BREAKING NEWS

৭ আশ্বিন  ১৪২৭  বুধবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

শহরে পারদ নেমে ১১ ডিগ্রি, শীতে কাঁপছে গোটা বাংলা

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 5, 2018 4:31 am|    Updated: January 5, 2018 4:31 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ঘূর্ণাবর্ত সরে যেতেই প্রতিদিনই একটু একটু করে পারদ নামছে রাজ্যে। শুক্রবার নতুন রেকর্ড গড়ল শীত। আজ শহরের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১১.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস, স্বাভাবিকের চেয়ে ২ ডিগ্রি কম। মরশুমের শীতলতম দিনে শীতে কাঁপছে বাংলা। উত্তরবঙ্গ থেকে দ‌ক্ষিণবঙ্গ, সর্বত্র একই অবস্থা। উত্তরবঙ্গ জুড়ে কুয়াশার দাপট। ঘন কুয়াশায় দৃশ্যমানতা কম হওয়ায় দেরিতে চলছে একাধিক ট্রেন।

[সামনে পঞ্চায়েত ভোট, বিজেপির ভোটব্যাঙ্কে ধস নামাতে নয়া কৌশল মমতার]

ঠান্ডার কামড়ে জবুথবু আট থেকে আশি। নতুন বছরে এই প্রথম ১১-র ঘরে নামল কলকাতার তাপমাত্রা। একই সঙ্গে মরশুমের শীতলতম মুহূর্ত অনুভব করল শহরবাসী। ঠান্ডার দাপটে এদিন জেলাগুলি কার্যত ঢুকে পড়েছিল ডিপ ফ্রিজে। উত্তুরে হাওয়ার দাপটে আজ জাঁকিয়ে শীত পড়েছে রাজ্যে। বেশ কয়েকটি জেলায় তাপমাত্রা নেমে গিয়েছে ১০-এরও নিচে। হওয়া অফিস সূত্রে খবর, আগামী রবিবার পর্যন্ত শীতের দাপট চলবে। বছর শেষে পশ্চিমি ঝঞ্ঝার দাপটে পারদ একটু বাড়লেও জানুয়ারির প্রথম সপ্তাহেই ফের চেনা ছন্দে হাজির হয়েছে ঠান্ডা। দিল্লি, পাঞ্জাব, হরিয়ানা, বিহারে শৈত্যপ্রবাহ চলছে।

[ট্রেনে হিজড়াদের তোলাবাজির দাপট, গ্রেপ্তার ৪]

সবমিলিয়ে গত দু’দিনে ‘শীত’ বস্তুত যে কী, তা হাড়ে হাড়ে মালুম পেয়েছে গোটা দেশ-সহ পশ্চিমবঙ্গবাসী। সকাল থেকেই ঝকঝকে আকাশ, কনকনে ঠান্ডা হাওয়ায় একদম বিলেতের পরিবেশ। শীতের কামড়ে জেলাগুলির অবস্থা শোচনীয়। রাস্তার পাশে আগুন জ্বালিয়ে উত্তাপ নিতে দেখা গিয়েছে মানুষকে৷ দোকানপাট খুলেছে দেরিতে। উত্তুরে হাওয়ার দাপটে দূরপাল্লার বাসের সব দরজা-জানালা বন্ধ। আলিপুর আবহাওয়া দপ্তরের অধিকর্তা গণেশকুমার দাস জানিয়েছেন, আরও কিছুটা নামতে পারে পারদ। উত্তরবঙ্গের জলপাইগুড়ি, কোচবিহার, শিলিগুড়ির সঙ্গে পশ্চিমাঞ্চলের বাঁকুড়া, বীরভূম, পুরুলিয়া, দুই মেদিনীপুরে আগামী ২৪ ঘণ্টায় তাপমাত্রা আরও নামার পূর্বাভাস দিয়েছে হাওয়া অফিস।

[পাশে নেই বাবাও, আদালতে মনুয়ার চোখে জল]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement