BREAKING NEWS

২১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  বুধবার ৮ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

নয়া নিয়মের গেরো, এই কাজটি না করলে বাতিল হয়ে যেতে পারে রেশন কার্ড!

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: December 16, 2020 8:57 am|    Updated: December 16, 2020 8:57 am

Under the new One Nation, One Ration Card scheme released by the Centre, ration cards may get cancelled after three months |Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দেশজুড়ে পরিযায়ী শ্রমিকদের সুবিধার জন্য ‘এক দেশ এক রেশন কার্ড’ চালু করছে কেন্দ্রের মোদি (Narendra Modi) সরকার। নাগরিকদের সব তথ্যের ডিজিটালাইজেশন শুরু হয়েছে। কেন্দ্রের দাবি, নতুন এই পদ্ধতিতে দেশের যে কোনও প্রান্তে যে কোনও রেশন কার্ডের মাধ্যমে খাদ্যশস্য কিনতে পারবেন গ্রাহকরা। তবে, এই ‘এক দেশ এক রেশন কার্ড’ পদ্ধতি চালু করার পাশাপাশি একাধিক রাজ্য আরও একটি নিয়ম চালু করেছে। যাতে বলা হচ্ছে, কোনও নাগরিক যদি ৩ মাসের মধ্যে রেশন কার্ড ব্যবহার করে খাদ্যশস্য না কেনেন, তাহলে তাঁর রেশন কার্ড বাতিল বলে গণ্য হবে।

ইতিমধ্যেই বিহার (Bihar), মধ্যপ্রদেশের মতো রাজ্যগুলি এই তিন মাসের নিয়ম চালু করে ফেলেছে। উত্তরপ্রদেশ সরকার জেলাওয়াড়ি রিপোর্ট চেয়েছে। খুব শীঘ্রই যোগীর রাজ্যে এই নিয়ম চালু হয়ে যেতে পারে। শোনা যাচ্ছে আরও অন্তত ৯টি রাজ্য যারা কিনা ‘এই এক দেশ এক রেশন কার্ড’ (One Nation One Ration Card) পদ্ধতির অন্তর্গত, তারাও এই ৩ মাসের নিয়ম চালু করতে পারে। সরকারের যুক্তি, কোনও ব্যক্তি একটানা তিনমাস সরকারের দেওয়া স্বল্পমূল্যের পণ্য না কেনার অর্থ হল, সরকারের সাহায্য ছাড়াই জীবনযাপনের সঙ্গতি তাঁর আছে। খাদ্যশস্যের জন্য তাঁর সরকারি সাহায্যের প্রয়োজন নেই। সুতরাং, তাঁর রেশন কার্ডেরও প্রয়োজন নেই। এই রাজ্যগুলি স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছে, রেশন কার্ডের সুবিধা বজায় রাখতে হলে নাগরিকদের প্রতি তিন মাসে অন্তত একবার সরকারি সাহায্যপ্রাপ্ত ফেয়ার প্রাইস শপ থেকে স্বল্পমুল্যে পণ্য ক্রয় করতে হবে।

[আরও পড়ুন: ‘আমার সঙ্গে বৈঠকে কৃষি বিলকে সমর্থনের কথা জানিয়েছেন কৃষকরা’, দাবি কেন্দ্রীয় কৃষি মন্ত্রীর]

প্রসঙ্গত, এই ‘এক দেশ এক রেশন কার্ড’ পদ্ধতি মোদি সরকারের সবচেয়ে তাৎপর্যপূর্ণ সংস্কারগুলির মধ্যে একটি। এ বছর জুন মাস থেকে এই প্রকল্প চালু হয়েছে। মোট ৬৭ কোটি মানুষকে এর আওতায় আনা হবে। আগামী মার্চের মধ্যে প্রকল্পের কাজ ১০০ শতাংশ শেষ হবে বলে দাবি কেন্দ্রের। প্রথাগত রেশন কার্ডের বদলে গ্রাহকদের ডিজিটাল রেশন কার্ড (Digital Ration Card) দেওয়া হবে। এবং বায়োমেট্রির মাধ্যমে গ্রাহকদের শনাক্ত করা হবে। কোন গ্রাহক কবে কী পরিমাণ খাদ্যশস্য কিনেছেন, সেটাও হিসেব রাখা হবে ডিজিটালি। এবং তিন মাস কেউ রেশন কার্ডের সুবিধা না নিলে তা বাতিল বলে গণ্য হবে।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে