BREAKING NEWS

০৮ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৪ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

পাকিস্তান চাইলেও কাশ্মীর ইস্যুতে আমেরিকার হস্তক্ষেপ চায় না ভারত

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: April 6, 2017 4:22 am|    Updated: December 17, 2019 2:59 pm

US mediation not needed in India-Pakistan relations over Kashmir, says MEA spokesperson

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: পাকিস্তান চাইলেও কাশ্মীর ইস্যুতে তৃতীয়পক্ষের হস্তক্ষেপ চায় না ভারত। তা সে আমেরিকাই হোক না কেন। এই কথা স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন বিদেশমন্ত্রকের মুখপাত্র গোপাল বাগলে। সম্প্রতি রাষ্ট্রসংঘে নিয়োজিত মার্কিন রাষ্ট্রদূত নিকি হ্যালির বক্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে এই কথা জানান বাগলে।

[মহাবীর জয়ন্তীতে রাজ্যজুড়ে মদ-মাংসের বিক্রি নিষিদ্ধ করলেন খাট্টার]

ভারত-পাকিস্তানের সাম্প্রতিক সম্পর্ক নিয়ে চিন্তিত ট্রাম্প প্রশাসন। এই পরিস্থিতির উন্নতি হওয়া প্রয়োজন। দুই দেশ চাইলে আমেরিকা এই কাজে সাহায্য করতে পারে। ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে মধ্যস্থতাকারীর ভূমিকা পালন করতে পারে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। সম্প্রতি এই প্রস্তাব দিয়েছিলেন নিকি। তিনি বলেন, প্রয়োজনে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প নিজে কথা বলতে পারেন দুই দেশের প্রধানের সঙ্গে।

[এবার ফেসবুক-হোয়াটসঅ্যাপের জন্য নিয়ন্ত্রণবিধি, সুপ্রিম কোর্টকে জানাল DoT]

শোনা গিয়েছিল, আমেরিকার এই প্রস্তাবে কোনও আপত্তি ছিল না ইসলামাবাদের। সার্জিক্যাল স্ট্রাইকের পর থেকে এমনিতেই ব্যাকফুটে নওয়াজ শরিফ সরকার। তার উপরে ট্রাম্প ক্ষমতায় আসার পর থেকে ইসলামিক দেশগুলির বিরুদ্ধে যেভাবে অভিবাসন নীতির মাধ্যমে সোচ্চার হয়েছেন। তাতে আরও চিন্তা বেড়েছে পাক প্রধানমন্ত্রীর। এমন অবস্থায় একদিকে ভারতের সঙ্গে বৈরিতা করার আগে দু’বার ভাবতে হচ্ছে তাঁকে। আর অন্যদিকে সইতে হচ্ছে পাক মাটিতে মাথা তোলা সন্ত্রাসবাদী গোষ্ঠীগুলির রক্তচক্ষুও। তাই মার্কিন প্রস্তাবে সম্মতির লক্ষণ দেখিয়েছে নওয়াজ সরকার।

[অনেকেই নিজেকে সৎ বলে দাবি করেন, করণকে কটাক্ষ কাজলের]

কিন্তু ভারত কাশ্মীর নিয়ে তৃতীয়পক্ষের হস্তক্ষেপ একেবারের চায় না। সেকথা স্পষ্ট করে দিয়েছেন বিদেশমন্ত্রকের মুখপাত্র গোপাল বাগলে। তিনি বলেন, কাশ্মীর নিয়ে দ্বিপাক্ষিক আলোচনা হলেও হতে পারে কিন্তু তৃতীয়পক্ষের উপস্থিতি ভারত আগেও মানেনি পরেও মানবে না। তবে পাকিস্তান কীভাবে ক্রমাগত ভারতের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবাদী কার্যকলাপে মদত দিয়ে চলেছে সেকথাও জানান তিনি। আবার একথাও মনে করিয়ে দেন, সন্ত্রাস ও হিংসামূলক এই কাজকর্ম বন্ধ হলেই একমাত্র ভারত পাকিস্তানের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক আলোচনা সম্ভব।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে