BREAKING NEWS

১২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  শুক্রবার ২৭ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

রাতে থাকা যাবে না হাওড়া স্টেশনে, নিষেধাজ্ঞা জারি হওয়ায় বিপাকে যাত্রীরা

Published by: Akash Misra |    Posted: January 24, 2022 9:08 pm|    Updated: January 24, 2022 10:07 pm

Passengers not allowed to stay in Howrah Station After Midnight | Sangbad Pratidin

সুব্রত বিশ্বাস : পূর্ব ভারতে কুয়াশার দাপট বাড়তেই বিলম্বিত লয়ের কোপে পড়ল দুরপাল্লার একাধিক ট্রেন। বিলম্বের কারণে ডাউনে ট্রেন না আসায় এদিন হরিদ্বারগামী উপাসনা এক্সপ্রেস হাওড়া থেকে বাতিল করা হয়েছে। প্রায় এক ঘন্টা দেরিতে হাওড়া আসে রাজধানী এক্সপ্রেস। হাওড়া এদিন আসেনি পাঞ্জাব মেল। যথা সময়ে চেয়ে প্রায় দু’ঘন্টা দেরিতে গন্তব্যে আসে যোধপুর এক্সপ্রেস, তিন ঘন্টা দেরিতে এসেছে দুন এক্সপ্রেস। গয়া এক্সপ্রেস বিলম্বে আসায় আপ ট্রেনটি এদিন তিন ঘন্টা দেরি করে রাত এগারোটার সময় হাওড়া থেকে রওনা দেয়। বিলম্বের জন্য কুয়াশাকেই দায়ী করেছে পূর্ব রেল। পূর্ব ভারতে শৈত্যপ্রবাহ যত বাড়বে তত বিলম্বে চলবে ট্রেন। দৃশ্যমানতা উপযুক্ত না থাকায় চালক ধীর গতিতে ট্রেন চালায়, প্রয়োজনে দাঁড় করিয়ে দেয়। রেল জানিয়েছে, যাত্রী সুরক্ষা সবার আগে। ঠান্ডায় লাইনে ফাটল ধরতে পারে, সিগন্যাল দেখার সমস্যা হতে পারে। সুরক্ষার জন্য গতি নিয়ন্ত্রণ করা হয় শীতের মরশুমে। আগামী দিনে এই সমস্যা বাড়বে বলে ইঙ্গিত দিয়েছে রেল।

[আরও পড়ুন: বিদ্রোহে’ লাগাম টানতে নরমপন্থা রাজ্য বিজেপির, বাড়তি গুরুত্ব বিক্ষুব্ধ বিধায়কদের]

ট্রেন বিলম্ব আসা ও ছাড়ার কারণে রাতে যাত্রীদের স্টেশনে এসে থাকতে হয় বা ভোরের ট্রেন ধরতে আগেই রাতে এসে স্টেশনে অপেক্ষা করতে হয় যাত্রীদের। এবার সেই যাত্রীরাও পড়েছেন চরম সমস্যার মুখে। সামনে সাধারণতন্ত্র দিবস। নিরাপত্তার কারণে যাত্রীদের রাত বারোটার পর আর হাওড়া স্টেশনের ভিতরে থাকতে দেওয়া হচ্ছে না। আরপিএফ তাদের স্টেশনের বাইরে বের করে দিচ্ছে বলে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন যাত্রীরা। আরপিএফ জানিয়েছে, সাধারণতন্ত্র দিবসের আগে কড়া নিরাপত্তার কারণে এই বিধিনিষেধ। এমনকী, করোনার বিধিও রয়েছে এর মধ্যে। হাওড়া নিউ কমপ্লেক্সে আগেই এই নিষেধাজ্ঞার জন্য যাত্রীরা গভীর রাতে আশ্রয় নিতেন পুরনো স্টেশনে। এবার সেখানে নিষেধাজ্ঞায় বিপদের মধ্যে পড়েছেন যাত্রীরা। তাদের কথায়, স্টেশনের ভিতরে যা নিরাপত্তা তা বাইরে নেই। চুরি, ছিনতাই হলে কে দায় সামলাবে বলে তারা প্রশ্ন তুলেছেন।

হাওড়ায় এই বিধিনিষেধ জারি হলেও শিয়ালদহে তেমনটা হয়নি। ডিআরএম এসপি সিং জানান, ট্রেন ধরতে যাত্রীরা আসেন, অনেক সময় এক ট্রেনে এসে অন্য ট্রেনের অপেক্ষা করতে হয়, সে জন্য যাত্রীদের স্টেশনে থাকতে হয়। দু- এক ঘন্টা যাত্রীরা স্টেশনে থাকবেন, দীর্ঘ সময়তো থাকবেন না। পাশাপাশি তিনি জানেন, সম্প্রতি শান্তিপুর লোকালে মহিলা যাত্রীর শ্লীলতাহানির ঘটনায় আরপিএফ ও জিআরপিকে সন্ধ্যা রাতে সারপ্রাইজ ভিজিটের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

[আরও পড়ুন: স্নাতকোত্তরে আসন বৃদ্ধির দাবি, ছাত্র বিক্ষোভে ফের উত্তপ্ত কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে