BREAKING NEWS

০৮ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  সোমবার ২৩ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

বড়দিন উদযাপন করে তীব্র সমালোচনার মুখে মীর

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: December 27, 2016 9:27 am|    Updated: December 27, 2016 9:41 am

RJ Mir attacked for celebrating Christmas

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: শহরবাসীর অনেকেরই ঘুম ভাঙে রেডিওর ওপার থেকে তাঁর গলায় গুড মর্নিং শুনে৷ অনেকেরই দিনের ক্লান্তি ঝরে যায় তাঁর সঞ্চালনার গুণে৷ তাঁর শুভরাত্রি শুনেই হাসিখুশি মন নিয়ে ঘুমোতে যাওয়া শহরবাসীর সংখ্যাও কিন্তু কম নয়৷ শহরের অন্যতম সেরা আরজে, সঞ্চালক মীরকেও যে আক্রমণের মুখে পড়তে হবে তা অনেকে স্বপ্নেও ভাবেননি৷ কিন্তু বাস্তব অনেকটাই কঠোর ও তিক্ত৷

বড়দিন উপলক্ষে স্ত্রী ও মেয়ের সঙ্গে একটি ছবি পোস্ট করেছিলেন মীর৷ লিখেছিলেন, তাঁর জীবনে এঁরাই সান্তা৷ প্রতিটা দিনই তাঁর কাছে বড়দিন৷ যথারীতি তাঁর ফ্যানরা সেই পোস্টেই তাঁকে বড়দিনের শুভেচ্ছা জানাচ্ছিলেন৷ কিন্তু এর মধ্যেই দেখা গেল ব্যতিক্রম৷ ইসলাম ধর্মাবলম্বী হয়ে তাঁর যে বড়দিন সেলিব্রেট করা উচিত নয়, এমনটাই বললেন কেউ কেউ৷ তা নিয়ে রীতিমতো সমালোচনার মুখে পড়তে হয় মীরকে৷

15747642_10154785254815987_5167700412991772649_n

তিনি অবশ্য তাঁর স্বভাবসিদ্ধ মেজাজ ও মর্জিতেই এর উত্তর দিয়েছেন৷ কোথাও রাগ অভিমানের লেশমাত্র নেই৷ বরং তাঁর উত্তরে যেন ফুটে উঠেছে আক্ষেপ৷ মীর জানিয়েছেন, তিনি যদি আজ মিশন্যারিজ অফ চ্যারিটিজ-এ অর্থ দান করতে চান, তবে হয়তো তাঁকে বলা হবে, ওখানে নয় এতিমখানায়  সাহায্য করা উচিত তাঁর৷ সেখানে করতে গেলে কেউ বলবেন, একজন ইসলাম ধর্মাবলম্বীর কাছে এর থেকে বেশি আর কী আশা করা যায়! আর এরপরই তাঁর মন্তব্য, ধর্মের সত্যিই কোনও সীমা হয় না৷ কিন্তু তা চিহ্নিত করার এক মারাত্মক লক্ষণ ইদানীং গোটা বিশ্বেই দেখা যাচ্ছে৷ তিনি জানান, একজন ইসলাম ধর্মাবলম্বী হিসেবে তিনি তাঁর ধর্মের পাঠ নিয়েছেন৷ কিন্তু ব্যক্তিগত জীবনে তিনি বিবাহসূত্রে আবদ্ধ হয়েছেন এক ব্রাহ্মণকন্যার সঙ্গে৷ না, তাঁর স্ত্রীকে অবশ্য সে কারণে ধর্মান্তরিত হতে হয়নি৷ যাঁরা এই বিভাজনের রেখা টানছেন, তাঁদের উদ্দেশ্যে মীর যিশুর কথা উদ্ধৃত করেই  বলেছেন, এঁরা জানে না এঁরা কী করছেন৷

প্রসঙ্গত, সোশ্যাল মিডিয়ায় স্ত্রীর ছবি দিয়ে বিপাকে পড়েছিলেন ভারতীয় ক্রিকেটার মহম্মদ শামিও৷ স্ত্রীর পোশাক নিয়ে কটুক্তির মুখে পড়েও আশ্চর্য শান্ত থেকেছিলেন তিনি৷ বরং সেই কুরুচিকর সমালোচনার নিন্দা করেছিলেন বহু মানুষ৷ মীরের ক্ষেত্রেও প্রতিবাদের ঝড় উঠেছে সোশ্যাল মিডিয়ায়৷ তবে সেই সবের মধ্যেই মীরের শান্ত উত্তর যেন জানিয়ে দিচ্ছে, এ দেশে ধর্মের প্রকৃত অর্থটি৷ জানিয়ে দিচ্ছে, এটাই শহর কলকাতার স্পিরিট৷ আর সেই সঙ্গে যেন জাগিয়ে রাখছে প্রশ্ন, আর কবে ধর্ম বলতে মানুষ শুধু মানুষকেই বুঝবে!

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে