BREAKING NEWS

১৪ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  বুধবার ১ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

স্বস্তিতে বিজেপি, মোদি-কেসিআর বৈঠকে পাকা জোটের সমীকরণ

Published by: Tanujit Das |    Posted: August 5, 2018 1:26 pm|    Updated: August 5, 2018 1:26 pm

The Telangana Rashtra Samithi and BJP took a leap forward to face 2019 elections on post-poll support

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লোকসভা নির্বাচন যত এগিয়ে আসছে ততই যেন পালটে যাচ্ছে সমস্ত রাজনৈতিক সমীকরণ৷ গুলিয়ে যাচ্ছে রাজনৈতিক পক্ষ-প্রতিপক্ষের হিসাব-নিকেশ৷ কয়েকদিন আগেও তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী তথা তেলেঙ্গানা রাষ্ট্রীয় সমিতির প্রধান কে চন্দ্রশেখর রাও-কে দেখা যায় বিজেপি বিরোধী জোটে সঙ্গে৷ কিন্তু শনিবার, ১৮০ ডিগ্রি ঘুরে তিনি সেই বিজেপির সঙ্গেই ভোট পরবর্তী জোটের কথাবার্তা বলে এলেন৷ সূত্রের খবর, ঘন্টাখানেকের বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে আশ্বাস দিয়ে জানালেন, নির্বাচন পরবর্তী সময়ে বিজেপি সংখ্যাগরিষ্ঠতা না পেলে গেরুয়া শিবিরকে সমর্থন করবে টিআরএস৷

[কিকি চ্যালেঞ্জে মন জয় তেলেঙ্গানার ২ কৃষকের, ভিডিওয় মজেছে নেটদুনিয়া]

রাজ্যের দাবি-দওয়া পূরণের জন্য গত জুন মাসেও প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক করেন কেসিআর৷ ঠিক পঞ্চাশ দিনের মাথায় আবারও দুই শীর্ষ নেতার মুখোমুখি হওয়াকে ঘিরে আগে থেকেই জল্পনার পারদ চড়েছিল৷ জানা গিয়েছে, এবার প্রথমধাপে প্রধানমন্ত্রীর কাছে তেলেঙ্গানার একাধিক দাবি-দাওয়া পেশ করেন কে চন্দ্রশেখর রাও৷ তারপরেই দু’জনের মধ্যেকার কথাবার্তা মোড় নেয় রাজনৈতিক সমীকরণের দিকে৷ সূত্রের খবর, বৈঠকেই বিজেপিকে ভোট পরবর্তী সমর্থনের কথা জানান তেলেঙ্গানা রাষ্ট্রীয় সমিতির প্রধান৷ বলেন, ভোটের আগে এনডিএ জোটে দল অন্তর্ভুক্ত হলে তাঁদের রাজনৈতিক ক্ষতি হতে পারে৷ ফলে ভোট পরর্বতী সময়ে বিজেপিকেই সমর্থন করবে টিআরএস৷

[স্কুল শিক্ষকের লালসার শিকার শিশু, বাদ পড়ল না কিশোরীও]

অন্ধ্রপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী চন্দ্রবাবু নায়ড়ু তথা তেলুগু দেশম পার্টি এনডিএ জোট ছেড়ে বেরিয়ে যাওয়ার পর থেকে টিআরএসের সঙ্গে সখ্যতা বাড়াতে শুরু করে বিজেপি৷ তাঁদের হৃদ্যতা আরও স্পষ্ট হয় গত মাসে, যখন বিজেপির বিরুদ্ধে লোকসভায় অনাস্থা প্রস্তাব আনে টিডিপি৷ সমস্ত বিজেপি বিরোধী রাজনৈতিক দল সেই অনাস্থা প্রস্তাবকে সমর্থন করলেও ভোটাভুটি সময়ে সংসদ ত্যাগ করেন টিডিপি সাংসদরা৷ ভোট দানে বিরত থাকেন তাঁরা৷ এমনকি টিডিপিকে চাপে ফেলতে, জবাবি ভাষণে তেলেঙ্গানার অগ্রগতির ঢালাও প্রশংসা করেন খোদ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি৷ তবে, রাজনৈতিক মহলের অনেকই অবাক তেলেঙ্গানা রাষ্ট্রীয় সমিতির প্রধান কে চন্দ্রশেখর রাও-এর এই হঠাৎ পরিবর্তন দেখে৷ কারণ, এই কেসিআর-ই কয়েকমাস আগে কলকাতায় এসে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে বৈঠক করে যান৷ কথা বলেন বিজেপি বিরোধী মহাজোট নিয়ে৷ তবে হঠাৎ কেন এই পরিবর্তন সেই উত্তর খুঁজে পাচ্ছেন না অনেকেই৷ অনুমান করা হচ্ছে, এই পরিবর্তনের কারণ হতে পারে কংগ্রেস৷ কারণ প্রথম থেকেই কংগ্রেসের সঙ্গে এক মঞ্চ ভাগ করে নিতে প্রবল অনীহা রয়েছে কে চন্দ্রশেখর রাও-এর৷ সেই কারণেই বিজেপির প্রতি তিনি ঝুঁকেছেন বলে রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের অনুমান৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে