১৫ মাঘ  ১৪২৮  শনিবার ২৯ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

ট্রেনে মিনারেল ওয়াটারের বোতলে শৌচাগারের জল, কর্মীকে হাতেনাতে ধরলেন যাত্রীরা

Published by: Paramita Paul |    Posted: February 11, 2020 4:00 pm|    Updated: February 11, 2020 4:00 pm

Railway attendant serves toilet water to passengers, arrested.

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রেলে মিনারেল ওয়াটারের বদলে শৌচাগারের জল খাওয়াতেন এক রেল কর্মী। দীর্ঘদিন ধরে এই কাজ করলেও ঘুণাক্ষরে টের পায়নি কর্তৃপক্ষ। সকলের চোখ এড়িয়ে কীভাবে তিনি জল ভরে আনতেন, তা কেউ টেরও পেতেন না। কিন্তু এক যাত্রী এই জল খেয়ে অসুস্থ হওয়ার পর রেল কর্তৃপক্ষের টনক নড়ে। শেষমেশ তাকে হাতেনাতে পাকড়াও করে রেল পুলিশের হাতে তুলে দেন যাত্রীরা। তিরুনেভেলি-জামনগর এক্সপ্রেসের বাতানুকূল কামরার ঘটনা। ধৃত কর্মী আপাতত ১০দিনের জন্য জেল হেফাজতে রাখা হয়েছে। পাশাপাশি দেড় হাজার টাকা জরিমানাও করা হয়েছে।

আরপিএফ জানিয়েছে, অভিযুক্তের নাম রবীন্দ্র ব্যাস। রাজকোটের বাসিন্দা। দীর্ঘদিন ধরেই রেলে কাজ করছে সে। জেরায় অপরাধের কথা স্বীকারও করেছে সে। পুলিশ সূত্রে খবর, রবীন্দ্র প্রথম থেকেই বেশ বেপরোয়া। তাই পুলিশের সন্দেহ প্রথম থেকেই সে এমন কাণ্ড ঘটিয়ে চলেছে। জানা গিয়েছে, একটি সংস্থার অধীনে চুক্তিভিত্তিক কাজ করে সে।

[আরও পড়ুন: বিভাজনের রাজনীতিকে হারিয়ে জিতল উন্নয়ন, বিজেপিকে কটাক্ষ বিরোধীদের]

পুলিশ জানিয়েছে, যে সংস্থার অধীনে কাজ করে রবীন্দ্র তার মালিককে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। অভিযুক্তের বিরুদ্ধে ইন্ডিয়ান রেলওয়ে অ্যাক্টের ১৪৪ (১) ধারায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। ঘটনা প্রসঙ্গে কংকন রেলওয়ের মুখপাত্র গিরিশ কারান্ডিকার জানান, এর আগেও রবীন্দ্র বিরুদ্ধে একাধিকবার অভিযোগ জানিয়েছিলেন রেলযাত্রীরা। তবে প্রমাণ মেলেনি। তবে গত সোমবার যাত্রীর। রত্নগিরি স্টেশনের কাছে ট্রেন থামিয়ে রবীন্দ্রকে গ্রেপ্তার করা হয়।

[আরও পড়ুন: ধর্মীয় ভেদাভেদে অনীহা, দিল্লির বাঙালি মহল্লায় এবারও ফুটল না পদ্ম]

রেলের খাবার-জল নিয়ে একাধিকবার অভিযোগ উঠেছে। কখনও খাবারের মান নিয়ে আবার কখনও দাম নিয়ে। বিভিন্ন ট্রেনে জল নিয়েও একাধির অবিযোগ রয়েছে। পরিসংখ্যান বলছে, রাজধানী ও শতাব্দির মত অভিজাত ট্রেনে ২০১৪ সাল থেকে ৩১ অক্টোবর, ২০১৭ পর্যন্ত তিন বছরে ৯,৮০৪টি লিখিত অভিযোগ হয়েছে।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে