৯ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

বাবুঘাটের বাসস্ট্যান্ড সরানোর নির্দেশ

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: August 15, 2016 3:01 pm|    Updated: August 15, 2016 3:01 pm

An Images

শুভঙ্কর বসু: বাবুঘাট থেকে আন্তঃরাজ্য বাসস্ট্যান্ড সরিয়ে দেওয়ার নির্দেশ দিল কলকাতা হাই কোর্ট৷ বাবুঘাট থেকে বাসস্ট্যান্ড সরিয়ে সাঁতরাগাছিতে নিয়ে যেতে হবে৷ বাবুঘাটে স্ট্যান্ড রাখা চলবে না৷ বুধবার এমনই নির্দেশ দিয়েছে বিচারপতি সৌমিত্র পাল ও বিচারপতি মির দারাশুকোর ডিভিশন বেঞ্চ৷ যাত্রী তুলতে সকাল ৬টা ও রাত ৮টায় কেবল বাবুঘাটে দাঁড়াতে পারবে আন্তঃরাজ্য বাসগুলি৷ পরবর্তী পর্যায়ে ধর্মতলা থেকেও বাসস্ট্যান্ড সরানোর নির্দেশ দিয়েছে ডিভিশন বেঞ্চ৷
ধর্মতলা ও বাবুঘাটে বাসস্ট্যান্ডকে কেন্দ্র করে বিবাদের সূত্রপাত সেই ২০০২ সালে৷ ধর্মতলা ও বাবুঘাটে বাসস্ট্যান্ড থাকার কারণে ব্যাপক দূষণ ছড়াচ্ছে৷ এই অভিযোগে হাই কোর্টে একটি জনস্বার্থ মামলা দায়ের করেন পরিবেশ কর্মী সুভাষ দত্ত৷ সেই মামলায় ধর্মতলা ও বাবুঘাট থেকে বাসস্ট্যান্ড সরানোর নির্দেশ দেয় বিচারপতি ভাস্কর ভট্টাচার্যর ডিভিশন বেঞ্চ৷ বাসস্ট্যান্ড সরাতে সময়ও বেঁধে দেন বিচারপতি ভট্টাচার্য৷ কিন্তু হাই কোর্টের ডিভিশন বেঞ্চের এই নির্দেশ চ্যালেঞ্জ করে সুপ্রিম কোর্টে যায় রাজ্য সরকার৷ সুপ্রিম কোর্ট হাই কোর্টের ডিভিশন বেঞ্চের নির্দেশই বহাল রাখে৷ তবে ডিভিশন বেঞ্চের নির্দেশ সামান্য রদবদল করে শীর্ষ আদালত৷ হাই কোর্ট বাসস্ট্যান্ড সরাতে যে সময় বেঁধে দেয় তা খারিজ করে জানিয়ে দেয়, রাজ্য সরকার নিজেদের সুবিধামতো বাসস্ট্যান্ড স্থানান্তরের ব্যবস্থা করবে৷
এই নির্দেশের পর ফের মামলাটি হাই কোর্টে ফেরত পাঠায় সুপ্রিম কোর্ট৷ বাসস্ট্যান্ড সরাতে রাজ্য সরকার হাই কোর্টের বিচারপতি অসীম বন্দ্যোপাধ্যায়ের ডিভিশন বেঞ্চে আবেদন জানায়৷ রাজ্যের আবেদনের ভিত্তিতে বিচারপতি বন্দ্যোপাধ্যায় বাসস্ট্যান্ড সরাতে মুখ্য সচিবের নেতৃত্বে একটি হাই পাওয়ার কমিটি তৈরি করে৷ হাই পাওয়ার কমিটিতে সেনা, পুলিশ ও পরিবহণ দফতরের আধিকারিকদের রাখা হয়৷ তিন মাস অন্তর ওই কমিটির হাই কোর্টে রিপোর্ট দেওয়ার কথা ছিল৷ হাই পাওয়ার কমিটিই বাবুঘাট থেকে আন্তঃরাজ্য বাসগুলিকে সাঁতরাগাছি স্থানান্তরিত করতে রিপোর্ট দেয়৷ হাই পাওয়ার কমিটির এই রিপোর্ট চ্যালেঞ্জ করে এবার হাই কোর্টের সিঙ্গল বেঞ্চে মামলা দায়ের করে ইন্টার স্টেট বাস অপারেটর্স ইউনিয়ন৷ যেহেতু ডিভিশন বেঞ্চের নির্দেশে গঠিত হওয়া কমিটি রিপোর্ট চ্যালেঞ্জ করে এই মামলা৷ তাই সেটি আসে বিচারপতি সৌমিত্র পাল ও বিচারপতি মির দারাশুকোর এজলাসে৷ বুধবার তারই পরিণতিতে বাসস্ট্যান্ড সরানোর নির্দেশ দিয়েছে ডিভিশন বেঞ্চ৷

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement