BREAKING NEWS

৮ শ্রাবণ  ১৪২৮  রবিবার ২৫ জুলাই ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে উঠল শৃঙ্খলাভঙ্গের অভিযোগ, চিঠি দিল কেন্দ্র

Published by: Sulaya Singha |    Posted: June 21, 2021 5:59 pm|    Updated: June 21, 2021 7:36 pm

Centre initiates step against former Bengal chief secretary Alapan Banerjee | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (CM Mamata banerjee) মুখ্য উপদেষ্টা আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে শৃঙ্খলাভঙ্গের অভিযোগ তুলে তাঁকে চিঠি ধরাল কেন্দ্রীয় কর্মীবর্গ দপ্তর (DOPT)। আগামী ৩০ দিনের মধ্যে তাঁকে চিঠির জবাব দিতে হবে। এমন নির্দেশই দেওয়া হয়েছে।

সোমবারই কেন্দ্রীয় কর্মীবর্গ দপ্তরের তরফে জানানো হয়, শৃঙ্খলাভঙ্গের অভিযোগে অল ইন্ডিয়া সার্ভিস রুলসের ৮ নম্বর ধারা অনুযায়ী তাঁকে চিঠি দেওয়া হয়েছে। সেখানেই শৃঙ্খলাভঙ্গের উল্লেখ রয়েছে। আগামী ৩০ দিনের মধ্যে এই চিঠির উত্তর দিতে হবে রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যসচিবকে। এমনকী আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়ের তরফে জবাব পাওয়া না গেলে একতরফা পদক্ষেপ করা হবে বলেও সাফ জানিয়ে দিয়েছে কেন্দ্রীয় কর্মীবর্গ দপ্তর।

[আরও পড়ুন: হ্যাকারদের নিশানায় দেশের প্রতিরক্ষা ওয়েবসাইট! চিনা ‘চর’ হানকে জেরায় চাঞ্চল্যকর তথ্য]

গত মাসেই আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে (Alapan Bandyopadhyay) নিয়ে বিস্তর টানাপোড়েন চলে। বিপর্যয় মোকাবিলা আইনে তাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলে তাঁকে শোকজ নোটিস পাঠিয়েছিল কেন্দ্র। যে চিঠির জবাবও দিয়েছিলেন আলাপনবাবু।

আবার মুখ্যসচিব হিসেবে তাঁর মেয়াদ বাড়ার পরই কেন্দ্রের তরফে বদলির চিঠি পাঠানো হয় তাঁকে। কিন্তু রাজ্যের তরফে জানানো হয়েছিল, এখনই আলাপনবাবুকে মুখ্যসচিবের দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেওয়া যাবে না। কেন্দ্রের ওই বিজ্ঞপ্তি প্রত্যাহারের জন্যও লিখিত আবেদন জানিয়েছিলেন মমতা। তবে তাতেও বিশেষ লাভ হয়নি। শেষমেশ আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়ের অবসরের দিন অর্থাৎ ৩১ মে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঘোষণা করেন, ১ জুন থেকে আগামী তিন বছরের জন্য মুখ্যমন্ত্রীর মুখ্য উপদেষ্টা পদে কাজ করবেন তিনি। মমতা বলে দেন, চ্যাপ্টার ক্লোজড। কিন্তু এত সহজে যে কেন্দ্র বিষয়টি শেষ হতে দিল না, তারই প্রমাণ মিলল সোমবার।

[আরও পড়ুন: উত্তরবঙ্গে পা রেখেই বিক্ষোভের মুখে রাজ্যপাল, কার্শিয়াংয়ে কালো পতাকা দেখাল তৃণমূল]

আলাপনের বিরুদ্ধে শৃঙ্খলাভঙ্গের অভিযোগ উঠতেই ক্ষোভ উগরে দিয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস। শাসকদলের নেতা তাপস রায় বলে দেন, “এর মধ্যে দিয়ে বাংলার প্রতি মোদি সরকারের আক্রোশ, রাগেরই প্রকাশ পেল। মানুষের কাছে নিজেরাই নিজেদের হেয় প্রতিপন্ন করছে। হিংসার রাজনীতি করে চলেছে বিজেপি।” এ প্রসঙ্গে পালটা দিয়ে পদ্মশিবিরের নেতা জয়প্রকাশ মজুমদার বলেন, “এনিয়ে তৃণমূল বা বিজেপির কিছু বলার নেই। আইনের ধারাতেই সবটা হচ্ছে।”

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement