BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

তিন তালাক বিল পাশ কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভায়, ৩ বছর জেলের প্রস্তাব

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: December 15, 2017 11:43 am|    Updated: September 19, 2019 1:44 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সুপ্রিম কোর্ট অসাংবিধানিক ঘোষণা করেছিল। এবার মন্ত্রীসভাতেও পাশ হয়ে গেল তিন তালাক বিল। সংসদের সামনে এবার তা পেশ করা হবে। তারপরই আইনে পরিণত হবে এটি। ফলে তিন তালাকের ভুক্তভোগীরা সরাসরি পুলিশের দ্বারস্থ হতে পারবেন।

প্রেমিকের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ অবস্থায় দেখার ফল, ৬ বছরের শিশুকে খুন করল মা ]

গত আগস্টেই তাৎক্ষণিক তিন তালাককে অসাংবিধানিক ঘোষণা করেছিল দেশের সর্বোচ্চ আদালত। ৫ বিচারপতিদের নিয়ে গঠিত বিশেষ বেঞ্চ ৩:২ সংখ্যাগরিষ্ঠতায় জানিয়ে দিয়েছিল, তাৎক্ষণিক তিন তালাকের মাধ্যমে বিচ্ছেদ বেআইনি। ফলত দীর্ঘদিনের বঞ্চনা শেষে আশার আলো দেখেছিল মুসলমান মহিলা সমাজ। তিন তালাক নিষিদ্ধকরণে আইন তৈরির পথও খুলে গিয়েছিল। শুক্রবার মন্ত্রিসভার এক বৈঠকে এই বিল পাশ করা হল। প্রস্তাবিত বিলে তিন তালাক উচ্চারণকারীর জন্য তিন বছরের সাজা ও জরিমানার প্রস্তাব আনা হয়েছে। আইনে পরিণত হলে, তিন তালাক দেওয়া জামিন অযোগ্য অপরাধ বলেই পরিগণিত হবে। মুখে বলা বা হোয়্যাটসঅ্যাপ, মেল বা টেস্কট মেসেজ করে জানানো কোনওরকম তালাকই বৈধ বলে গণ্য হবে না। সেক্ষেত্রেও একই অপরাধের শামিল হবেন পুরুষরা। তিন তালাক দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে স্ত্রীকে সন্তান-সহ বাড়ির বাইরে বের করে দেওয়ার ঘটনাও ঘটে। আকছার এই ধরনের অভিযোগ মেলে। তাই প্রস্তাবিত বিলে মহিলা ও শিশুদের আর্থিক ও আইনি সুরক্ষার দিকেও জোর দেওয়া হয়েছে।

[ সমস্ত ক্ষেত্রে আধার যোগের সময়সীমা বেড়ে ৩১ মার্চ, নির্দেশ সুপ্রিম কোর্টের ]

সংসদের দুই কক্ষেই এবার এ বিল পাশ করা হবে। অনুমোদন পেলেই তা আইনে রুপান্তরিত হবে। উত্তরপ্রদেশ, মধ্যপ্রদেশ, ঝাড়খণ্ড, উত্তরাখণ্ড, মণিপুর ও অসমের মতো রাজ্য এই বিলে সমর্থন জানিয়েছে। আইনে পরিণত হলে গোটা দেশেই তা বলবৎ হবে। শুধু জম্মু-কাশ্মীর এই আইনের আওতার বাইরে থাকবে। সুপ্রিম ঘোষণার পরও দুটি তিন তালাকের ঘটনা সামনে এসেছে। তার মধ্যে একজন ছিলেন অধ্যাপক। পরকীয়ার অভিযোগে স্ত্রীকে তিন তালাক দেন। অন্যদিকে আর একজন মোদির সমর্থনে আয়োজিত সভায় হাজিরা দেওয়ার জন্য স্ত্রীকে তিন তালাক দেন বলে অভিযোগ উঠেছিল। তবে এই বিল আইনে পরিণত হলে ন্যায়বিচার পাবেন মহিলারা। সেক্ষেত্রে সরাসরিই পুলিশের দ্বারস্থ হতে পারবেন তাঁরা। জামিন অযোগ্য অপরাধ হওয়ায় তাৎক্ষণিক তিন তালাক দেওয়া থেকে বিরত হবেন পুরুষরা।

[ এবার বিদায়ের সময়, রাহুলের হাতে দায়িত্ব ছেড়ে ঘোষণা সোনিয়ার ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement