২ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

রাম মন্দিরের ভূমিপুজোর দিনক্ষণ ঠিক করা জ্যোতিষীকে খুনের হুমকি! বাড়ানো হল নিরাপত্তা

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: August 4, 2020 10:58 am|    Updated: August 4, 2020 11:04 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: তাঁর পরামর্শেই ঠিক হয়েছে রাম মন্দিরের ভূমিপুজোর দিনক্ষণ। দেশের প্রথম সারির বহু রাজনীতিবিদ ভবিষ্যতদ্রষ্টা হিসেবে তাঁর উপরেই ভরসা রাখেন। সেই পণ্ডিত এনআর বিজয়েন্দ্র শর্মা (Pandit NR Vijayendra Sharma) এবার পেলেন খুনের হুমকি। তাও এক-দু’জনের কাছে থেকে নয়। দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে তাঁকে খুনের হুমকি দেওয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ ওই ধর্মগুরুর। ইতিমধ্যেই তাঁর নিরাপত্তা বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্ণাটক সরকার।

পণ্ডিত এনআর বিজয়েন্দ্র শর্মা থাকেন কর্ণাটকের বেলগামিতে। এই মুহূর্তে দেশের প্রথম সারির ভবিষ্যতদ্রষ্টা হিসেবে খ্যাত তিনি। তাঁর পরামর্শ অনুযায়ীই, আগামী বুধবার ৫ আগস্ট সকাল ১১টা নাগাদ রাম মন্দিরের ভূমিপুজো হওয়ার কথা। পণ্ডিত শর্মার অভিযোগ, ভূমিপুজোর দিনক্ষণ নির্ধারণ করায়, দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে অজ্ঞাতপরিচয় দুষ্কৃতীরা ফোন করে খুনের হুমকি দিচ্ছে তাঁকে। দুষ্কৃতীরা তাঁর উপর চাপ সৃষ্টি করছে, মন্দিরের (Ram Mandir) শিলান্যাসের দিন পিছিয়ে দেওয়ার জন্য। যদিও এই খুনের হুমকিকে ততটা গুরুত্ব দিতে নারাজ পণ্ডিত শর্মা। ইতিমধ্যেই কর্ণাটকের তিলকভাড়ি থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন তিনি। কর্ণাটক পুলিশ তাঁর নিরাপত্তার জন্য একজন আধিকারিককে নিয়োগ করেছে। দুষ্কৃতীদের ফোনের নম্বর ধরে শুরু হয়েছে তদন্ত।  

[আরও পড়ুন: ঘুরেছে সময়ের চাকা, রাম মন্দিরের ভূমিপুজোয় আমন্ত্রিত সেই ইকবাল আনসারি]

উল্লেখ্য, পণ্ডিত এনআর বিজয় শর্মা বেনারস হিন্দু বিশ্ববিদ্যালয়ের গোল্ড মেডেলিস্ট। মোট আটটি ভাষা জানেন তিনি। প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারী বাজপেয়ী, মোরারজি দেশাইরা তাঁর কাছেই পরামর্শ নিতেন। গত ফেব্রুয়ারিতে এই ধর্মগুরুর কাছেই রাম মন্দিরের ভূমিপুজোর দিনক্ষণ ঠিক করে দেওয়ার আবেদন জানায় রাম জন্মভূমি তীর্থক্ষত্র ট্রাস্ট। এপ্রিল মাসে অক্ষয় তৃতীয়াকে প্রথমবার দিন হিসেবে ঠিক করেছিলেন তিনি। কিন্তু লকডাউন থাকায় তখন ভূমিপুজো সম্ভব হয়নি। এরপর শ্রাবণ মাসে আরও চারটি দিন ঠিক করে দেন তিনি। শেষমেশ সবদিক বিবেচনা করে বুধবার সকাল ১১টার সময় মন্দির নির্মাণের কাজ শুরু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ। পণ্ডিত শর্মা  জানিয়েছেন, আগামিকাল দুপুর ১২টার আগে পর্যন্ত ‘বাস্তু মুহূর্ত’। ওই সময়ের মধ্যে ভূমিপুজো সারতে হবে। কারণ, ১২ টার পর আবার রাহুকাল শুরু হয়ে যাবে। 

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement