BREAKING NEWS

২২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৭  শুক্রবার ৫ জুন ২০২০ 

Advertisement

বিদ্যাসাগর কাণ্ডের প্রতিবাদ, ধিক্কার মিছিলে পা মেলালেন মুখ্যমন্ত্রী

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: May 15, 2019 8:17 pm|    Updated: May 17, 2019 1:25 pm

An Images

ধ্রুবজ্যোতি বন্দ্যোপাধ্যায়: বিদ্যাসাগর কলেজে বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙচুরের ঘটনার প্রতিবাদে পথে নামলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বুধবার বিকেলে বেলেঘাটার গান্ধী ভবন থেকে পদযাত্রা শুরু করেন তৃণমূল সুপ্রিমো। শ্যামবাজারে গিয়ে শেষ হয় এই মিছিল। এছাড়াও রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে ঘটনার প্রতিবাদে বিক্ষোভ দেখানো হয়। 

[আরও পড়ুন: বিদ্যাসাগরের মূর্তিভঙ্গে অমিত শাহ’র বিরুদ্ধে FIR, বিকেলে ধিক্কার মিছিলে মমতা]

মঙ্গলবার বিকেলে বিদ্যাসাগর কলেজে যা ঘটে গিয়েছে তাতে স্তম্ভিত গোটা দেশ। ধিক্কার জানিয়েছেন সব মহল। নিজেদের মতো করে প্রতিবাদ জানিয়েছেন সকলেই। একইভাবে প্রতিবাদে সরব হয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও। বাংলার সংস্কৃতির রক্ষার ডাক দিয়েছেন তিনি। পাশাপাশি, ঘটনার প্রতিবাদে পথে নেমেছেন মুখ্যমন্ত্রী। বুধবার বিকেলে বেলেঘাটার গান্ধীভবনে গান্ধী মূর্তিতে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন করেন মুখ্যমন্ত্রী। সেখান থেকে ধিক্কার মিছিলে পা মেলান তিনি। সিমলা স্ট্রিটে স্বামী বিবেকানন্দের বাড়ি হয়ে শ্যামবাজারে পৌঁছায় মিছিল। মাঝে সিমলা স্ট্রিটে বিবেকানন্দের মূর্তিতে মাল্যদান করেন মুখ্যমন্ত্রী। ঘটনার প্রতিবাদে বহু মানুষ শামিল হয়েছেন এই পদযাত্রায়। প্রতিবাদে মিছিলে স্লোগান তুলেছেন তৃণমূলের কর্মী, সমর্থকরা।

[আরও পড়ুন: দুষ্কৃতী হামলায় ঐক্যবদ্ধ প্রতিবাদ, জোট বেঁধে ধরনায় বিদ্যাসাগর কলেজ]

প্রসঙ্গত, মঙ্গলবার বিকেলে কলেজ স্ট্রিট থেকে অমিত শাহর রোড শো বিধান সরণির দিকে এগোতেই বিদ্যাসাগর কলেজের সামনে ধুন্ধুমার বেঁধে যায় টিএমসিপি সদস্যদের সঙ্গে মিছিলে অংশগ্রহণকারী বিজেপি কর্মী, সমর্থকদের৷ কলেজের সান্ধ্যকালীন ক্লাস চলাকালীন ভিতরে ঢুকে দুষ্কৃতীরা ভাঙচুর চালায়৷ দরজা, জানলা, ক্লাসরুমের ক্ষতি করার পাশাপাশি ভেঙে টুকরো করে ফেলা হয় ঐতিহ্যবাহী ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগরের মূর্তিটি৷ আর এসবের পিছনে অমিত শাহর রোড শো-কেই দায়ী করছে তৃণমূল ছাত্র পরিষদ৷ তাঁদের অভিযোগ, বিজেপি সর্বভারতীয় সভাপতির সামনেই এমন তাণ্ডব চালিয়েছে বিজেপি কর্মী, সমর্থকরা৷ তিনি নীরব ছিলেন৷ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ইতিমধ্যেই একাধিক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। রাজনৈতিক পরিচয়ের উর্দ্ধে গিয়ে অভিযুক্তদের শাস্তির দাবিতে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে বিক্ষোভে শামিল হয়েছেন মানুষ। 

 

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement