BREAKING NEWS

৭ আশ্বিন  ১৪২৭  বুধবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

‘গুরু’কে টপকাতে ব্যর্থ ‘গুগল’, সগর্বে মন্তব্য উপরাষ্ট্রপতির

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: December 10, 2017 12:08 pm|    Updated: September 20, 2019 12:54 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভারতে গুরুকে বা শিক্ষককে কখনই টপকাতে পারবে না গুগলের মতো বিশ্বমানের সার্চ ইঞ্জিন। দেশে শিক্ষা ও শিক্ষকদের গুরুত্ব বোঝাতে গিয়ে এমনই মন্তব্য করলেন উপরাষ্ট্রপতি বেঙ্কাইয়া নায়ডু। শনিবার বিশাখাপত্তনমের অন্ধ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তনীদের সম্মেলনে যোগ দিতে গিয়ে এই কথা বলেন তিনি।

[বাবার আয় দিনে ৬০ টাকা, কোটি টাকার চাকরি ছেড়ে ছেলের যোগ সেনাবাহিনীতে]

পাশাপাশি পড়ুয়াদের প্রতি তাঁর আহ্বান, দেশবিরোধী কোনও কাজে লিপ্ত হবেন না। নাম না করে বার্তা দেন, জঙ্গিরা দেশের সবক’টি বিশ্ববিদ্যালয়ে অশান্তি ছড়াতে চাইছে। জঙ্গিদের পাতা ফাঁদে যেন পা না দেন ভারতীয় পড়ুয়ারা, সতর্ক করে দেন উপরাষ্ট্রপতি। ১৩.৫০ কোটি টাকা খরচে ১৬০০ আসন বিশিষ্ট  কনভেনশন সেন্টারের উদ্বোধন করে তাঁর পরামর্শ, পড়াশোনা ও গবেষণার উপরে মন দিক বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

গুগলের মতো সার্চ ইঞ্জিন বর্তমানে ছাত্রছাত্রী ও সাধারণ মানুষের বহু প্রশ্নের জবাব দিয়ে সাহায্য করতে পারলেও ভারতে একজন গুরুর অবদানকে খাটো করতে পারবে না বলে মতপ্রকাশ করেন নায়ডু। বলেন, গুরুরা শুধু উত্তরই দেন না, সঙ্গে শেখান জীবনদর্শনও। ভবিষ্যতে কোন পথে এগোলে লাভ হবে ছাত্রছাত্রীদের, সেটা হাতে ধরে শিখিয়ে দেন একজন যোগ্য গুরু।

[বসা হল না বিয়ের পিঁড়িতে, প্রেমিক সেনার মৃত্যুতে আত্মঘাতী তরুণী]

অন্ধ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তনী বেঙ্কাইয়া নায়ডু এদিন বেশ খানিকক্ষণ সময় কাটান বর্তমান প্রজন্মের পড়ুয়াদের সঙ্গে। ক্যাম্পাস, ক্লাসরাম ঘুরে দেখেন। মন্তব্য করেন, সমাজের সক শ্রেণীর স্বার্থপর মানুষ ব্যক্তিগত স্বার্থসিদ্ধির জন্য শিক্ষাঙ্গণে অশান্তি তৈরি করতে চাইছে। তাদের মতাদর্শে যেন প্রভাবিত না হন পড়ুয়ারা, আবেদন জানান উপরাষ্ট্রপতি। সম্প্রতি ন্যাক-এর কাছ থেকে ‘এ’ গ্রেড পেয়েছে এই বিশ্ববিদ্যালয়। কিন্তু তাতে যেন শিক্ষকরা আত্মতুষ্টিতে না ভোগেন, পরামর্শ দেন উপরাষ্ট্রপতি।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement