BREAKING NEWS

০৫ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  শুক্রবার ২০ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

মেয়ে জন্ম দেওয়ায় দেওরের হাতে লাঞ্ছিতা বধূ, ভাইরাল ভিডিও

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: July 15, 2017 5:11 am|    Updated: July 15, 2017 7:27 am

Punjab woman thrashed for giving birth to girl child

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:  কন্যাসন্তান জন্ম দেওয়ায় হকিস্টিক দিয়ে বেধড়ক পেটানো হল মাকে। মেয়ে হওয়ায় শাস্তি হিসাবে দাবি করা হল সাত লক্ষ টাকা। নারকীয় ঘটনা পাঞ্জাবের পাটিয়ালায়। সিসিটিভি ফুটেজ ভাইরাল হওয়ার পর পুলিশ সক্রিয় হয়। মহিলার স্বামী-সহ দুই অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ওই বধূর অবস্থা আশঙ্কাজনক।

 

ছেলে-মেয়ের বৈষম্য এখনও কাটিয়ে উঠতে পারেনি দেশ। মেয়েদের জন্ম এখনও অপরাধ বলে দেখা হয় ভারতের নানা প্রান্তে। যার সাম্প্রতিকতম উদাহরণ পাঞ্জাবের পাটিয়ালা। এখানে মেয়ে জন্ম দেওয়ার শাস্তি হিসাবে চলল মধ্যযুগীয় বর্বরতা। কন্যাসন্তান হওয়ায় মহিলাকে যথেচ্ছভাবে পেটানো হল। হকিস্টিক, লাথি। অপমানের কিছু বাকি ছিল না। যারা এই নিগ্রহে ব্যস্ত ছিলেন তারা ওই মহিলার আত্মীয়। একজন ভাসুর এবং অন্যজন তাঁর এক বন্ধু। বেদম মেরে অজ্ঞান করে দেওয়ার পরও উন্মত্তরা ক্ষান্ত হয়নি। মেয়ে জন্ম দেওয়ার ক্ষতিপূরণ হিসাবে ওই বধূর থেকে সাত লক্ষ টাকা চাওয়া হয়। নির্যাতিতার নাম মীনা কাশ্যপ। দলজিৎ সিংয়ের সঙ্গে বছর দুয়েক আগে মীনার বিয়ে হয়েছিল। এটি মীনার প্রথম সন্তান। সন্তান হওয়ার খবরে আনন্দ দূরের কথা, এভাবেই পাশবিক অত্যাচার চলে মীনার উপর। এমনকী মেয়ে হওয়ার জন্য দলজিৎ জানিয়ে দেন, স্ত্রীকে তিনি বাড়িতে তুলবেন না। দলজিতের পরিবারও বধূকে বয়কট করে। সিসিটিভি ফুটেজ প্রকাশ্যে আসার পর দলজিতদের ওই নৃশংসতা পুলিশ জানতে পারে। দলজিৎ ও তাঁর ভাইকে গ্রেপ্তার করা হয়। আর এক অভিযুক্তর খোঁজ চলছে।

[অমরনাথ জঙ্গি হানার সঙ্গে যোগ, পুলিশের জালে বিধায়কের গাড়ির চালক]

মীনার বাবার অভিযোগ, বিয়ের পর থেকে নানা অছিলায় মীনাকে মারধর করতেন দলজিৎ। এই নিয়ে থানায় অভিযোগ জানালেও সুরাহা হয়নি। মেয়ে হওয়ার জন্য সাত লাখ টাকা চেয়েছিল দলজিতের পরিবার। বেটি বাঁচাও, বেটি পড়াও প্রকল্প নিয়ে পাঞ্জাবজুড়ে কম প্রচার হয়নি। পাটিয়ালার ঘটনায় পরিষ্কার দেশের মানুষের একাংশের মানসিকতা রয়েছে সেই তিমিরে। পাঞ্জাবে ১০০০ পুরুষ পিছু মহিলা ৮৯৫ জন। এই লিঙ্গ বৈষম্য বুঝিয়ে দেয়  কেন নারী নির্যাতনে বারবার শিরোনামে আসে পাঞ্জাব।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে