BREAKING NEWS

১২ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

আর জি কর হাসপাতালের অচলাবস্থা কাটাতে হাই কোর্টে দায়ের জনস্বার্থ মামলা

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: October 23, 2021 2:15 pm|    Updated: October 23, 2021 9:05 pm

PIL filed in Calcutta HC regarding to smoothen medical services at RG Kar Medical College | Sangbad PratidinE

শুভঙ্কর বসু: আর জি কর মেডিক্যাল কলেজ (RG Kar Medical College) হাসপাতালের অচলাবস্থা কাটাতে এবার আইনের দ্বারস্থ হলেন এক ব্যক্তি। নন্দলাল তিওয়ারি  নামে এক আইনজীবী শনিবার কলকাতা হাই কোর্টে (Calcutta HC) জনস্বার্থ মামলা দায়ের করেছেন। তাঁর আবেদন, দ্রুত জুনিয়র ডাক্তারদের অনশন তুলে চিকিৎসা পরিষেবা ফেরাতে উচ্চ আদালত হস্তক্ষেপ করুক। এই মুহূর্তে আদালতে পুজোর ছুটি। শুধু গুরুত্বপূর্ণ মামলার জন্য অবকাশকালীন বেঞ্চ বসছে। আগামী সোমবার সেই অবকাশকালীন বেঞ্চে মামলাটির উল্লেখ করবেন মামলাকারী আইনজীবী।

অক্টোবরের গোড়া থেকেই একাধিক দাবি নিয়ে কর্মবিরতি শুরু করে আর জি কর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের একদল জুনিয়র ডাক্তার, ইন্টার্ন। তাতে ব্যাহত হয় চিকিৎসা পরিষেবা। আন্দোলনকারীদের একটাই দাবি, অধ্যক্ষকে ইস্তফা দিতে হবে। সরকারি হাসপাতালে এসে চিকিৎসা না পেয়ে ফিরে যেতে হয় অনেক রোগীকেই। বিষয়টি ক্রমশ জটিল হয়ে উঠতে থাকলে নড়েচড়ে বসে রাজ্য স্বাস্থ্যদপ্তর। আর জি করের জট কাটানোর জন্য স্বাস্থ্যদপ্তরের কর্তারা একটি ‘মেন্টর গ্রুপ’ (Mentor Group) তৈরি করে দেন। এই গ্রুপের সদস্যদের হাতেই দায়িত্ব দেওয়া হয় আন্দোলনকারীদের সঙ্গে কথা বলে তাঁদের কাজে ফেরানোর। কিন্তু একাধিকবার হাসপাতালের অধ্যক্ষ-সহ শীর্ষ কর্তা, মেন্টর গ্রুপের সদস্যরা আন্দোলনরত জুনিয়র চিকিৎসকদের সঙ্গে কথা বললেও সুরাহা মেলেনি কিছুই।

[আরও পড়ুন: ‘১০ বছর ধরে অত্যাচারিত গোয়াবাসী’, সফরের আগে বিজেপিকেই নিশানা মমতার]

এরপর আর জি কর হাসপাতালের চিকিৎসা পরিষেবা কার্যত বন্ধ হওয়ার উপক্রম হলে কড়া পদক্ষেপ নেন স্বাস্থ্যকর্তারা। কাজে যোগ না দিলে ‘অনুপস্থিত’ বলে গণ্য করা হবে। কেরিয়ারে কোপ পড়তে পারে। এরপর আন্দোলনকারীদের একাংশ কাজে ফিরলেও, জনা কয়েক ইন্টার্ন এবং জুনিয়র চিকিৎসক আমরণ অনশনের সিদ্ধান্ত নেন। এরপর পরিস্থিতি আরও জটিল হতে থাকে। এবার সেই জটিলতা কাটাতে কলকাতা হাই কোর্টে জনস্বার্থ মামলা (PIL) দায়ের করলেন আইনজীবী।

[আরও পড়ুন:হু হু করে বাড়ছে সবজির দাম, কালোবাজারি রুখতে বাজারে হানা এনফোর্সমেন্ট ব্রাঞ্চের]

জানা গিয়েছে, শনিবার মামলাকারী নন্দলাল তিওয়ারির আইনজীবী সুমন সেনগুপ্ত মহামারীকালে এভাবে চিকিৎসকদের আন্দোলনের কারণে পরিষেবা ব্যাহত হওয়ায় অসুবিধার কথা উল্লেখ করে জানান অচলাবস্থা কাটাতে আদালতের হস্তক্ষেপের আবেদন করেন। আগামী সোমবার বিচারপতি দেবাংশু বসাকের অবকাশকালীন বেঞ্চে মামলাটি উঠবে। ওইদিনই শুনানির সম্ভাবনা।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে