১৪  আশ্বিন  ১৪২৯  মঙ্গলবার ৪ অক্টোবর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

‘অধিকৃত কাশ্মীর ও আকসাই চিন ভারতেরই অংশ’, লোকসভায় হুঙ্কার অমিত শাহের

Published by: Tanujit Das |    Posted: August 6, 2019 12:56 pm|    Updated: August 6, 2019 12:56 pm

‘We will die for Kashmir,’ says Home Minister Amit Shah

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রাষ্ট্রপতির স্বাক্ষরের পর, সোমবার রাজ্যসভাতে পাশ হয়ে গিয়েছে জম্মু-কাশ্মীর পুনর্গঠন বিল৷ বিশেষ রাজ্যের তকমা হারিয়ে দুটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে ভাগ হয়ে গিয়েছে জম্মু-কাশ্মীর৷ কিন্তু নিয়মরক্ষার খাতিরে মঙ্গলবার তুমুল হট্টগোলের মধ্যে লোকসভায় পেশ হল এই বিল৷ এবং শুরুতেই কংগ্রেসের সংসদীয় দলনেতা অধীর চৌধুরির সঙ্গে বাকবিতণ্ডায় জড়ালেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ৷ হুঙ্কারের সুরে তিনি সাফ জানালেন, ‘‘পাক অধিকৃত কাশ্মীর ও আকসাই চিন জম্মু-কাশ্মীরের অভিন্ন অংশ৷ দেহে প্রাণ থাকতে কাশ্মীরকে ভাগ হতে দেব না৷ রক্ষা করব৷’’

[ আরও পড়ুন: ‘অবশেষে ঘরে ফিরব’, কেন্দ্রকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলছেন কাশ্মীরি পণ্ডিতরা]

এদিন অধিবেশনের শুরুতেই বিলটি লোকসভায় পেশ করেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী৷ এরপর কংগ্রেসের নেতা অধীর চৌধুরিকে বলার সুযোগ দেন অধ্যক্ষ ওম বিড়লা৷ আর শুরুতেই সরকারের বিরুদ্ধে একগুচ্ছ অভিযোগ তোলেন অধীর চৌধুরি৷ বলেন, ‘‘আমার মনে হয় আপনারা অধিকৃত কাশ্মীরের বিষয়ে ভাবছেন না৷ আর সেজন্যই রাতারাতি আপনারা জম্মু-কাশ্মীরকে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল ঘোষণা করতে উঠে পড়ে লাগলেন৷’’ এরপরই অমিত শাহের বিরুদ্ধে তোপ দেগে কংগ্রেস নেতা প্রশ্ন করেন, ‘‘কয়েকদিন আগেই বিদেশমন্ত্রী এস জয়শংকর যখন মাইক পম্পেওকে বলেন যে, কাশ্মীর একটি দ্বিপাক্ষিক বিষয়৷ তাহলে কীভাবে বিষয়টি অভ্যন্তরীণ বিষয় হয়ে থাকছে? কাশ্মীর সমস্যা দ্বিপাক্ষিক নাকি অভ্যন্তরীণ সমস্যা? এটা আগে স্পষ্ট করুন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী৷’’

[ আরও পড়ুন: দিল্লির জাকিরনগরের বহুতলে বিধ্বংসী আগুন, মৃত দুটি শিশু-সহ ৬ ]

জানা গিয়েছে, এরপর বিরোধী সাংসদের প্রশ্নের উত্তর দিতে উঠেই কংগ্রেসকে আক্রমণ শানান অমিত শাহ৷ কংগ্রেসের বেঞ্চের দিকে আঙুল উচিয়ে তিনি পালটা প্রশ্ন করেন, ‘‘অধিকৃত কাশ্মীরকে কীভাবে আপনারা ভারতের থেকে আলাদা করতে পারেন? ওই অঞ্চলের জন্য আমরা জীবন দিতে রাজি আছি৷ যখন আমি কাশ্মীরের কথা বলি, তখন সংবিধানে উল্লেখিত ভারতের সীমানাকে মাথায় রেখেই, কথা বলি৷ এবং অধিকৃত কাশ্মীর ও আকসাই চিনকে আমি ভারতের অংশ হিসাবেই দেখি৷ এবং জম্মু-কাশ্মীর ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ হিসাবেই ভাবি৷’’ গতকাল জম্মু-কাশ্মীরে ৩৭০ ও ৩৫এ ধারার বিলুপ্তির পর থেকেই উত্তপ্ত জাতীয় তথা আন্তর্জাতিক রাজনীতি৷ এই পরিস্থিতিতে সংসদে দাঁড়িয়ে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর এই মন্তব্যকে যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ বলেই মনে করছে রাজনৈতিক মহল৷ তাঁদের ধারণা মঙ্গলবারের বক্তব্যের মাধ্যমে, কংগ্রেসের পাশাপাশি ঘুরিয়ে পাকিস্তান ও চিনকেও বার্তা দিতে চেয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী৷ কাশ্মীরের বিষয়ে যে আর কোনও ধরনের দ্বিচারিতা সহ্য করবে না নয়াদিল্লি তা বুঝিয়ে দিতে চেয়েছেন তিনি৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে