BREAKING NEWS

১৩  আষাঢ়  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৮ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

ঋতব্রতর বিরুদ্ধে কড়া শাস্তির দাবি উঠবে রাজ্য কমিটিতেও

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: February 21, 2017 4:00 am|    Updated: February 21, 2017 4:00 am

Ritabrata Banerjee's Apple Watch Incident Has Exposed A Deep Rift In West Bengal's CPM

বুদ্ধদেব সেনগুপ্ত ও রূপায়ণ গঙ্গোপাধ্যায়: ফেসবুক পোস্টকে কেন্দ্র করে বিতর্ক৷ আর সেই বিতর্ককে অস্ত্র করেই সিপিএমের সাংসদ ও ছাত্র নেতা ঋতব্রত বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে তোপ দাগার প্রস্তুতি শুরু করল জেলা নেতৃত্ব৷ বিতর্কিত শুধু এই ছাত্র নেতাই নন, তোপের মুখে পড়তে হবে বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য, সূর্যকান্ত মিশ্র, বিমান বসুদেরও৷ তাঁদের প্রশ্রয়েই ঋতব্রতর বাড়বাড়ন্ত বলে অভিযোগ রাজ্য কমিটির সংখ্যাগরিষ্ঠ সদস্যের৷ তাই সুযোগের সদ্ব্যবহার করতে আগামিকাল ও পরশু রাজ্য কমিটির বৈঠকে এই ছাত্র নেতা-সহ রাজ্য পার্টির শীর্ষ নেতৃত্বের বিরুদ্ধে জেলা নেতৃত্ব তোপ দাগবেন বলে ইঙ্গিত মিলেছে৷

অন্যদিকে পার্টির যে সদস্য ছাত্র নেতা ছবিটি পোস্ট করেছিলেন, তিনি সোমবার আলিমুদ্দিনে চিঠি মারফত অভিযোগ করেন, ঋতব্রতর অভিযোগের ভিত্তিতে তাঁকে অন্যত্র চাকরি খুঁজে নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে কোম্পানি৷ তাঁর চিঠি আলিমুদ্দিনে পৌঁছতেই পার্টির অন্দরে শোরগোল পড়ে গিয়েছে৷ এদিকে দু’দিনের রাজ্য কমিটির বৈঠকে হাজির থাকার কথা সীতারাম ইয়েচুরি ও প্রকাশ কারাতের৷

(ঋতব্রতর ফেসবুক পোস্ট ঘিরে বিতর্ক, পার্টির অবস্থান নিয়ে প্রশ্ন)

বিতর্কের সূত্রপাত শিলিগুড়িতে ডার্বি ম্যাচের দিন৷ সেদিন কয়েকজন সহকর্মীকে নিয়ে খেলা দেখতে গিয়েছিলেন ঋতব্রত৷ খেলা চলাকালীন ঋতব্রতর একটি ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেন পার্টিরই এক সদস্য৷ ছবিতে দেখা যায়, ঋতব্রতর হাতে ও পকেটে বহুমূল্যের বিদেশি ঘড়ি ও পেন শোভা পাচ্ছে৷ একজন বামপন্থী ছাত্র নেতার এই ধরনের ঘড়ি ও পেন ব্যবহার করা উচিত কি না তা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন পার্টির ওই সদস্য৷ অভিযোগ, এরপরই ওই পার্টি সদস্যের অফিসে একটি মেল পাঠিয়ে তাঁর চাকরি কেড়ে নেওয়ার হুঁশিয়ারি দেন ঋতব্রত৷ আর এটা নিয়েই বিতর্ক চরম আকার নেয়৷ সিপিএম সাংসদের এই আচরণে সোশ্যাল মিডিয়ায় ওঠে প্রশ্নের ঝড়৷ যে পার্টি সদস্য ফেসবুকে ওই মন্তব্য করেছিলেন তাঁর অফিসের এইচআর বিভাগের এক আধিকারিককে অভিযোগ জানিয়ে মেল করেছিলেন ঋতব্রত৷ সেই মেলের স্ক্রিন শটও ছড়িয়ে পড়ে সোশ্যাল মিডিয়ায়৷ জানা গিয়েছে, এরপরই ওই সিপিএম সদস্য পাল্টা পদক্ষেপ হিসাবে ঋতব্রতর বিরুদ্ধে সিপিএমের দিল্লি ও রাজ্য নেতাদের কাছে অভিযোগ পাঠিয়েছেন৷ বিতর্ক তুমুল আকার নিতেই নড়েচড়ে বসে সিপিএম পার্টি৷ দলের সাধারণ সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরি রবিবার জানান, পুরো বিষয়টি দেখে যা করার পার্টির রাজ্য নেতৃত্বই করবেন৷ ইতিমধ্যেই পার্টির তরফেও বিবৃতি দিয়ে বলা হয়েছে, ঋতব্রতর এই কার্যকলাপ পার্টি অনুমোদন করে না৷ ফলে মনে করা হচ্ছে, আলিমুদ্দিনে রাজ্য কমিটির বৈঠকে ঋতব্রত বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি উঠবে৷

দীর্ঘদিন ধরেই বিলাসবহুল জীবনযাপনের জন্য পার্টির মধ্যে ঋতব্রতর বিরুদ্ধে অভিযোগ ছিল৷ এসব সত্ত্বেও বিভিন্ন সময়ে রাজ্যসভায় দলের এই তরুণ সাংসদকে আড়াল করেছেন শীর্ষ নেতৃত্ব৷ ধৃতরাষ্ট্রের ভূমিকায় দেখা গিয়েছে বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য, বিমান বসু, সূর্যকান্ত মিশ্রদের৷ এই অভিযোগ পার্টি নেতাদেরই একাংশের৷ কাজেই কাল বুধবার থেকে শুরু হওয়া রাজ্য কমিটির বৈঠকে ঋতব্রতকে নিয়ে ঝড় ওঠার ইঙ্গিত মিলেছে৷ সেই ঝড়ের আঁচ শীর্ষ নেতাদের উপরও পড়বে বলে মনে করা হচ্ছে৷

(ভেন্টিলেশনে শুয়ে মাধ্যমিক দেবে কলকাতার কিশোর)

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে