৭  আশ্বিন  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

‘এবার প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রেও আত্মনির্ভর হবে ভারত’, নির্মলার ঘোষণাকে স্বাগত DRDO প্রধানের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: May 17, 2020 11:27 am|    Updated: May 17, 2020 11:33 am

New defence reforms will boost production says DRDO chief

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লকডাউন পরবর্তী দেশের অর্থনীতিকে জাগিয়ে তুলতে প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে বেশ কিছু সংস্কারের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ। প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে খরচ কমাতে, এবং বিনিয়োগ বাড়াতে খানিকটা বেসরকারিকরণ এবং খানিকটা ‘আত্মনির্ভরতা’র পথে হাঁটছে কেন্দ্র। শনিবার এ বিষয়ে তিনটি গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত ঘোষণা করেছেন অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ। নির্মলার সেই ঘোষণাগুলিকে স্বাগত জানাচ্ছে ডিফেন্স রিসার্চ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট অরগ্যানাইজেশন। ডিআরডিও ( DRDO) প্রধান জি সতীশ রেড্ডি বলছেন, নির্মলার ঘোষণার ফলে প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে আত্মনির্ভরতার পথে এগোচ্ছে ভারত।

শনিবার কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী ঘোষণা করেন, প্রতিরক্ষা সরঞ্জাম তৈরি ‘মেক ইন ইন্ডিয়া’তে জোর দেবে সরকার। প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের তরফে প্রয়োজনীয় সরঞ্জামের তালিকা তৈরি করা হবে। যা ভারতেই তৈরি হবে। বিদেশ থেকে আমদানির প্রয়োজন নেই। বেশকিছু অস্ত্র আমদানিতে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হচ্ছে। পাশাপাশি অর্ডিন্যান্স ফ্যাক্টরি বোর্ডের কর্পোরাটাইজেশন করা হয়েছে। অর্থাৎ, এখন থেকে অর্ডিন্যান্স ফ্যাক্টরি বোর্ডের শেয়ার বাজারে ছাড়া হবে। দেশের নাগরিকরা তা কিনতে পারবেন। সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হল, প্রতিরক্ষায় বিদেশি বিনিয়োগের সীমা ৪৯ শতাংশ থেকে বাড়িয়ে ৭৪ শতাংশ করা হয়েছে। ডিআরডিও প্রধান মনে করছেন, এই পদক্ষেপগুলি ভারতে অস্ত্রশস্ত্রের উৎপাদন বাড়াবে। এবং প্রতিরক্ষা খাতে বেসরকারি বিনিয়োগ বাড়াতে উৎসাহ প্রদান করবে।

[আরও পড়ুন: ‘দেশের দুঃসময়’, বেসরকারিকরণ নিয়ে কেন্দ্রকে তোপ আরএসএসেরই শ্রমিক সংগঠনের]

জি সতীশ রেড্ডি (G Satheesh Reddy) বলছেন, “দেশিয় প্রতিরক্ষা শিল্পে উন্নয়নের লক্ষ্যে নির্মলা সীতারমণ যে সংস্কারমূলক পদক্ষেপগুলি করেছেন, তাতে দেশের প্রতিরক্ষা খাতে উৎপাদন এবং গবেষণায় উৎসাহ বাড়বে।” বিদেশ থেকে অস্ত্র আমদানি বন্ধ করে দেশিয় কাঁচামাল এবং পদ্ধতির উপর ভরসা রাখার সিদ্ধান্ত প্রশংসনীয় বলে মনে করছেন ডিআরডিও প্রধান। জি সতীশ রেড্ডি মনে করছেন,”এই সিদ্ধান্তগুলির ফলে সরকারি এবং বেসরকারি স্তরে দেশে অস্ত্র উৎপাদন ও গবেষণা বাড়বে। এর ফলে দেশিয় কাঁচামাল এবং সামগ্রীর বাজারও বাড়বে। এর ফলে প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে আত্মনির্ভর হবে ভারত।” উল্লেখ্য, প্রতিরক্ষা খাতে প্রতি বছর বাজেটের একটা বড় অংশ বরাদ্দ করে ভারত। বিশ্বের অস্ত্র আমদানিকারীদের মধ্যে তৃতীয় স্থানে আছে এদেশ। 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে