BREAKING NEWS

০২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  বুধবার ১৮ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

২০১৭-তেই বড়সড় জঙ্গি হামলা হতে পারে ভারতে, সতর্ক করলেন মার্কিন গোয়েন্দারা

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: May 12, 2017 5:17 am|    Updated: May 12, 2017 5:20 am

Pak-based terror groups plan to attack India: US intel chief

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ২০১৭-তে ভারতের মাটিতে ‘হাই-প্রোফাইল’ হামলা চালাতে পারে পাক জঙ্গিরা, সতর্ক করে দিল মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থা। পাকিস্তানের মাটিতে জঙ্গিদের বাড়বাড়ন্ত রুখতে ব্যর্থ ইসলামাবাদ। এই ভাষায় পাকিস্তানকে সতর্ক করলেন ডিরেক্টর অফ ন্যাশনাল ইন্টেলিজেন্স ড্যানিয়েল কোস্ট। সেনেট সিলেক্ট কমিটির সামনে তিনি এই কথা বলেন, শুক্রবার সংবাদ সংস্থা পিটিআই এই খবর জানিয়েছে। ভারত ও পাকিস্তানের সম্পর্কের অবনতি রুখতে পাঠানকোট হামলার তদন্তে গতি আনতেও ইসলামাবাদের উপর চাপ বাড়াল ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রশাসন।

কোস্ট বলেছেন, ‘ভারত ও আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে জঙ্গিরা এই হামলা চালাতে সক্ষম হলে তা হবে মার্কিন স্বার্থবিরোধী কাজ।’ পাকিস্তানের তীব্র সমালোচনা করে তিনি বলেন, ‘ইসলামাবাদ নিজের পারমাণবিক শক্তি ভাণ্ডার গুছিয়ে নিতে ব্যস্ত, অথচ দেশের মাটিতে জঙ্গি কার্যকলাপ রোখার কোনও সদিচ্ছা পাক প্রশাসনের মধ্যে দেখা যাচ্ছে না।’ গতবছরের উরি ও পাঠানকোট হামলার কথা উল্লেখ করে মার্কিন ইন্টেলিজেন্স কমিউনিটি আশঙ্কা প্রকাশ করেছে, এক বছরে দু’বার ভারতের বিরুদ্ধে ঘৃণ্য আক্রমণ চালিয়েছে পাকিস্তান। এবার পাল্টা ভারত তার জবাব দিতে গেলে আন্তর্জাতিক শান্তি পরিস্থিতির চূড়ান্ত অবনতি হবে। পাঠানকোটে হামলার পরও পাকিস্তানের মাটি ব্যবহার করে কী করে জঙ্গিরা ভারত-বিরোধী অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে, সে বিষয়ে উষ্মা প্রকাশ করেছে আন্তর্জাতিক সংগঠনটি। কোস্ট বলেছেন, পাকিস্তান জানে যে ভারতবিরোধী এই জঙ্গি কার্যকলাপ আন্তর্জাতিক মহলে তাদের একঘরে করে দিচ্ছে। কিন্তু পাকিস্তানের ভরসা রয়েছে চিনের উপর। ইসলামাবাদের সঙ্গে বেজিংয়ের অর্থনৈতিক ও সামরিক সম্পর্কে উন্নতি ঘটার একমাত্র কারণ ভারত মহাসাগরে চিনা হস্তক্ষেপে পাকিস্তানের প্রভাব অটুট রাখা।

গত এপ্রিল মাসে পাক সেনা অন্তত ছয়বার যুদ্ধবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন করে৷ চলতি মাসের ১ তারিখে পাক সেনা ও জঙ্গিদের যৌথবাহিনী দুই ভারতীয় জওয়ানের মুণ্ডচ্ছেদ করে৷ এ ঘটনায় উভয় দেশের মধ্যে প্রবল উত্তেজনা তৈরি হয়৷ গতকালও জম্মু-কাশ্মীরের রাজৌরি জেলার নৌসেরা অঞ্চলে পাক সেনার মর্টার হামলায় এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে৷ জখম হয়েছেন মৃতার স্বামী৷ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রসচিব রাজীব মেহঋষি জম্মু-কাশ্মীরের মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতির সঙ্গে দেখা করে আলোচনা করেন রাজ্যের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়ে৷ বুধবার রাত থেকে পাক সেনা আন্তর্জাতিক নিয়ন্ত্রণরেখা সংলগ্ন নৌসেরা সেক্টরে ভারতীয় সেনা চৌকি লক্ষ্য করে গুলি ও মর্টার হামলা চালাতে শুরু করে৷ পাক সেনার হামলার কারণে সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসাবে রাজৌরি জেলার সীমান্ত সংলগ্ন এলাকার স্কুলগুলিতে ছুটি ঘোষণা করা হয়৷ বুধবার সোপিয়ান জেলায় উমর ফয়েজ নামে এক সেনা আধিকারিককে অপহরণ করে হত্যা করে জঙ্গিরা৷ শুক্রবারও জম্মু-কাশ্মীরের আর্নিয়া সেক্টরে সংঘর্ষ বিরতি চুক্তি লঙ্ঘন করে পাকিস্তান। এদিন সকাল ৭ টা নাগাদ পাক রেঞ্জার্সরা বেশ কয়েক রাউন্ড গুলি চালায়। ঘটনায় এক বিএসএফ জওয়ান আহত হন। তবে চুপ নেই ভারতও। পাল্টা গুলি চালান বিএসএফ জওয়ানরাও। শুধু গুলি নয়, দু’পক্ষই একে-অপরকে উদ্দেশ্য করে ছোট ছোট মর্টারও ছোড়ে।

[মোদির কূটনৈতিক ‘সার্জিক্যাল স্ট্রাইক’, চিনা সাবমেরিন ঠাঁই পেল না লঙ্কায়]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে