২১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  বুধবার ৮ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

পুরসভার পানীয় জলে কিলবিল করছে পোকা! আতঙ্ক ছড়াল সন্তোষপুরে

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: February 13, 2018 5:17 pm|    Updated: February 13, 2018 5:17 pm

Santoshpur residents find worm in water supplied by KMC

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: শহরে ছড়াচ্ছে আন্ত্রিক। বাঘাযতীন, পাটুলি, যাদবপুরে অসুস্থ হয়ে পড়েছেন বহু মানুষ। মঙ্গলবার আবার আন্ত্রিক আক্রান্তের সন্ধান মিলেছে ঢাকুরিয়া ও হালতুতেও। তুমুল আতঙ্ক গ্রাস করেছে স্থানীয় বাসিন্দাদের। আর এবার সন্তোষপুরে পুরসভার পানীয় জলে দেখা গেল পোকা। স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, পানীয় জলের কল খুললেই পোকা বেরোচ্ছে। খবর পেয়ে দ্রুত ব্যবস্থা নিয়েছে পুরসভা। জলের নমুনা সংগ্রহ করে নিয়ে গিয়েছেন পুরকর্মীরা। আপাতত ওই জল ব্যবহার না করার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। কিন্তু, আতঙ্ক বেড়ে গিয়েছে বহুগুণ। এদিকে, আন্ত্রিক মোকাবিলা ব্যর্থতার অভিযোগে মেয়রের পদত্যাগ দাবি করেছে বিজেপি। মঙ্গলবার এই দাবিতে পুরসভার বিক্ষোভ দেখায় বিজেপির যুব মোর্চার সদস্যরা।

[বাঘাযতীনের পর এবার ঢাকুরিয়া-হালতুতে ডায়েরিয়া, ছড়াচ্ছে তীব্র আতঙ্ক]

বাঘাযতীন, পাটুলি, যাদবপুরই বলুন কিংবা ঢাকুরিয়া ও হালতু, দক্ষিণ কলকাতার এইসব এলাকার পুরসভার সরবরাহ করা জলই ব্যবহার করেন স্থানীয় বাসিন্দারা। পুরসভা সূত্রে খবর, এইসব এলাকায় ধাপার জয় হিন্দ জলপ্রকল্প ও গার্ডেনরিচ থেকে পানীয় জল সরবরাহ করা হয়। তাই আন্ত্রিকের প্রকোপের জন্য পুরসভাকেই দায়ী করছেন অনেকেই। তাঁদের অভিযোগ, পুরসভার পাইপে ফাটলের কারণে পানীয় জল দুষিত হয়ে পড়েছে। তাতেই ছড়াচ্ছে আন্ত্রিকের মতো জলবাহিত রোগ। ইতিমধ্যেই বিভিন্ন এলাকার পানীয় জলের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করেছেন পুরসভার ইঞ্জিনিয়াররা। পুর আধিকারিকদের দাবি, পানীয় জলের সন্দেহজনক কিছু পাওয়া যায়নি। কিন্তু, তাহলে কীভাবে ছড়িয়ে পড়ল আন্ত্রিক? উত্তর জানা নেই কারও। তবে সন্তোষপুরে পুরসভার সরবরাহ করা পানীয় জলের সঙ্গে পোকা বেরোচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

[সুখবর! পুজোর আগেই চালু হচ্ছে ইস্ট-ওয়েস্ট মেট্রো পরিষেবা]

দক্ষিণ শহরতলির বাঘাযতীন, পাটুলি, যাদবপুরের একেবারেই লাগোয়া সন্তোষপুর। পানীয় জলের ব্যাপারে পুরসভার উপর নির্ভরশীল এখানকার বাসিন্দারা। পান ছাড়াও বাড়ির অন্যান্য কাজেও পুরসভার জলই ব্যবহার করেন তাঁরা। সন্তোষপুরের বাসিন্দাদের অভিযোগ, মঙ্গলবার সকাল থেকে কল খুললেই পোকা বেরোচ্ছে। প্রথম কয়েক বালতি জল ফেলে দিতে হচ্ছে। তারপর মিলছে পরিষ্কার জল। সেই জল ব্যবহার করছেন তাঁরা। খবর পাওয়া মাত্রই দ্রুত ব্যবস্থা নিয়েছে পুরসভা। ইতিমধ্যেই জলের নমুনা সংগ্রহ করে নিয়ে গিয়েছেন পুরকর্মীরা। কিন্তু, দক্ষিণ শহরতলি বিস্তীর্ণ এলাকা যে আন্ত্রিক ছড়িয়েছে, তাতে রীতিমতো আতঙ্কিত সন্তোষপুরের বাসিন্দারা।

[৯৫ শতাংশ পদের জন্যই চাই আইটিআই ডিপ্লোমা, রেলে নিয়োগ ঘিরে বিক্ষোভ]

এদিকে আন্ত্রিক মোকাবিলায় ব্যর্থতার অভিযোগ তুলে এদিন কলকাতা পুরসভায় বিক্ষোভ দেখাল বিজেপি। বিক্ষোভে শামিল হয়েছিলেন যুব মোর্চার সদস্য। তাঁদের দাবি, ডেঙ্গুর মতো আন্ত্রিক পরিস্থিতি ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা করছে পুর প্রশাসন। ফলে পরিস্থিতি আরও খারাপ হতে পারে। তাই আগামী ৭২ ঘণ্টার মধ্যে আন্ত্রিকরোধে পুরসভা কী পদক্ষেপ করেছে, তা জানাতে হবে এবং ব্যর্থতার দায় নিয়ে মেয়রকে পদত্যাগ করতে হবে।

[‘ভ্যালেন্টাইনস ডে’ উপলক্ষে আকাশছোঁয়া দাম, গোলাপ বিকোচ্ছে ১০০০ টাকায়]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে