ধরিয়ে দেয় জঙ্গিরা। ওই ঘটনায় অবশ্য কে হতাহত হননি।

[বেতন মেটাতে অসমর্থ দুই বোনকে প্রায় নগ্ন করে বাড়ি পাঠাল স্কুল]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে