BREAKING NEWS

২৬ শ্রাবণ  ১৪২৭  বুধবার ১২ আগস্ট ২০২০ 

Advertisement

‘গাফিলতি’তে রোগীমৃত্যু, ফের সরকারি হাসপাতালের চিকিৎসককে মার রোগীর পরিবারের

Published by: Sayani Sen |    Posted: August 1, 2020 10:49 pm|    Updated: August 1, 2020 10:49 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রোগীমৃত্যুতে ফের গাফিলতির অভিযোগ। আর সেই অভিযোগকে কেন্দ্র করে শনিবার বিকেল থেকে উত্তপ্ত বেহালার (Behala) বিদ্যাসাগর স্টেট জেনারেল হাসপাতাল। চিকিৎসককে মারধরও করা হয় বলে অভিযোগ। পর্ণশ্রী থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

ঠিক কী ঘটেছিল? শনিবার সকালে বেহালার শিবরামপুরের বাসিন্দা উনসত্তর বছর হয়সি গীতারানি মিত্র নামে এক বৃদ্ধাকে ওই হাসপাতালে ভরতি করা হয়। দুপুর থেকে তাঁর প্রচণ্ড শ্বাসকষ্ট শুরু হয়। অভিযোগ, রোগী প্রচণ্ড কষ্ট পাওয়া সত্ত্বেও চিকিৎসক, নার্স কেউই তাঁর কাছে এগিয়ে আসেননি। একজন আয়ার সাহায্যে অক্সিজেন সিলিন্ডারের বন্দোবস্ত করা হয়। তবে রোগীর পরিবারের দাবি, একে একে মোট তিনটি সিলিন্ডার আনা হলেও তাতে অক্সিজেনই ছিল না। কিছুক্ষণের মধ্যে শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যায় মৃত্যু হয় বৃদ্ধার। আর সেই খবর পাওয়ামাত্রই উত্তেজিত হয়ে পড়েন রোগীর আত্মীয়রা। তাঁদের দাবি, সঠিক সময়ে চিকিৎসার ব্যবস্থা হলে ওই বৃদ্ধার মৃত্যু হত না।

[আরও পড়ুন: এক মাসে প্রায় ১৫০০ করোনায় আক্রান্ত! বিধাননগরের পরিস্থিতিতে স্বস্তিতে নেই স্বাস্থ্যকর্তারা]

হাসপাতালে প্রবল বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন নিহত বৃদ্ধার পরিবারের লোকজন। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের অভিযোগ, নীলাদ্রি সাহা নামে ওই হাসপাতালেরই এক চিকিৎসককে হেনস্তা করেন বৃদ্ধার পরিজনেরা। এছাড়া হাসপাতালের একাধিক কর্মীকেও মারধর করেন তারা। পরিস্থিতি বেগতিক বুঝে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ পর্ণশ্রী থানায় খবর দেয়। প্রায় সঙ্গে সঙ্গেই পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছয়। তারপরই পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়। তবে এখনও ওই বৃদ্ধা কিংবা হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ কারও তরফেই অভিযোদ দায়ের করা হয়নি।

[আরও পড়ুন: বিক্রি করা যাবে না জিনিসপত্র! করোনা রোগীর পরিবারের জন্য ‘ফতোয়া’ জারি তৃণমূল নেতার]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement