BREAKING NEWS

২ মাঘ  ১৪২৭  শনিবার ১৬ জানুয়ারি ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

লাদাখ সীমান্তে চিন-পাকিস্তানের যোগসাজশ উদ্বেগজনক! আশঙ্কার কথা শোনালেন সেনাপ্রধান

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: January 12, 2021 2:13 pm|    Updated: January 15, 2021 9:17 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লাদাখে (Ladakh) চিনের সঙ্গে সীমান্ত সমস্যা নিয়ে ফের অশনি সংকেত দিলেন সেনাপ্রধান মনোজ মুকুন্দ নারাভানে (MM Naravane)। ইঙ্গিত দিলেন ভারতের বিরুদ্ধে যৌথ অভিযানের প্রস্তুতি নিচ্ছে চিন এবং পাকিস্তান। দুই প্রতিবেশী দেশের এই যোগসাজশ মোটেই উপেক্ষা করার মতো নয়।

Pakistan and China together form a potent threat to national security, said Army Chief Gen MM Naravane

মঙ্গলবার আর্মি ডের আগে এক সাংবাদিক বৈঠকে সেনাপ্রধান বলেন,”পাকিস্তান এবং চিন দেশের জাতীয় নিরাপত্তার জন্য বড় বিপদ। আর এই দুই দেশের যোগসাজশ উপেক্ষা করার মতো নয়।” লাদাখের পরিস্থিতি সম্পর্ক সেনাপ্রধানের সাফ কথা, ভারত বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ কৌশলগত এলাকা নিজেদের দখলে রাখতে পেরেছে। সেনা জওয়ানরা অনেক উচ্চতর এলাকায় টহল দিচ্ছে। এবং জাতীয় সুরক্ষার স্বার্থে কোনওভাবেই ওই এলাকাগুলি থেকে ভারতীয় সেনা সরবে না। চিন ভারতের গুরুত্বপূর্ণ কোনও এলাকা দখল করে রেখেছে কিনা সে প্রশ্নের সরাসরি উত্তর না দিলেও সেনাপ্রধান জানিয়েছেন, তাঁর আশা আলোচনার মাধ্যমে লাদাখ সমস্যার সমাধান সম্ভব। আর সেটা না হলে, সেনা সমস্তরকম ব্যবস্থা নিতে প্রস্তুত। জেনারেল নারাভানে এদিন বলেন,”পাকিস্তান এবং চিন যৌথভাবে ভারতের জন্য বিপজ্জনক হয়ে উঠেছে। এদের যোগসাজশ থেকে বিপদের আশঙ্কা উড়িয়ে দেওয়া যায় না।” সেনাপ্রধান এদিন সাফ জানিয়েছেন, ভারতকে দ্বিমুখী লড়াইয়ের জন্য প্রস্তুত হতে হবে।

[আরও পড়ুন: নয়া কৃষি আইনে স্থগিতাদেশ, পর্যালোচনার জন্য কমিটি গঠন সুপ্রিম কোর্টের

প্রসঙ্গত, লাদাখের পরিস্থিতি যে খুব একটা অনুকূলে নয়, দিন কয়েক আগে সেটা স্বীকার করেছিলেন খোদ প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিংও (Rajnath Singh)। রাজনাথ স্বীকার করে নেন, গত কয়েক মাস ধরে চিনের সঙ্গে দফায় দফায় আলোচনার পরও দু’দেশের সম্পর্কের কোনও উন্নতি হয়নি। সীমান্ত সমস্যার সমাধান হওয়া তো দূরের কথা, উলটে নিজেদের এলাকায় পরিকাঠামো তৈরির কাজ করছে ড্রাগন। তাই এখনই লাদাখ সীমান্ত থেকে সেনা প্রত্যাহার করাটা বুদ্ধিমানের কাজ নয়। প্রতিরক্ষামন্ত্রী বলেন, চিনারা নিজেদের সীমান্তে বহু পরিকাঠামোগত উন্নয়ন করছে। যার পালটা ভারতকেও বাহিনীর জন্য দ্রুততার সঙ্গে পরিকাঠামো উন্নয়ন করতে হচ্ছে।” সব মিলিয়ে পরিস্থিতি যে উদ্বেগের সে ইঙ্গিত রাজনাথের কথাতে মিলেছিল। আজ সেনাপ্রধানও একই কথা বললেন।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement