BREAKING NEWS

৭ মাঘ  ১৪২৮  শুক্রবার ২১ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

বিস্ফোরক অভিযোগ হোয়াটসঅ্যাপের বিরুদ্ধে, কেন্দ্রকে নোটিস সুপ্রিম কোর্টের

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 16, 2017 3:22 pm|    Updated: January 16, 2017 3:25 pm

Privacy issue on Whatsapp, SC issues notice to Centre, TRAI & Facebook

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সুপ্রিম কোর্টের প্রশ্নের মুখে জনপ্রিয় মেসেজিং পরিষেবা হোয়াটসঅ্যাপ, সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সাইট ফেসবুক। হোয়াটসঅ্যাপ-ফেসবুক কতটা নিরাপদ সে বিষয়ে জানতে চেয়ে কেন্দ্র ও টেলিকম রেগুলেটরি অথরিটি ‘ট্রাই’কে নোটিশ পাঠাল শীর্ষ আদালত। নোটিস পাঠানো হয়েছে ফেসবুক কর্তৃপক্ষকেও।

(জানেন কি, WhatsApp চ্যাট কখনও ডিলিট হয় না কেন?)

হোয়াটসঅ্যাপের নিরাপত্তার বিষয়টি নিয়ে প্রশ্ন তুলে আদালতের দ্বারস্থ হন মামলাকারীরা। ওই মামলার পরিপ্রেক্ষিতেই এদিন এই নির্দেশ দিল শীর্ষ আদালত। আগামী ২ সপ্তাহের মধ্যে এ বিষয়ে আদালতে পিটিশন জমা দিতে হবে কেন্দ্র ও ট্রাইকে।

এই দুই জনপ্রিয় অ্যাপ মারফত তথ্য চুরি হওয়ার প্রচুর অভিযোগ জমা পড়েছিল। এদিন টেলিকম নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষের কাছে সুপ্রিম কোর্ট জানতে চাইল, অ্যাপগুলি আদৌ নিরাপদ কি না।

২০১৬-র গোড়ায় হোয়াটসঅ্যাপ ‘এন্ড টু এন্ড এনক্রিপশন’ চালু করে। এই প্রযুক্তির ফলে যে মেসেজ পাঠাচ্ছে ও যে সেই মেসেজ পড়ছে, এই দু’জন ছাড়া অন্য কেউ মেসেজটি পড়তে বা খুলে দেখতে পারবে না বলে দাবি করেছিল ফেসবুক কর্তৃপক্ষ। ফেসবুকের মালিকানাধীন মেসেজিং অ্যাপটি হোয়াটসঅ্যাপের বিরুদ্ধে অবশ্য দেদার তথ্য চুরির অভিযোগ ওঠে। সম্প্রতি বার্কলে, ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক দাবি করেন, হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করে ব্যক্তিগত ফোন ও এসএমএস-এও আড়ি পাতছে এক শ্রেণির অসাধু ব্যক্তিরা। যদিও, ফেসবুক কর্তৃপক্ষ এই দাবি উড়িয়ে দিয়েছে।

(WhatsApp নিয়ে এক ডজন অজানা অথচ মজাদার তথ্য!)

কিন্তু নিরাপত্তা সংক্রান্ত প্রশ্নের কোনও সদুত্তর দিতে পারেনি ফেসবুক। ভারতীয় সেনাবাহিনীর অত্যন্ত গোপন ও সংবেদনশীল তথ্য হোয়াটসঅ্যাপ মারফত পাচার হয়ে যাচ্ছে বলেও একাধিক অভিযোগ কেন্দ্রীয় গোয়েন্দাদের কাছে জমা পড়েছে। ইতিমধ্যেই কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক সেনাকর্তাদের হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহারে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। এবার সুপ্রিম কোর্টের প্রশ্নের মুখে পড়ে গেল এই জনপ্রিয় অথচ মেসেজিং অ্যাপটি। ভারতে হোয়াটসঅ্যাপের ভবিষ্যত কী, জানতে আগামী ২ সপ্তাহ অপেক্ষা করতে হবে।

(হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহারে নিষেধ করল কেন্দ্র!)

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে