২২  শ্রাবণ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ৯ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

নির্বাচনে সাফল্য পেতে নয়া অস্ত্র, প্রশান্ত কিশোরের স্ট্র্যাটেজিতে বিধানসভায় লড়বে তৃণমূল

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: June 6, 2019 5:43 pm|    Updated: June 6, 2019 5:43 pm

Prashant Kishor to be TMC's new strategist for upcoming election

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কাজে এতটুকুও ফাঁক না রাখার পরও সদ্য সমাপ্ত লোকসভা নির্বাচনে অপ্রত্যাশিত ফলাফল হয়েছে রাজ্যের শাসকদলের৷ এবার তাই একেবারে পেশাদারিভাবে নির্বাচনী স্ট্র্যাটেজি ঠিক করতে চলেছে তৃণমূল৷ বৃহস্পতিবার বিকেলে নির্বাচনী স্ট্র্যাটেজিস্ট প্রশান্ত কিশোরের নবান্নে আগমন সেই ইঙ্গিত মিললেও, নিশ্চিত হওয়া গেল কিছুক্ষণের মধ্যেই৷ প্রশান্ত কিশোরের সঙ্গে রীতিমতো চুক্তি করে নিল তৃণমূল নেতৃত্ব৷ ২০২১ এ বিধানসভা নির্বাচনের স্ট্র্যাটেজি ঠিক করবেন প্রশান্ত কিশোর৷

[আরও পড়ুন: অঞ্জু ঘোষ ভারতীয়ই, বার্থ সার্টিফিকেট প্রকাশ করে দাবি বিজেপির]

এদিন বিকেলে নবান্নে আসেন প্রশান্ত কিশোর৷ সূত্রের খবর, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে দীর্ঘ ১ ঘণ্টা ৪০ মিনিট মতো আলোচনা করেন তিনি৷ পেশাদারিভাবে একদা আপের এই নেতা নির্বাচনী রণকৌশল ঠিক করে থাকেন৷ দিল্লিতে আপ সরকারের আগমন, ২০১৪-এ মোদি সরকারের ক্ষমতায় আসা থেকে সম্প্রতি অন্ধ্রে জগনমোহন রেড্ডির বিপুল ভোটে জিতে সরকার গঠন – সবেতেই প্রশান্ত কিশোরের ব্লু প্রিন্ট অনুযায়ী প্রত্যাশিত সাফল্য এসেছে৷ এবার কি তৃণমূলও তাঁকে কাজে লাগাতে চাইছে? তবে কি ২০২১এর বিধানসভা ভোটে বিজেপির বিরুদ্ধে তৃণমূলের লড়াই হবে প্রশান্তের ঠিক করে দেওয়া স্ট্র্যাটেজি অনুযায়ী? সেই প্রশ্নই উঠছিল রাজ্য রাজনীতিতে৷ তাতেই সিলমোহর পড়ল প্রশান্তের সঙ্গে তৃণমূলের চুক্তির খবর প্রকাশিত হওয়ার পর৷

উনিশের নির্বাচনে প্রত্যাশার চেয়ে অনেক খারাপ ফলাফল হয়েছে তৃণমূলের৷ বিয়াল্লিশের বিয়াল্লিশ টার্গেট নিয়ে ২২টি আসন পেয়েছে রাজ্যের শাসকদল৷ ১৮টি আসন জিতে নিয়েছে গেরুয়া শিবির৷ রাজ্যের প্রধান বিরোধী শক্তি হিসেবে উঠে এসেছে বিজেপি৷ যা নতুন করে মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দলের কাছে৷

[আরও পড়ুন: তথাগত রায়কে অপসারণের দাবিতে হাজরায় ধরনা বঙ্গজননী বাহিনীর়]

ফলপ্রকাশের পর গতিপ্রকৃতি বুঝে জমি উদ্ধারে নতুন করে ঝাঁপিয়ে পড়ার নকশা তৈরি করছে তৃণমূল কোর কমিটি৷ একাধিকবার বৈঠক, আলোচনার মাধ্যমে নিত্যদিন নতুন নতুন পরিকল্পনা ছকা হচ্ছে৷ তা সত্ত্বেও এবার ১০০ শতাংশ সাফল্য পেতেই  পেশাদারিভাবে স্ট্র্যাটেজিস্টের সাহায্য নিচ্ছেন তৃণমূল নেত্রী৷ আর তাই ভোটের অঙ্কে সবচেয়ে বেশি সফল হওয়া প্রশান্ত কিশোরকেই ডেকে পাঠিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ চুক্তিও হয়ে গিয়েছে দু’পক্ষের৷ ফলে ২০২১-এ বিজেপির আসল লড়াই হতে চলেছে প্রশান্ত কিশোরের সূক্ষ্ম এবং সাফল্যের পথে প্রায় নিশ্চিত এক স্ট্র্যাটেজির বিরুদ্ধে৷  

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে