১৭  মাঘ  ১৪২৯  শুক্রবার ৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ 

READ IN APP

Advertisement

৪৫ লক্ষ টাকা ঘুষ নিয়ে জঙ্গিকে ছাড়ল খোদ আইজি, চাঞ্চল্য উত্তরপ্রদেশে

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: September 21, 2017 6:15 am|    Updated: September 21, 2017 6:15 am

Uttar Pradesh IG allegedly took bribe to let off terrorist

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অস্বস্তিতে উত্তরপ্রদেশের যোগী সরকার। অস্বস্তিতে রাজ্যের পুলিশ প্রশাসন। পাঞ্জাব পুলিশের বিস্ফোরক অভিযোগে রীতিমতো মাথা হেঁট তাদের। পাঞ্জাব পুলিশের অভিযোগ উত্তরপ্রদেশের ইনস্পেক্টর জেনারেল পদমর্যাদার এক আইপিএস অফিসার এক খলিস্তানি জঙ্গিকে জেল থেকে পালাতে সাহায্য করেছেন। আর এজন্য তিনি ঘুষ নিয়েছেন ৪৫ লক্ষ টাকা।

[ভারতের বিরুদ্ধে পরমাণু হামলার হুমকি পাক প্রধানমন্ত্রীর]

ওই খলিস্তানি জঙ্গি গুরপ্রীত সিং ওরফে গোপি ঘনশ্যামপুরাকে পালাতে সাহায্য করার জন্য তিনি এই অর্থ নেন। জানা গিয়েছে, প্রমাণ হিসেবে আইজি পদমর্যাদার ওই অফিসারের সঙ্গে জঙ্গিদের ডিল সংক্রান্ত একটি অডিও বার্তা প্রকাশ করেছে পাঞ্জাব পুলিশ। গোটা ঘটনার জন্য উচ্চপর্যায়ের তদন্ত কমিটি গঠন করেছেন মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। কমিটিতে রয়েছেন ডিজিপি সুখলান সিং ও মুখ্য স্বরাষ্ট্র সচিব অরবিন্দ কুমার। সাংবাদিকদের অরবিন্দ কুমার জানান এডিজির নেতৃত্বে একটি বিশেষ দল ওই গোটা ঘটনার পূর্ণাঙ্গ তদন্ত করবে।

[রাম রহিমের পর ফের পুলিশের জালে যৌনতায় আসক্ত ‘ভণ্ড’ বাবা]

পাঞ্জাব পুলিশ অভিযোগ করেছে, সন্দীপ তিওয়ারি বা পিন্টু নামে এক দুষ্কৃতীর মধ্যস্থতায় গোপীকে ছাড়ানোর জন্য ডিল চূড়ান্ত করেন উত্তরপ্রদেশ পুলিশের ওই আইজি। এই সন্দীপ সুলতানপুরের বাসিন্দা, কংগ্রেসের হয়ে ২০১২ সালে বিধানসভা নির্বাচনে প্রার্থী হিসেবে লড়েছিল সে। পুলিশ সূত্রে খবর, ৪৫ লক্ষ নয়, ডিল রফা হওয়ার সময় ১ কোটি টাকা চান আইজি। ডিল চূড়ান্ত হয় ৪৫ লক্ষে।

[ত্রিপুরায় সাংবাদিক খুনের প্রতিবাদে মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ির সামনে ধরনা]

উল্লেখ্য, গত বছর ২৭ নভেম্বর অন্তত ১০ সশস্ত্র দুষ্কৃতী পশ্চিম উত্তরপ্রদেশের নাভা জেলে ঢুকে ৬ জন আসামীকে ছাড়িয়ে নিয়ে যায়। এদের মধ্যে ছিল খালিস্তানি জঙ্গি নেতা হরমিন্দর মিন্টু। যদিও পরদিনই দিল্লি রেল স্টেশনে ধরা পড়ে যায় সে। ঘটনার মাস্টারমাইন্ড গুরপ্রীত গ্রেপ্তার হয় ৫ ফেব্রুয়ারি।

[এবার বিষমদ রুখতে ফাঁসির দাওয়াই যোগীর রাজ্যে ]

কিন্তু ধরা পড়েনি গোপী ঘনশ্যামপুরা। উত্তরপ্রদেশের বেশ কয়েকটি এলাকায় তাকে দেখা গেছে। এ মাসের ১০ তারিখ তাকে শাহজাহানপুরে দেখা গেলেও, পরে আর কোনও খোঁজ পাওয়া যায়নি তার। এটিএস তিনজনকে গ্রেপ্তার করে। এদের মধ্যে ছিল সন্দীপ তিওয়ারি, অমরদীপ সিং ও হরজিন্দর সিং।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে